নূপুর শর্মাকে নিয়ে ফেইসবুকে পোস্ট, নড়াইলে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ

ভারতের বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মার ছবি দিয়ে ফেইসবুক এক কলেজছাত্রের মন্তব্যের জেরে নড়াইলে সংঘর্ষে এক পুলিশ সদস্যসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন।

নড়াইল প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 19 June 2022, 06:51 AM
Updated : 19 June 2022, 09:13 AM

শনিবার বিকালে নড়াইল সদর উপজেলার মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজে এ ঘটনা ঘটে বলে জানান নড়াইল সদর থানার ওসি মোহাম্মদ শওকত কবীর জানান।

তিনি বলেন, সংঘর্ষের পর সন্ধ্যায় ওই কলেজের অধ্যক্ষ এবং একাদশ শ্রেণির এক হিন্দু ছাত্রকে থানা হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ।

শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, হযরত মুহম্মদকে (সা.) নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যকারী ভারতের বিজেপি নেতা নূপুর শর্মার ছবি দিয়ে শুক্রবার তার পক্ষে ফেইসবুকে একটি পোস্ট দেন একাদশ শ্রেণির ওই ছাত্র। পরদিন কলেজে গেলে কিছু মুসলমান ছাত্র তাকে ওই পোস্ট মুছে ফেলতে বলেন।

পরে বিষয়টি নিয়ে তারা কলেজ অধ্যক্ষের কাছে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানালে ওই ছাত্রকে হেফাজতে রেখে পুলিশে খবর দেন অধ্যক্ষ।

এরই মধ্যে ‘অধ্যক্ষ ওই ছাত্রের পক্ষ নিয়েছেন’ এমন গুজব ছড়ানো হলে উত্তেজনা তৈরি হয়। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে ওই ছাত্রকে নিয়ে যেতে চাইলে উত্তেজিত ছাত্ররা এবং স্থানীয় কিছু লোক বাধা দেয়।

এক পর্যায়ে বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে সংঘর্ষ বেধে গেলে দুটি মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়া হয়। তখন পুলিশ টিয়ার শেল ছুড়ে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। নড়াইলের জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার ঘটনাস্থলে গিয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

ওসি শওকত কবীর বলেন, “কলেজ অধ্যক্ষ এবং ওই ছাত্রকে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। সংঘর্ষে আমাদের এক পুলিশ সদস্য আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, পরিস্থিতি বর্তমানে নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

নড়াইলের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান বলেন, “আমরা অধ্যক্ষসহ ওই ছাত্রকে নিয়ে এসেছি। উত্তেজিত জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে কয়েক রাউন্ড গ্যাস ছোড়া হয়েছিল। আসলে কী ঘটেছে সেটা তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক