হাদিসুরের মরদেহ বরগুনার বাড়িতে পৌঁছেছে

ইউক্রেনে রকেট হামলায় নিহত বাংলার সমৃদ্ধি জাহাজের থার্ড ইঞ্জিনিয়ার হাদিসুর রহমানের মরদেহ তার বরগুনার বাড়ি পৌঁছেছে।

বরগুনা প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 14 March 2022, 04:32 PM
Updated : 14 March 2022, 04:32 PM

সোমবার রাত ৯টা ৪০ মিনিটে বেতাগী উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নের কদমতলা গ্রামের বাড়িতে তার মরদেহ নিয়ে আসা হয়।

হাদিসুরের বাবা আবদুর রাজ্জাক হাওলাদার জানান, মঙ্গলবার সকাল ১০টায় বাড়ির পাশের মাঠে তার নামাজে জানাজা হবে। পরে পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

২ মার্চ তারিখে ইউক্রেনে রকেট হামলায় বাংলার সমৃদ্ধি জাহাজের থার্ড ইঞ্জিনিয়ার হাদিসুর রহমান মারা যান। জাহাজের বাকি ২৮ নাবিক আর প্রকৌশলী দেশে ফেরেন গত ৯ মার্চ। আর হাদিসুরের কফিন টার্কিশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে সোমবার দুপুর সোয়া ১২টার দিকে ঢাকা পৌঁছায়।

হাদিসুর রহমানের মরদেহ ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আনুষ্ঠানিকতা শেষে বেলা সোয়া ১টায় গ্রামের বাড়ি বেতাগীর উদ্দেশে রওনা দেন স্বজনরা।

শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে মরদেহ বুঝে নেন হাদিসুরের ছোট ভাই গোলাম মাওলা প্রিন্সসহ পরিবারের কয়েকজন। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের পাশাপাশি বরগুনা-২ আসনের এমপি শওকত হাচানুর রহমান রিমনও ছিলেন সেখানে।

এছাড়াও ছিলেন হাদিসুরের চাচা মিজানুর রহমান জীবন, খালা শিরিন আক্তার মমতাজ, খালাতো ভাই সোহাগ হাওলাদার।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হাদিসুরের মরদেহ বাড়িতে পৌঁছানোর পর আত্মীয়-স্বজনের আহাজারিতে পরিবেশ ভারী হয়ে ওঠে। বাবা আবদুর রাজ্জাক হাওলাদার বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন। মা আমেনা বেগম মুর্ছা যাচ্ছেন বারবার। একমাত্র বোন সানজিদা আক্তার শম্পা আর মেজ ভাই তারেকের আর্তনাদ থামাতে পারছে না কেউ।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক