এক জালে ৬ লাখ টাকার মাছ

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার শাহপরীর দ্বীপে এক জেলের জালে ধরা পড়েছে প্রায় তিনশ মণ মাছ, যা বিক্রি হয়েছে ছয় লাখ টাকায়। সোমবার সকালের ভাটায় শাহপরীর দ্বীপ পশ্চিমপাড়া সৈকতে জাল ফেলে এই মাছ পান মাঝের পাড়ার জেলে মো. কলিম উল্লাহ। স্থানীয় বাসিন্দা জসীম মাহমুদের ছবির গল্প।
  • টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপের পশ্চিম সৈকতে সোমবার সকালে ভাটার সময় টানা জাল ফেলে ঝাঁকে ঝাঁকে মাছ পান জেলে মো. কলিম উল্লাহ ও তার দল।

    টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপের পশ্চিম সৈকতে সোমবার সকালে ভাটার সময় টানা জাল ফেলে ঝাঁকে ঝাঁকে মাছ পান জেলে মো. কলিম উল্লাহ ও তার দল।

  • একবার জাল ফেলে বিপুল পরিমাণ মাছ পাওয়ার খবরে সোমবার সকালে শাহপরীর দ্বীপের পশ্চিম সৈকতে ভিড় করেন বাসিন্দারা।

    একবার জাল ফেলে বিপুল পরিমাণ মাছ পাওয়ার খবরে সোমবার সকালে শাহপরীর দ্বীপের পশ্চিম সৈকতে ভিড় করেন বাসিন্দারা।

  • জালে ধরা পড়া মাছের মধ্যে বেশিরভাগই পোয়া, ফাইস্যা, মলা, ছুরি, বাটার মত ছোট ছোট সামুদ্রিক মাছ।

    জালে ধরা পড়া মাছের মধ্যে বেশিরভাগই পোয়া, ফাইস্যা, মলা, ছুরি, বাটার মত ছোট ছোট সামুদ্রিক মাছ।

  • জেলে মো. কলিম উল্লাহ বলছেন, সোমবার সকালে ভাটার সময় জাল ফেলে একবারে তিনশ মণের মত মাছ তিনি পেয়েছেন।

    জেলে মো. কলিম উল্লাহ বলছেন, সোমবার সকালে ভাটার সময় জাল ফেলে একবারে তিনশ মণের মত মাছ তিনি পেয়েছেন।

  • কলিম উল্লাহ ও তার দল জাল তোলার সময়ই সব মাছ পাইকারি ক্রেতারা কিনে নেন ছয় লাখ টাকায়। এসব মাছের কিছু অংশ বাজারে বিক্রির জন্য পাঠানো হলেও বেশির ভাগ যাবে শুটকি মহালে।

    কলিম উল্লাহ ও তার দল জাল তোলার সময়ই সব মাছ পাইকারি ক্রেতারা কিনে নেন ছয় লাখ টাকায়। এসব মাছের কিছু অংশ বাজারে বিক্রির জন্য পাঠানো হলেও বেশির ভাগ যাবে শুটকি মহালে।

  • এক দিন আগেও কলিমুল্লাহ সাগরে জাল ফেলে পেয়েছিলেন চার লাখ টাকার মাছ।

    এক দিন আগেও কলিমুল্লাহ সাগরে জাল ফেলে পেয়েছিলেন চার লাখ টাকার মাছ।

  • এ বছর টানা জালে গত কয়েক বছরের তুলনায় বেশি মাছ ধরা পড়ছে বলে জানালেন শাহপরীর দ্বীপের জেলেরা।

    এ বছর টানা জালে গত কয়েক বছরের তুলনায় বেশি মাছ ধরা পড়ছে বলে জানালেন শাহপরীর দ্বীপের জেলেরা।

Print Friendly and PDF