প্রতিবন্ধী ভাতা বৃদ্ধির দাবি

প্রতিবন্ধী দিবস উপলক্ষে গাজীপুরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রতিবন্ধীদের মাসিক ভাতা বাড়ানোর দাবি তুলেছে তাদের নিয়ে কাজ করা একটি বেসরকারি সংস্থা।

গাজীপুর প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 3 Dec 2021, 01:14 PM
Updated : 3 Dec 2021, 01:19 PM

শুক্রবার গাজীপুর সিটি করপোরেশনের জরুন এলাকায় শ্রবণ ও বাক প্রতিবন্ধীদের নিয়ে শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভার আয়োজন করে ‘শ্রবণ ও বাক প্রতিবন্ধী সমাজ কল্যাণ সংস্থা’।

এই সংস্থার সাধারণ সম্পাদক প্রতিবন্ধী জহুরুল ইসলাম তাদের কয়েকটি দাবি তুলে ধরে বলেন, “মাসিক প্রতিবন্ধী ভাতা ৭৫০ টাকা থেকে বাড়িয়ে মাসিক ৬ হাজার টাকা করতে হবে।”

একই সঙ্গে বয়স্কভাতা, বিধবা ভাতা বৃদ্ধির জন্য সঠিক পদক্ষেপ ও বাস্তবায়ন করারও দাবি জানান তিনি।

প্রতিবন্ধী এই বক্তার বক্তব্য শ্রোতাদের বুঝিয়ে দেন দোভাষী মোমিনুর রহমান।

‘শ্রবণ ও বাক প্রতিবন্ধী সমাজ কল্যাণ সংস্থার’ জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি ও সংবাদকর্মী মোখলেছুর রহমান বলেন, তাদের সংগঠনে প্রায় ৫ শতাধিক শ্রবণ ও  প্রতিবন্ধী রয়েছেন। সারা বছর তাদের নিয়ে বিভিন্ন সামাজিক বিনোদনমূলক কাজ করা হয়। পাশাপাশি খেলাধুলা থেকে শুরু করে তাদের সুযোগ সুবিধার ব্যবস্থা করা হয়।

আলোচনা সভায় অতিথি ছিলেন গাজীপুর মহানগর পুলিশের (জিএমপি) কোনাবাড়ী থানার ওসি আবু সিদ্দিক, নগরীর ৭ নম্বর ওয়ার্ড সচিব মো. মনির হোসেন, ট্রাফিক পুলিশ সহকারী আরিফ সরকারসহ শ্রবণ ও বাক প্রতিবন্ধী সমাজ কল্যাণ সংস্থার সদস্যরা। 

সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভার আগে তারা একটি শোভাযাত্রা করেন।

এই এলকায় প্রায় এক হাজার শ্রবণ ও বাক প্রতিবন্ধী বসবাস করেন। তারা স্থানীয় একটি কারখানায় চাকরি করেন।

প্রশাসনের আয়োজন

দিবসটি পালন উপলক্ষে গাজীপুর জেলা প্রশাসন ও সমাজ সেবা অধিদপ্তরের আয়োজনেও জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে থেকে একটি শোভযাত্রা বের হয়।

শোভাযাত্রা শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে ভাওয়াল সম্মেলন কক্ষে আলোচনা সভায় মিলিত হয়।

গাজীপুর সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক এসএম আনোয়ারুল করিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপ সচিব মো. কামরুজ্জামান। 

বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ জাতীয় সমাজকল্যাণ পরিষদের সদস্য দিলরুবা ফাইজিয়া।

অন্যান্যের মধ্যে গাজীপুর জেলা প্রশাসক ও সমাজ সেবা অধিদপ্তরের কর্মকর্তা কর্মচারী ও সরকারি প্রতিবন্ধী ও শিশু পরিবারের সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক