যুবদলের লিয়নকে ‘জনসম্মুখে হাজির করার’ দাবি বিএনপির

ঢাকার পল্টন থানা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক লিয়ন হককে মঙ্গলবার থেকে ‘পাওয়া যাচ্ছে না’ জানিয়ে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর দিকে সন্দেহের আঙুল তুলেছে বিএনপি।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 Nov 2020, 10:34 AM
Updated : 18 Nov 2020, 10:34 AM

বুধবার দলটির কেন্দ্রীয় দপ্তরের দায়িত্বপ্রাপ্ত সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে অবিলম্বে লিয়নকে জনসম্মুখে হাজির করার দাবি জানানো হয়েছে।

সেখানে বলা হয়, “আমরা উৎকণ্ঠার সাথে জানাচ্ছি যে, জাতীয়তাবাদী যুবদলের পল্টন থানার যুগ্ম আহ্বায়ক লিয়নকে গতকাল দুপুর থেকে পাওয়া যাচ্ছে না। তার সহকর্মী ও পরিবারের সদস্যরা থানাসহ বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ খবর নিয়েও এখন পর্যন্ত তার কোনো সন্ধান পায়নি।

“লিয়ন হকের সহকর্মী ও পরিবারের সদস্যদের ধারণা, তাকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী আটক করে গোপন রাখছে।”

প্রিন্স বলছেন, “আমরা আশা করি, অবিলম্বে লিয়ন হককে জনসম্মুখে হাজির করা হবে। অন্যাথায় তার অনাকাঙ্ক্ষিত কিছু হলে কোনোভাবেই এর দায় এড়াতে পারবে না সরকার ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।”

এর আগে গত ১২ নভেম্বর ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান এবং হবিগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মিজান ‘নিখোঁজ’ হন জানিয়ে বিবৃতিতে বলা হয়, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী প্রথমে তাদের আটক করার কথা অস্বীকার করলেও ‘৪/৫ দিন অজ্ঞাত স্থানে আটক রেখে’ তাদের থানায় হস্তান্তর করা হয়।

“গতকাল যুবদল খিলগাঁও থানা শাখার সভাপতি আবুল হাসনাত অনুকে সাদা পোশাকধারী আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা আটক করে নিয়ে যাবার পর থেকে তারও খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। ৮ ঘণ্টা পর অনুকে পল্টন থানায় হস্তান্তর করা হয়।”

ফরিদপুর জেলা যুবদল সভাপতি রাজিব হোসেন, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সরেন, পিন্টুসহ অন্তত ১২ জন নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে জানিয়ে অবিলম্বে তাদের মুক্তির দাবি জানিয়েছে প্রিন্স।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক