বিল থেকে বাজারে

  • মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলার দুই শতাধিক পরিবারের বর্ষা মৌসুমে আয়ের প্রধান উৎস এই শাপলা ফুল। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলার দুই শতাধিক পরিবারের বর্ষা মৌসুমে আয়ের প্রধান উৎস এই শাপলা ফুল। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • সিরাজদিখান উপজেলার বিস্তীর্ণ এলাকা বর্ষা মৌসুমে ইছামতির জলে একাকার হয়ে যায়। বিলজুড়ে এ সময়ে থাকে শুধু শাপলা আর শাপলা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    সিরাজদিখান উপজেলার বিস্তীর্ণ এলাকা বর্ষা মৌসুমে ইছামতির জলে একাকার হয়ে যায়। বিলজুড়ে এ সময়ে থাকে শুধু শাপলা আর শাপলা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • দেশের মধ্যাঞ্চলের অন্যতম বড় ও প্রাচীন আড়িয়াল বিলেও শাপলা ফোটে বিস্তর। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    দেশের মধ্যাঞ্চলের অন্যতম বড় ও প্রাচীন আড়িয়াল বিলেও শাপলা ফোটে বিস্তর। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • শাপলা ফুল তুলতে সূর্য ওঠার আগেই ছোট ছোট নৌকা নিয়ে বিলে ছোটেন কৃষকরা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    শাপলা ফুল তুলতে সূর্য ওঠার আগেই ছোট ছোট নৌকা নিয়ে বিলে ছোটেন কৃষকরা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • দিনভর শাপলা তুলে নৌকা বোঝাই করে ফেরেন তারা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    দিনভর শাপলা তুলে নৌকা বোঝাই করে ফেরেন তারা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • মহামারীর কারণে স্কুল বন্ধ থাকায় শাপলা তোলার কাজে পরিবারকে সাহায্য করছে শিশুরাও। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    মহামারীর কারণে স্কুল বন্ধ থাকায় শাপলা তোলার কাজে পরিবারকে সাহায্য করছে শিশুরাও। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • সবজি হিসেবে শাপলা ফুলের ডাঁটা অনেকের কাছেই প্রিয়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    সবজি হিসেবে শাপলা ফুলের ডাঁটা অনেকের কাছেই প্রিয়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • সিরাজদিখানের বিল থেকে কৃষকরা শাপলা নিয়ে আসেন রাসুনিয়া, দনিয়ারপাড়া, ইমামগঞ্জ ও নিমতলার ঘাটে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    সিরাজদিখানের বিল থেকে কৃষকরা শাপলা নিয়ে আসেন রাসুনিয়া, দনিয়ারপাড়া, ইমামগঞ্জ ও নিমতলার ঘাটে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • আর আড়িয়াল বিলের বেশিরভাগ কৃকষ শাপলা তুলে নিয়ে আসেন শ্রীনগরের গাদিঘাটে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    আর আড়িয়াল বিলের বেশিরভাগ কৃকষ শাপলা তুলে নিয়ে আসেন শ্রীনগরের গাদিঘাটে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • মুন্সীগঞ্জের এ ঘাটগুলোতে পাইকাররা আসেন ঢাকার বাজারে শাপলা কেনার জন্য। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    মুন্সীগঞ্জের এ ঘাটগুলোতে পাইকাররা আসেন ঢাকার বাজারে শাপলা কেনার জন্য। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • মুন্সীগঞ্জের এসব ঘাটে কৃষকদের কাছ থেকে পাইকাররা দশটি ডাঁটার প্রতিটি শাপলা আঁটি কিনে নেন ৫ থেকে ৭ টাকায়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    মুন্সীগঞ্জের এসব ঘাটে কৃষকদের কাছ থেকে পাইকাররা দশটি ডাঁটার প্রতিটি শাপলা আঁটি কিনে নেন ৫ থেকে ৭ টাকায়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • পাইকাররা এসব শাপলা নিয়ে যান ঢাকার যাত্রাবাড়ী, কারওয়ান বাজার, শাহ আলী মাজারসহ বিভিন্ন পাইকারী বাজারে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    পাইকাররা এসব শাপলা নিয়ে যান ঢাকার যাত্রাবাড়ী, কারওয়ান বাজার, শাহ আলী মাজারসহ বিভিন্ন পাইকারী বাজারে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • মুন্সীগঞ্জ থেকে আনার পর পাইকারী বাজারে এসব শাপলা বিক্রি হয় প্রতি আঁটি ১২ থেকে ১৫ টাকায়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    মুন্সীগঞ্জ থেকে আনার পর পাইকারী বাজারে এসব শাপলা বিক্রি হয় প্রতি আঁটি ১২ থেকে ১৫ টাকায়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • আর খুচরা বাজারে প্রতি আঁটি শাপলার দাম হয় ২৫ থেকে ৩০ টাকা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    আর খুচরা বাজারে প্রতি আঁটি শাপলার দাম হয় ২৫ থেকে ৩০ টাকা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • একজন কৃষক সারাদিন বিলে কাজ করলে ৮০ থেকে ১২০ আঁটি শাপলা সংগ্রহ করতে পারেন। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    একজন কৃষক সারাদিন বিলে কাজ করলে ৮০ থেকে ১২০ আঁটি শাপলা সংগ্রহ করতে পারেন। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • কৃষক রজব আলী জানান, বিল থেকে শাপলা তুলে প্রতিদিন তার ৪০০ থেকে ৭০০ টাকা উপার্জন হয়। শ্রম আর সময় ছাড়া বাড়তি কোনো পুঁজি লাগে না। শুধু একটি নৌকা থাকলে যে কেউ বিলের যে কোনো জায়গা থেকে ইচ্ছা মত শাপলা তুলতে পারেন। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    কৃষক রজব আলী জানান, বিল থেকে শাপলা তুলে প্রতিদিন তার ৪০০ থেকে ৭০০ টাকা উপার্জন হয়। শ্রম আর সময় ছাড়া বাড়তি কোনো পুঁজি লাগে না। শুধু একটি নৌকা থাকলে যে কেউ বিলের যে কোনো জায়গা থেকে ইচ্ছা মত শাপলা তুলতে পারেন। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • আর পাইকার শামসুদ্দিন জানান তিন টনের একটি ট্রাকে প্রতিদিন সন্ধ্যায় ঢাকার বাজারে তিনি গড়ে চার হাজার আটি ফুল নিয়ে যান। ট্রাক ভাড়া, শ্রমিক খরচ দিয়ে তার আয় যা থাকে তা নিয়েও সন্তুষ্ট তিনি। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    আর পাইকার শামসুদ্দিন জানান তিন টনের একটি ট্রাকে প্রতিদিন সন্ধ্যায় ঢাকার বাজারে তিনি গড়ে চার হাজার আটি ফুল নিয়ে যান। ট্রাক ভাড়া, শ্রমিক খরচ দিয়ে তার আয় যা থাকে তা নিয়েও সন্তুষ্ট তিনি। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • জুন থেকে অক্টোবর অবধি এসব বিল থেকে শাপলা তুলতে পারেন কৃষকরা। বিল শুকিয়ে গেলে আবার কৃষিকাজে লেগে যান তারা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    জুন থেকে অক্টোবর অবধি এসব বিল থেকে শাপলা তুলতে পারেন কৃষকরা। বিল শুকিয়ে গেলে আবার কৃষিকাজে লেগে যান তারা। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

সাম্প্রতিক ছবিঘর