১৭ এপ্রিল ২০২০

  • ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিদিন প্রত্যেকটি থানা থেকে খাবার দেওয়া হয় ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষদের। শুক্রবার যাত্রাবাড়ি থানা থেকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খাবার দেওয়ার পরও থানার বাইরে ছিল মানুষের ভিড়। ছোট, বড়, বৃদ্ধ সবাই লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন, কিন্তু ছিল না কারও ভেতর করোনাভাইরাসের সচেতনতা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিদিন প্রত্যেকটি থানা থেকে খাবার দেওয়া হয় ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষদের। শুক্রবার যাত্রাবাড়ি থানা থেকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খাবার দেওয়ার পরও থানার বাইরে ছিল মানুষের ভিড়। ছোট, বড়, বৃদ্ধ সবাই লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন, কিন্তু ছিল না কারও ভেতর করোনাভাইরাসের সচেতনতা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিদিন প্রত্যেকটি থানা থেকে খাবার দেওয়া হয় ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষদের। শুক্রবার যাত্রাবাড়ি থানা থেকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খাবার দেওয়ার পরও থানার বাইরে ছিল মানুষের ভিড়। ছোট, বড়, বৃদ্ধ সবাই লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন, কিন্তু ছিল না কারও ভেতর করোনাভাইরাসের সচেতনতা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিদিন প্রত্যেকটি থানা থেকে খাবার দেওয়া হয় ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষদের। শুক্রবার যাত্রাবাড়ি থানা থেকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খাবার দেওয়ার পরও থানার বাইরে ছিল মানুষের ভিড়। ছোট, বড়, বৃদ্ধ সবাই লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন, কিন্তু ছিল না কারও ভেতর করোনাভাইরাসের সচেতনতা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিদিন প্রত্যেকটি থানা থেকে খাবার দেওয়া হয় ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষদের। শুক্রবার যাত্রাবাড়ি থানা থেকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খাবার দেওয়ার পরও থানার বাইরে ছিল মানুষের ভিড়। ছোট, বড়, বৃদ্ধ সবাই লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন, কিন্তু ছিল না কারও ভেতর করোনাভাইরাসের সচেতনতা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিদিন প্রত্যেকটি থানা থেকে খাবার দেওয়া হয় ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের মানুষদের। শুক্রবার যাত্রাবাড়ি থানা থেকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খাবার দেওয়ার পরও থানার বাইরে ছিল মানুষের ভিড়। ছোট, বড়, বৃদ্ধ সবাই লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন, কিন্তু ছিল না কারও ভেতর করোনাভাইরাসের সচেতনতা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ভেতরে ঢোকা বারণ। তারপরও জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমের গেইটের বাইরে গাদাগাদি করে নামাজ পড়ছেন কয়েকজন।

    করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ভেতরে ঢোকা বারণ। তারপরও জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমের গেইটের বাইরে গাদাগাদি করে নামাজ পড়ছেন কয়েকজন।

  • করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে বাইরে থেকে মসজিদে ঢোকা বারণ; শুক্রবার জুমা পড়তে বায়তুল মোকাররম মসজিদে গিয়ে ফটক বন্ধ পেয়ে বাইরেই নামাজ পড়েন কয়েকজন। ছবি: নয়ন কর

    করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে বাইরে থেকে মসজিদে ঢোকা বারণ; শুক্রবার জুমা পড়তে বায়তুল মোকাররম মসজিদে গিয়ে ফটক বন্ধ পেয়ে বাইরেই নামাজ পড়েন কয়েকজন। ছবি: নয়ন কর

  • বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন কয়েকজন। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের মধ্যেও এই নামাজিদের নিজেদের মধ্যকার দূরত্বের বালাই ছিল না। ছবি: নয়ন কর

    বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন কয়েকজন। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের মধ্যেও এই নামাজিদের নিজেদের মধ্যকার দূরত্বের বালাই ছিল না। ছবি: নয়ন কর

  • বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন এই ব্যক্তি। ছবি: নয়ন

    বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন এই ব্যক্তি। ছবি: নয়ন

  • বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন কয়েকজন। ছবি: নয়ন কর

    বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন কয়েকজন। ছবি: নয়ন কর

  • বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন এই ব্যক্তি। ছবি: নয়ন

    বায়তুল মোকাররম মসজিদের ফটক বন্ধ থাকায় শুক্রবার জুমার সময় বাইরেই নামাজ পড়েন এই ব্যক্তি। ছবি: নয়ন

  • নভেল করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়ার জন্য মুখে পলিথিনের ব্যাগ পরে ঢাকার কারওয়ান বাজারে বাজার করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    নভেল করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়ার জন্য মুখে পলিথিনের ব্যাগ পরে ঢাকার কারওয়ান বাজারে বাজার করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • নভেল করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়ার জন্য মুখে পলিথিনের ব্যাগ পরে ঢাকার কারওয়ান বাজারে বাজার করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    নভেল করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়ার জন্য মুখে পলিথিনের ব্যাগ পরে ঢাকার কারওয়ান বাজারে বাজার করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • নভেল করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়ার জন্য মুখে পলিথিনের ব্যাগ পরে ঢাকার কারওয়ান বাজারে বাজার করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    নভেল করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়ার জন্য মুখে পলিথিনের ব্যাগ পরে ঢাকার কারওয়ান বাজারে বাজার করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

সাম্প্রতিক ছবিঘর