শ্যামপুর এখন গোলাপ গ্রাম

  • ছুটির দিনগুলোতে গোলাপের গ্রামে এখন পর্যটকদের ঢল নামে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    ছুটির দিনগুলোতে গোলাপের গ্রামে এখন পর্যটকদের ঢল নামে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • গ্রামের প্রবেশপথে গাড়ি রেখে পায়ে হেঁটেই প্রবেশ করতে হয় ভেতরে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    গ্রামের প্রবেশপথে গাড়ি রেখে পায়ে হেঁটেই প্রবেশ করতে হয় ভেতরে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • গোলাপ গ্রামের ভেতরে আকা-বাঁকা মেঠোপথের দুই পাশে শুধুই গোলাপ বাগান। এসব বাগানে সারা বছরই ফুল ফোটে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    গোলাপ গ্রামের ভেতরে আকা-বাঁকা মেঠোপথের দুই পাশে শুধুই গোলাপ বাগান। এসব বাগানে সারা বছরই ফুল ফোটে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • সৌন্দর্য উপভোগ করতে পর্যটকদের অনেকেই দলবেঁধে ঘুরে বেড়ান গোলাপ বাগানের ধার ঘেঁষে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    সৌন্দর্য উপভোগ করতে পর্যটকদের অনেকেই দলবেঁধে ঘুরে বেড়ান গোলাপ বাগানের ধার ঘেঁষে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • গোলাপ রাজ্যে নিজেদের মুখচ্ছবি ক্যামেরাবন্দি করতে ভুল করেন না কেউ। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    গোলাপ রাজ্যে নিজেদের মুখচ্ছবি ক্যামেরাবন্দি করতে ভুল করেন না কেউ। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • ছবি তুলতে গিয়ে অনেকেই বেখেয়ালে গোলাপ গাছের ক্ষতি করে ফেলেন, এ নিয়ে চাষিদের বিস্তর অভিযোগ। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    ছবি তুলতে গিয়ে অনেকেই বেখেয়ালে গোলাপ গাছের ক্ষতি করে ফেলেন, এ নিয়ে চাষিদের বিস্তর অভিযোগ। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • গোলাপ গ্রামে বেড়াতে এসে বাগান থেকে ফুল কেনাও যায়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    গোলাপ গ্রামে বেড়াতে এসে বাগান থেকে ফুল কেনাও যায়। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • বাজারের থেকে বেশি দামে ফুল বিক্রি করা যায় বলে পর্যটকদের কাছে ফুল বিক্রি করতে চাষীদেরও আগ্রহ থাকে বেশি। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    বাজারের থেকে বেশি দামে ফুল বিক্রি করা যায় বলে পর্যটকদের কাছে ফুল বিক্রি করতে চাষীদেরও আগ্রহ থাকে বেশি। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • প্রতিদিন বিকেলে ক্ষেত থেকে ফুল তোলেন চাষীরা। সন্ধ্যায় পাইকারি বিকিকিনি হয় বিরুলিয়া বাজারে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    প্রতিদিন বিকেলে ক্ষেত থেকে ফুল তোলেন চাষীরা। সন্ধ্যায় পাইকারি বিকিকিনি হয় বিরুলিয়া বাজারে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • ১৯৯০ সালে ঢাকার কয়েকজন যুবক বিরুলিয়ায় জমি ইজারা নিয়ে প্রথম এ এলাকায় বাণিজ্যিকভাবে গোলাপের চাষ শুরু করেন। তাদের সফলতা দেখে স্থানীয়রাও ধীরে ধীরে গোলাপ চাষে ঝোকেন। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    ১৯৯০ সালে ঢাকার কয়েকজন যুবক বিরুলিয়ায় জমি ইজারা নিয়ে প্রথম এ এলাকায় বাণিজ্যিকভাবে গোলাপের চাষ শুরু করেন। তাদের সফলতা দেখে স্থানীয়রাও ধীরে ধীরে গোলাপ চাষে ঝোকেন। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • কয়েক বছরের মধ্যে শ্যামপুর ছাড়াও পাশের গ্রাম সামাইর, মোস্তাপাড়া এবং বিরুলিয়ার বিভিন্ন এলাকায় বাড়তে থাকে গোলাপ বাগানের বিস্তার। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    কয়েক বছরের মধ্যে শ্যামপুর ছাড়াও পাশের গ্রাম সামাইর, মোস্তাপাড়া এবং বিরুলিয়ার বিভিন্ন এলাকায় বাড়তে থাকে গোলাপ বাগানের বিস্তার। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • হাজারি, মিরান্ডা, লিংকন, বধূয়া, হলুদ, সাদা- নানা নামের আর জাতের গোলাপের চাষ হয় শ্যামপুরে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    হাজারি, মিরান্ডা, লিংকন, বধূয়া, হলুদ, সাদা- নানা নামের আর জাতের গোলাপের চাষ হয় শ্যামপুরে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

  • তবে চাহিদা বেশি বলে লাল মিরান্ডা ল্যাম্পার্ট গোলাপের চাষই সবচেয়ে বেশি হয় শ্যামপুরের গোলাপ গ্রামে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

    তবে চাহিদা বেশি বলে লাল মিরান্ডা ল্যাম্পার্ট গোলাপের চাষই সবচেয়ে বেশি হয় শ্যামপুরের গোলাপ গ্রামে। ছবি: মোস্তাফিজুর রহমান

সাম্প্রতিক ছবিঘর