গ্রীষ্মে চোখের সুরক্ষা

চোখের শুষ্কতা, ক্লান্ত চোখ, ব্যথা, অ্যালার্জি ইত্যাদি সমস্যা গরমকালে দেখা দেয়।

লাইফস্টাইল ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 May 2022, 09:18 AM
Updated : 10 May 2022, 09:18 AM

এছাড়া দুপুরের তপ্ত রোদে চোখের ক্ষতি হয় বেশি।

ভারতের ‘মিত্তাল আই কেয়ার সেন্টার’য়ের চক্ষু বিশেষজ্ঞ জিমি মিত্তাল টাইমঅফইন্ডিয়া ডটকম’য়ে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলেন, “অনেকেই মনে করেন রোদ কেবল ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। তবে চোখেরও যে মারাত্মক ক্ষতি করে সেদিকে খেয়াল থাকে না।”

তাই গরমের সময় রোদ থেকে চোখ রক্ষা করতে বেশ কিছু পদ্ধতি অনুসরণ করার পরামর্শ দেন তিনি।

বাইরে গেলে সানগ্লাস ব্যবহার

ত্বকের জন্য যেমন সানব্লক আবশ্যক তেমনি চোখের জন্য সানগ্লাস। রোদে বাইরে গেলে অবশ্যই সানগ্লাস ব্যবহার করতে হবে। অতিরিক্ত রোদের কারণে চোখের কর্নিয়া জ্বলে গিয়ে শুষ্কতার সমস্যা দেখা দেয়। এছাড়াও চোখে জ্বলুনি ও পানি পড়ার সমস্যাও দেখা দিতে পারে।

নিজেকে আর্দ্র রাখা

দেহের আর্দ্রতা রক্ষা চোখের স্বাস্থ্য ভালো রাখতেও সহায়তা করে। তাই চোখের পানির পরিমাণ বাড়াতে পর্যাপ্ত পানি পান করা উচিত। পানি শূন্যতা কমাতে অ্যালকোহল ও ক্যাফেইন থেকে দূরে থাকতে হবে।

চোখের আর্দ্রতা রক্ষা

অনেক সময় চোখে শুষ্কতার সমস্যা দেখা দেয়। গরমকালে চোখে শুষ্কতা, জ্বলুনি, ব্যথা ও ফোলাভাব সৃষ্টি করে। তাই চোখের আর্দ্রতা রক্ষায় বিশেষজ্ঞরা ‘লুব্রিকেন্ট’ বাড়াতে চোখের ড্রপ ব্যবহারের পরামর্শ দেন।

মুখে সানস্ক্রিন ব্যবহারের সময় সতর্ক থাকা

রোদ থেকে বাঁচতে সানব্লক ব্যবহারের বিকল্প নেই। সারা মুখে সানব্লক ব্যবহারে সতর্ক থাকা উচিত যেন চোখের চারপাশ বা চোখের ভেতরে তা প্রবেশ না করে। চোখের চারপাশের অংশ নরম হওয়ার এস্থানে সানব্লকে থাকা রাসায়নিক উপাদান অস্বস্তি সৃষ্টি করতে পারে। আর চোখের ভেতরে তা প্রবেশ করলে কয়েকদিন ধরে জ্বলুনি হতে পারে।

দুপুরের রোদ থেকে দূরে থাকা

মাঝ দুপুরে যতটা সম্ভব সূর্যের আলোতে বাইরে না যাওয়া ভালো। এই সময়ে সূর্যের আলো ও অতি বেগুনি রশ্মি সবচেয়ে তীব্র থাকে। তাই চোখের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে যথার্থ সুরক্ষার ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।

বাইরে থাকা অবস্থায় চোখের সুরক্ষা

সূর্যালোক থেকে চোখকে সুরক্ষিত রাখার পাশাপাশি বাইরের অন্যান্য কাজ যেমন- সাঁতার কাটা, বাগানে কাজ ইত্যাদি করার সময় চোখের সুরক্ষায় বড় টুপি, হেলমেট, গগলস ইত্যাদি ব্যবহার করা যেতে পারে। এতে চোখের আশংকাজনক ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা করে।

উপরের পদ্ধতিগুলো ছাড়াও সবসময় চোখের যত্ন নেয়া উচিত। তাই নিয়মিত চক্ষু বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নেয়া উচিত।

আরও পড়ুন

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক