ওজন কমাতে স্বাস্থ্যকর বিকল্প খাবার

পরিমাণ না কমিয়ে বরং বিকল্প খাবার খেয়ে ওজন কমানো যেতে পারে।

লাইফস্টাইল ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 5 April 2021, 06:13 PM
Updated : 5 April 2021, 06:13 PM

ওজন কমাতে গিয়ে অনেকেই নিজের ইচ্ছা মতো খাবারের পরিমাণ নির্ধারণ করেন। যা অনেক সময় শরীরে জন্য মারাত্মক ঝুঁকির কারণ হয়ে দাঁড়ায়।

ওজন কমাতে চাইলে সরাসরি খাবারের পরিমাণে খুব বেশি পরিবর্তন না এনে বরং স্বাস্থ্যকর খাবার খেয়ে ওজন কমানোর চেষ্টা করা ভালো।

পুষ্টিবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে এরকমই কিছু স্বাস্থ্যকর বিকল্প খাবারের নাম এখানে দেওয়া হল।

গ্রানোলার বদলে ওটমিল খাওয়া: গ্রানোলার তৈরি নাস্তা সকালে বেশ মজাদার এবং ক্যালরি সমৃদ্ধ। অন্যদিকে ওটমিল বা ওটস আঁশ সমৃদ্ধ এবং এটা ওজন কমাতে খুব ভালো কাজ করে।

সোডা পানীয় বদলে পানি পান: সোডা প্রচুর ক্যালরি সমৃদ্ধ এবং এতে কোনো প্রয়োজনীয় পুষ্টি উপাদান নেই। অন্যদিকে, পানি শরীরকে আর্দ্র রাখে এবং দীর্ঘক্ষণ শরীরে অপ্রয়োজনীয় ক্যালরি গ্রহণে বাধা প্রদান করে।

সাদা রুটির বদলে শস্য ধরনের খাবার: শস্য-জাতীয় খাবার আঁশ সমৃদ্ধ। এটা হজমক্রিয়া উন্নত করে এবং পেট ভরা অনুভূত হওয়ায় বাড়তি ক্যালরি সমৃদ্ধ খাবার গ্রহণের ঝুঁকি কমায়।

সাদা পাস্তার বদলে ‘স্প্যাগেটি’ খাওয়া: এটা ভিটামিন সি, আঁশ ও ফোলায়েট সমৃদ্ধ। স্প্যাগেটি খাওয়া পাস্তার তুলনায় কম ক্যালরি গ্রহণে সহায়তা করে।

আলুর চিপ্সের বদলে কপির চিপ্স: নাস্তার সময় মজাদার মচমচে খাবার হিসেবে আলুর চিপ্স সবারই পছন্দ। তবে এই খাবার ওজন বাড়ায়। তাই আলুর চিপ্সের বদলে ফুলকপি চিপ্স খাওয়া উপকারী। এতে ক্যালরি কম থাকে ও পুষ্টি পাওয়া যায়।

স্টেকের বদলে স্যামন মাছ খাওয়া: গ্রিল স্যামন উচ্চ প্রোটিন সমৃদ্ধ এবং এটা লাল মাংসের তুলনায় কম স্যাচুরেইটেরড চর্বি সমৃদ্ধ। তাই ওজন কমাতে গ্রিল স্যামন আদর্শ পছন্দ।

কিশমিশের বদলে আঙুর খাওয়া: এক মুঠ কিশমিশ খাওয়ার বদলে এক বাটি আঙুর খান। এটা কেবল সতেজই না বরং ওজন কমাতেও সহায়তা করে।

ছবির মডেল: চৈতি রুমানা এবং তুষার।

আরও পড়ুন

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক