লাল রংয়ে ঠোঁট রাঙাতে

গায়ের রং চাঁপা কিংবা ফর্সা- যাই হোক না কেনো উজ্জ্বল লাল রংয়ের লিপস্টিক ঠোঁটে বুলাতে দ্বিধা করবেন না। কারণ যে কোনো রংয়ের ত্বকে লাল লিপস্টিক মানানসই। শুধু জানতে হবে কোন ত্বকে লালের কোন ধরনটি বেছে নেবেন।

লাইফস্টাইল ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 24 Dec 2017, 08:27 AM
Updated : 24 Dec 2017, 08:27 AM

‘আমার সঙ্গে লাল রংটা ঠিক যায় না’- এই ধরনের বিশ্বাস নিয়ে যারা অপেক্ষাকৃত কম উজ্জ্বল লিপস্টিক ব্যবহার করছেন তাদের জন্য সাজসজ্জাবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনে জানানো হয়, যে কোনো ত্বকের জন্য লাল রং মানানসই। শুধু ত্বকের রং বুঝে লালের বিভিন্ন শেইড নির্বাচন করতে হবে।

গায়ের রং মাঝারি শ্যাম বর্ণ যাদের তারা ক্রিম বেইজ চেরি রংয়ের লাল লিপস্টিক বেছে নিন। এই ধরনের ত্বকে প্রাকৃতিক উষ্ণভাব আনতে এই শেইডের লাল লিপস্টিক বেশ ভালো কাজ করে।

গায়ের রং উজ্জ্বল জলপাই বর্ণের মানে ভারতীয় শিল্পী প্রিয়াঙ্কা’র মতো হলে বেছে নিতে পারেন গোলাপি যে কোনো লিপস্টিক। হতে পারে সেটা গ্লসি বা ম্যাট। ‘ন্যুড লিপ লাইনার’ দিয়ে ঠোঁটের আকার ঠিক করে নিন। এরপর উজ্জ্বল গোলাপি রং দিয়ে ঠোঁট ভরাট করুন। এর ফলে ঠোঁটে লালচে আভা আসবে।

গায়ের রং যদি ভারতীয় মডেল সাগরিকার মতো পিচ ও ক্রিমধর্মী হয় তারা ওয়াইন বা বেরির লাল লিপস্টিক ব্যবহার করুন। এতে দেখতে অনেক বেশি আকর্ষণীয় ও উজ্জ্বল লাগবে। 

গায়ের রং কি দিয়া মির্জার মতো? মানে গোলাপি উজ্জ্বল ফর্সা! তাহলে নীলচেআভাযুক্ত চাঁপা গোলাপি রংয়ের লিপস্টিক বেছে নিন। আর উজ্জ্বল কমলাধর্মী লাল রং এড়িয়ে চলুন, এটা আপনার ত্বকের উজ্জ্বলতাকে মলিন করে করে দেবে।

বিপাশা বসু’র মতো ক্যারামেলধর্মী গায়ের রং হলে গোলাপ ফুল বা রুবি পাথরের রংয়ের লিপস্টিক অনায়াসে ব্যবহার করতে পারেন। আর এই ধরনের ত্বকে লাল-লিপস্টিক চমৎকারভাবে ফুটে ওঠে।

সবাই গ্লসি লাল লিপস্টিক ধারণ করতে পারে না। তবে আপনার গায়ের রং যদি ঐশ্বরিয়া রায় বচ্চনের মতো বা হাতির দাঁতের রং বা আইভরি রংয়ের মতো হয় তবে নির্দ্বিধায় ব্যবহার করতে পারেন লাল। এই রং আপনাকে স্বাভাবিকভাবেই দীপ্তি করে তুলবে। চাইলে ‘চেরি রেড’ ম্যাট লিপস্টিক ব্যবহার করে ঠোঁটের আকর্ষণ বাড়াতে পারেন। অথবা চোখে ভারী মেইকআপ, গালে কন্টুয়ার করে চকচকে অথবা ক্রিমধর্মী লাল লিপস্টিক ব্যবহার করতে পারেন রাতের অনুষ্ঠানে।

ছবির প্রতীকী মডেল: হৃদিমা মল্লিক। মেইকআপ: আহান রহমান। ছবি: কেএ রহমান।

আরও পড়ুন

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক