‘থার্ড আই এশিয়ান ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল’ এ পুরস্কৃত বাংলাদেশের ছবি

“স্টেইটমেন্ট আফটার মাই পোয়েট হাজবেন্ড’স ডেথ” স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটি মুক্তির এক মাসের মধ্যেই ভারতের মুম্বাইয়ে থার্ড আই এশিয়ান ফিল্ম ফেস্টিভালে জুরি স্পেশাল মেনশন পুরস্কার অর্জন করেছে।

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Dec 2016, 12:59 PM
Updated : 23 Dec 2016, 12:59 PM

ভারতের মুম্বাইয়ের অনুষ্ঠিত ১৫তম থার্ড আই এশিয়ান ফিল্ম ফেস্টিভালে জুরি স্পেশাল মেনশন পুরস্কার অর্জন করেছে তাসমিয়াহ্ আফরিন মৌ পরিচালিত শর্টফিল্ম কবি স্বামীর মৃত্যুর পর আমার জবানবন্দি বা ‘স্টেইটমেন্ট আফটার মাই পোয়েট হাজবেন্ড’স ডেথ। মুক্তির পর এ নিয়ে টানা চতুর্থবারের মতো আন্তর্জাতিক উৎসবে প্রদর্শিত ও প্রশংসিত হল চলচ্চিত্রটি।

গতকাল ২২ ডিসেম্বর মুম্বাইয়ের দাদর-এ রবীন্দ্র নাট্য মন্দিরে পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে এই ঘোষণা করা হয়। এর আগে চলতি মাসেই বাংলাদেশের ১৪তম আন্তর্জাতিক স্বল্পদৈর্ঘ্য ও মুক্ত চলচ্চিত্র উৎসবে তারেক শাহারিয়ার বেস্ট শর্টফিল্ম পুরস্কার পায় চলচ্চিত্রটি। এই নিয়ে মুক্তির এক মাসের

মধ্যেই এই স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটির ঝুড়িতে দু’টি পুরস্কার এলো।

স্বীকৃতিপ্রাপ্তির প্রতিক্রিয়ায় চলচ্চিত্রটির নির্মাতা মৌ গ্লিটজকে বলেন, মুক্তি প্রথম মাসেই নামকরা চারটা ইন্টারন্যাশনাল ফেস্টে অংশ গ্রহণ এবং

তার দু'টো থেকেই পুরস্কারপ্রাপ্তি আনন্দের। আর দেশে বিদেশে দু'জায়গাতেই এই ফিল্মের সমাদর থেকে মনে হচ্ছে আমরা কানেক্ট করতে পেরেছি দর্শক এবং ফিল্ম ক্রিটিকদের সাথেও।

খনা টকিজ নিবেদিত চলচ্চিত্রটি এর আগে গত ৩০ নভেম্বর ফ্রান্সের ৩৪তম ত্যুস কুউস ইন্টারন্যাশনাল শর্ট ফিল্ম ফেস্টিভালে ইন্টারন্যাশনাল কম্পিটিশন বিভাগে ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হয়। এছাড়াও পোল্যান্ডের জুবরঅফকা ইন্টারন্যাশনাল শর্ট ফিল্ম ফেস্টিভালে চলতি মাসেই অংশ নেয় স্বল্পদৈর্ঘ্যটি।

চলচ্চিত্রটির প্রযোজক রুবাইয়াত হোসেন। এর সিনেমাটোগ্রাফি করেছেন ইমরানুল ইসলাম, সম্পাদনা, শব্দ পরিকল্পনা এবং গ্রেডিং করেছেন সুজন মাহমুদ, সংগীত পরিচালনা করেছেন এস কে শান। অভিনয় করেছেন দিলরুবা হোসেন দোয়েল, আলী আহসান প্রমুখ। নেপথ্য কণ্ঠঅভিনয় করেছেন জ্যোতিকা জ্যোতি।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক