বৃহন্নলা বাদ, সেরা চলচ্চিত্র নেকাব্বরের মহাপ্রয়াণ

গল্প ‘চুরির’ অভিযোগে ‘বৃহন্নলা’র তিনটি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বাতিলের পর ওই তিন ক্যাটাগরিতে নতুন করে বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করেছে সরকার।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 April 2016, 11:23 AM
Updated : 18 April 2016, 11:27 AM

২০১৪ সালের সেরা চলচ্চিত্রের জাতীয় পুরস্কার পাচ্ছে মাসুদ পথিক প্রযোজিত ‘নেকাব্বরের মহাপ্রয়াণ’।

এছাড়া মেঘমল্লার চলচ্চিত্রের জন্য আখতারুজ্জামান ইলিয়াস ‘সেরা কাহিনিকার’ এবং একই সিনেমার জন্য জাহিদুর রহিম অঞ্জন ‘সেরা সংলাপ রচয়িতা’র জাতীয় পুরস্কার পাচ্ছেন।  

তথ্য মন্ত্রণালয় গত ২৫ ফেব্রুয়ারি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘোষণা করে, যাতে ওই তিন ক্যাটাগরিতে সেরার পুরস্কার জিতে নেয় সরকারি অনুদানে নির্মিত চলচ্চিত্র ‘বৃহন্নলা’।

ওই তিন পুরস্কার বাতিলের কথা জানিয়ে সোমবার সরকারি তথ্যবিবরণীতে নতুন বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হয়।

গত বছর ভারতের জয়পুর চলচ্চিত্র উৎসবে বৃহন্নলা সিনেমাটি পুরস্কৃত হওয়ার পর নির্মাতার বিরুদ্ধে ভারতীয় সাহিত্যিক সৈয়দ মুস্তাফা সিরাজের ছোট গল্প ‘গাছটি বলেছিল’ থেকে নকলের অভিযোগ ওঠে।

সৈয়দ মুস্তাফা সিরাজের ছোট ছেলে সাংবাদিক অমিতাভ সিরাজের ওই অভিযোগের ভিত্তিতে ২০১৫ সালের সেপ্টেম্বরে টাইমস অব ইন্ডিয়া একটি প্রতিবেদনও প্রকাশ করে।

বৃহন্নলা জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়ার পর কাহিনী নকলের বিষয়টি ফের সামনে চলে আসে।

‘বৃহন্নলা’ চলচ্চিত্রের কাহিনীর স্বত্ব হিসাবে প্রয়াত সৈয়দ মুস্তাফা সিরাজের নাম ব্যবহার এবং তার পরিবারকে দেড় লাখ রুপি দেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনুকে চিঠি দেন পশ্চিমবঙ্গের কথাসাহিত্যিক শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায় ও দেবেশ রায়।

এছাড়া সৈয়দ মুস্তাফা সিরাজ আকাদেমি’র সচিব সৈয়দ হাসমত জালালও একই বিষয়ে তথ্যমন্ত্রীকে আলাদা চিঠি দেন।

এই পরিস্থিতিতে বিষয়টি খতিয়ে দেখতে বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক এ কে এম নেছার উদ্দিন ভূইয়াকে প্রধান করে একটি তদন্ত কমিটি করে তথ্য মন্ত্রণালয়।

এরপর শনিবার রাতে তথ্য সচিব মরতুজা আহমদ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, তদন্ত কমিটির সুপারিশের আলোকে বৃহন্নলার সবগুলো জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বাতিল করা হয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক