যুক্তরাষ্ট্রে নির্বাচন: এক শতকের মধ্যে রেকর্ড আগাম ভোট

দরজায় কড়া নাড়ছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট। এরই মধ্যে দেশটির আট কোটির বেশি ভোটার আগাম ভোট দিয়ে দিয়েছেন।

>>রয়টার্স
Published : 30 Oct 2020, 05:03 AM
Updated : 30 Oct 2020, 05:21 AM

গত এক শতাব্দীর বেশি সময়ের মধ্যে যা সর্বোচ্চ আগাম ভোটের রেকর্ড বলে জানায় ইউনিভার্সিটি অব ফ্লোরিডা। বিশ্ববিদ্যালয়টির ‘ইউএস ইলেকশন প্রজেক্ট’ থেকে বৃহস্পতিবার আগাম ভোটের এই টালি প্রকাশ করা হয়।

কোভিড-১৯ মহামারীতে পর্যদুস্ত পুরো বিশ্ব। এই মহামারী পৃথিবীর প্রচলিত নিয়মকেই যেন পাল্টে দিচ্ছে। জনসমাগম এবং ভিড় এড়িয়ে চলে মারাত্মক সংক্রামক এই রোগের হাত থেকে মানুষ নিজেকে রক্ষা করতে চাইছে।

তাই ভোটের দিন ভোটকেন্দ্রে গিয়ে ভিড় করে ভোট দেওয়ার চাইতে আগাম ভোট দেওয়া কে নিরাপদ মনে করছেন আমেরিকার ভোটাররা।

যে কারণে ২০১৬ সালের নির্বাচনে যে পরিমাণ আগাম ভো‍ট পড়েছিল, এবার তার থেকে ৫৮ শতাংশের বেশি ভোট পড়েছে। মানুষ ডাকযোগে এবং আগাম ভোটকেন্দ্রগুলোতে গিয়ে ভোট দিয়েছেন। 

এ থেকে বেশ সুস্পষ্ট ভাবেই বোঝা যাচ্ছে ভিড় এড়াতে চাইলেও আমেরিকান ভোটারদের ভোটের প্রতি আগ্রহ বিন্দুমাত্র কমেনি।

গত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রায় ১৩ কোটি ৮০ লাখ ভোট পড়েছিল। এবার যে পরিমাণ আগাম ভোট পড়েছে তাতে সহজেই ওই সংখ্যা পেরিয়ে যাবে বলে অনুমান বিশেষজ্ঞদের। সেবার চার কোটি ৭০ লাখ মানুষ আগাম ভোট দিয়েছিলেন।

আগামী ৩ নভেম্বর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট। এবার রিপাবলিকান প্রার্থী প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে লড়াই করছেন সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী জো বাইডেন। ট্রাম্প নিজেও আগাম ভোট দিয়েছেন।

কোভিড-১৯ মহামারীর কারণে এবার বেশ চাপে আছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। ভোট নিয়ে বেশিরভাগ জনমত জরিপে তিনি বাইডেনের থেকে পিছিয়ে ছিলেন। করোনাভাইরাসকে শুরুতে তুচ্ছতাচ্ছিল্য করা ট্রাম্প প্রশাসন মহামারী নিয়ন্ত্রণে সম্পূর্ণ ব্যর্থ বলে মনে করেন বেশিরভাগ আমেরিকান।

এই মহামারীতে আক্রান্ত এবং মৃত্যু উভয় তালিকায় যুক্তরাষ্ট্রের নাম সবার উপরে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত দুই লাখ ২৭ হাজারের বেশি মানুষ এ রোগে আক্রান্ত হয়ে ‍মারা গেছেন।

মাঝে নতুন রোগী শনাক্তের সংখ্যা কিছুটা কমে এলেও গত সপ্তাহ থেকে যুক্তরাষ্ট্রে আবারও সংক্রমণ বাড়তে শুরু করেছে। গত সপ্তাহে দেশটিতে গড়ে প্রতিদিন ৭৩ হাজারের বেশি নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে। আবারও শনাক্ত বাড়ছে মানে ট্রাম্পের উপর চাপ বাড়ছে, আগাম ভোটের আগ্রহও বাড়ছে।

আগাম ভোটের ক্ষেত্রে ডেমোক্র্যাটিকরা কিছু সুবিধাজনক অবস্থানে আছেন। কারণ, ডেমোক্র্যাটিক পার্টি থেকে মহামারীর মধ্যে স্বাস্থ্য সুরক্ষায় ডাকযোগে ভোটের পক্ষে কথা বলা হয়েছে। ডেমোক্র্যাট সমর্থকরা অবশ্য বরাবরই ‍ডাকযোগে ভোট বেশি দেয়।

তবে এবার রিপাবলিকান সমর্থকরাও রেকর্ড সংখ্যায় ডাকযোগে ভোট দিয়েছেন। অথচ ডাকযোগে ভোটের উপর একদমই আস্থা নেই ট্রাম্পের। তিনি বারবার ডাকযোগে ভোটে বড় ধরণের প্রতারণা হতে পারে বলে অভিযোগ তুলেছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি অঙ্গরাজ্যের মধ্যে ২০টি অঙ্গরাজ্যের দলীয় নিবন্ধনের তথ্য পাওয়া গেছে। তাতে দেখা যাচ্ছে, ডেমোক্র্যাটিক দলের নিবন্ধিত এক কোটি ৮২ লাখ সমর্থক আগাম ভোট দিয়েছেন। রিপাবলিকানদের এ সংখ্যা এক কোটি ১৫ লাখ। এছাড়া ৮৮ লাখ নিরপেক্ষ ভোটার আগাম ভোট দিয়েছেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক