ব্যাংকে ৫ কোটি টাকা থাকলে কাটা হবে ৫০ হাজার টাকা

পাঁচ কোটি এবং তার বেশি টাকার ব্যাংক হিসাবে আবগারি শুল্ক বাড়তে যাচ্ছে।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 9 June 2022, 10:07 AM
Updated : 9 June 2022, 10:08 AM

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ২০২২-২৩ অর্থবছরের জন্য বৃহস্পতিবার যে বাজেট সংসদে উপস্থাপন করেছেন, তাতে এই শুল্ক ১০ হাজার টাকা বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে।

বর্তমানে ৫ কোটি টাকার ব্যাংক আমানতে আবগারি শুল্ক হচ্ছে ৪০ হাজার টাকা। বছরের যে কোনো সময় কোনো ব্যাংক হিসাবে অর্থের পরিমাণ ৫ কোটি টাকা স্পর্শ করলেই এই আবগারি শুল্ক কেটে নেওয়া হয়।

নতুন বাজেট প্রস্তাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, “বর্তমানে ব্যাংক হিসাব ও বিমান টিকিটের ওপর আবগারি শুল্ক আদায় করা হয়ে থাকে। বর্তমানে ৫ কোটি টাকার ঊর্ধ্বে ব্যাংক স্থিতির ওপর ৪০ হাজার টাকা আবগারি শুল্ক প্রযোজ্য রয়েছে। শুধু ৫ কোটি টাকার ঊর্ধ্বে ব্যাংক স্থিতির উপর (বছরের যে কোনো সময়) আবগারি শুল্ক ৪০ হাজার টাকার পরিবর্তে ৫০ হাজার টাকা নির্ধারণ করার প্রস্তাব করছি।”

মহামারী ও ইউক্রেইন যুদ্ধ পরিস্থিতিতে সঙ্কটকালে যে পৌনে ৭ লক্ষ কোটি টাকার বাজেট অর্থমন্ত্রী প্রস্তাব রকরেছেন, তাতে আড়াই লক্ষ কোটি টাকা ঘাটতি থাকছে। রাজস্ব থেকে ৪ লক্ষ ৩৩ হাজার কোটি টাকা আয়ের লক্ষ্য ঠিক করা হয়েছে।

৫ কোটি টাকার ব্যাংক হিসাবে আবগারি শুল্ক বাড়ানোর প্রস্তাব করলেও এর নিচের অঙ্কের ব্যাংক আমানতে আবগারি শুল্কে কোনো পরিবর্তন আসছে না।

বর্তমানে কোনো ব্যাংক হিসাবে বছরের কোনো এক সময়ে আমানতের পরিমাণ এক লাখ টাকা পৌঁছালেই আবগারি শুল্ক দিতে হয় ১৫০ টাকা।

৫ লাখ টাকা পর্যন্ত আমানত স্থিতিতে ১৫০ টাকাই আবগারি শুল্ক দিতে হয় বছরে একবার।

৫ লাখ টাকার উপরে ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত দিতে হয় ৫০০ টাকা। ১০ লাখ টাকার উপরে ১ কোটি টাকা পর্যন্ত স্থিতিতে ৩ হাজার টাকা, ১ কোটির উপরে ৫ কোটি টাকার কম আমানতে ১৫ হাজার টাকা আবাগারি শুল্ক দিতে হয়।

বছরে কোনো এক সময়ে একবার যে কোনো আমানতে স্থিতিসীমায় পৌঁছালেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে ব্যাংকগুলো আবগারি শুল্ক কেটে নেয় গ্রাহকের ব্যাংক হিসাব থেকে, যা পরে সরকারের কোষাগারে জমা হয়।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক