চবি শিক্ষকের প্রতিবাদের প্ল্যাকার্ড: ‘আমিও স্বপন কুমার বিশ্বাস’

মিথ্যা অভিযোগ রটিয়ে নড়াইলে কলেজ অধ্যক্ষের গলায় জুতার মালা পরিয়ে হেনস্তার ঘটনায় ‘আমিও স্বপন কুমার বিশ্বাস’ লেখা প্ল্যাকার্ড হাতে প্রতিবাদ জানিয়েছেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক জি এইচ হাবীব। 

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 27 June 2022, 11:44 AM
Updated : 27 June 2022, 12:48 PM

ইংরেজি বিভাগের এই সহকারী অধ্যাপক সোমবার সকালে প্ল্যাকার্ড হাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনারের সামনে অবস্থান নেন। এ সময় বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হকও যোগ দেন তার সঙ্গে।

জি এইচ হাবীব বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, সম্প্রতি নড়াইলে স্বপন কুমার বিশ্বাসকে যেভাবে হেনস্তা করা হয়েছে, তার প্রতিবাদ জানিয়েছেন তারা।

“শিক্ষক হিসেবে আমার মনে হয়েছে, এর প্রতিবাদ করা উচিত। একজন মানুষকে ধর্ম অবমাননার অভিযোগ করে সবাই মিলে এভাবে হেনস্তা করবে, তা হতে পারে না।

“…এসব ঘটনার যদি প্রতিবাদ করা না হয়, তাহলে এমন ঘটনা ক্রমান্বয়ে বৃদ্ধি পেতে থাকবে। তাই নিজে নিজে প্রতিবাদ জানিয়েছি। পরে আমার সাথে মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হকও যোগ দেন। ”

মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হক বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “একটি অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গঠন করতে আমরা স্বাধীনতা যুদ্ধ করেছি।  কিন্তু সম্প্রতি একটি চক্র বিশ্বের বুকে বাংলাদেশকে সাম্প্রদায়িক রাষ্ট্র হিসেবে দেখাতে চাচ্ছে।

“ধর্মের নামে নানা অপকর্মের প্রতিবাদ জানাতে আমি অধ্যাপক জি এস হাবিবের সাথে শামিল হয়েছিল।”

বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সমালোচনায় থাকা ভারতের বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মার ছবি দিয়ে ফেইসবুকে নড়াইলের এক কলেজ ছাত্রের পোস্টকে কেন্দ্র করে ঘটনার সূত্রপাত।

স্থানীয়দের ভাষ্য অনুযায়ী, গত ১৭ জুন নড়াইলের সদর উপজেলার মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ওই ছাত্রের পোস্ট দেওয়ার পরদিন কলেজে গেলে কিছু মুসলমান ছাত্র তাকে ওই পোস্ট মুছে ফেলতে বলেন।

ওই সময় ‘অধ্যক্ষ ওই ছাত্রের পক্ষ নিয়েছেন’ এমন কথা রটানো হলে উত্তেজনা তৈরি হয়। অধ্যক্ষ ও দুজন শিক্ষকের মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়া হয়। পুলিশ গেলে স্থানীয়দের সঙ্গে তাদেরও সংঘর্ষ বাঁধে।

ওই সময় ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে কলেজের ছাত্র ও স্থানীয়রা ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরিয়ে দেয়। ওই ঘটনার কিছু ছবি ও ভিডিও ফেইসবুকে আসে, যাতে পুলিশের উপস্থিতিও দেখা যায়।

পরে অধ্যক্ষ স্বপন কুমারকে হেনস্তার প্রতিবাদে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্ষোভ প্রকাশ করে বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ। এর প্রতিবাদে সোমবার বিকালে ঢাকার শাহবাগে একটি প্রতিবাদ সমাবেশ ডাকা হয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক