• সোহাগের ঝড়ো সেঞ্চুরি, আশরাফুলের ব্যাটে রান
    শুরুতে ঝড় তুললেন ফজলে মাহমুদ। সেই সুর ধরে রেখে বরিশাল বিভাগকে বড় সংগ্রহ এনে দিলেন সোহাগ গাজী। রাজশাহী বিভাগের বিপক্ষে বিস্ফোরক ব্যাটিংয়ে করলেন দারুণ এক সেঞ্চুরি।
  • সাকিবের দ্বিতীয় শূন্য, মোহামেডানের হ্যাটট্রিক হার
    সাকিব আল হাসান যেন রান করতেই ভুলে গেছেন। লিগে দারুণ শুরুর পর মোহামেডানও ভুলে গেছে জিততে। এবার তাদের ভোগান্তিতে ফেলল সোহাগ গাজী, মোহাম্মদ শহিদ ও নাঈম ইসলামের ত্রিমুখী আক্রমণ। ব্যাটসম্যানদের চরম ব্যর্থতার ম্যাচে সাকিবের দল পাত্তাই পেল না রূপগঞ্জের কাছে।
  • ২১ উইকেট পতনের দিনে উজ্জ্বল তাইজুল, সোহাগ
    দিনের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত রাজত্ব করলেন বোলাররা। ম্যাচের শুরুর দিনেই শেষ হয়ে গেল বরিশাল বিভাগ ও রাজশাহী বিভাগের প্রথম ইনিংস। ২১ উইকেট পতনের দিনে অলরাউন্ড নৈপুণ্যে উজ্জ্বল তাইজুল ইসলাম। একশর নিচে গুটিয়ে যাওয়া দলকে লড়াইয়ে রাখতে বল হাতে আলো ছড়ালেন সোহাগ গাজী।
  • মোসাদ্দেকের ব্যাটে রান
    লক্ষ্য তাড়ায় দলকে টানলেন মোসাদ্দেক হোসেন। বিধ্বংসী ইনিংস খেলে মাঠ ছাড়লেন অপরাজিত থেকে। কিন্তু অধিনায়কের লড়াই যথেষ্ট হলো না মারাঠা অ্যারাবিয়ান্সের জন্য। শেষ পর্যন্ত হারের তেতো স্বাদ পেতে হলো তাদের।
  • আফিফের ব্যাটে ঝড়
    তিনে নেমে ঝড় তুললেন আফিফ হোসেন। বিস্ফোরক ইনিংসে অবদান রাখলেন বাংলা টাইগার্সের জয়ে।
  • মোসাদ্দেকের ব্যাটে রান
    দলের প্রয়োজনের সময় হাল ধরলেন মোসাদ্দেক হোসেন। মারাঠা অ্যারাবিয়ান্সকে নিয়ে গেলেন একশ রানের কাছে। তবে অধিনায়কের লড়াই যথেষ্ট ছিল না। দিল্লি বুলসের কাছে বড় ব্যবধানেই হেরেছে তারা।
  • ‘শেষবারের মতো’ ছাড় পেলেন সোহাগ-ধীমান-ফরহাদ
    একবার, দুইবার নয়, তিন-তিনবার নেওয়া হয়েছে বিপ টেস্ট। একবারও উতরাতে পারেননি সোহাগ গাজী, ধীমান ঘোষ ও ফরহাদ হোসেন। হতাশ নির্বাচক হাবিবুল বাশার বুঝে ফেলেছেন, আর হবে না। তিন জনই ঘরোয়া ক্রিকেটের অভিজ্ঞ ও নিয়মিত পারফরমার। শেষ পর্যন্ত বিশেষ বিবেচনায় ছাড় দেওয়া হয়েছে তাদেরকে। তবে হাবিবুল তাদেরকে জানিয়ে দিয়েছেন, এবারই শেষ। পরের মৌসুমে ফিটনেসের উন্নতি না হলে তাদের প্রথম শ্রেণির ক্যারিয়ারও থমকে যাবে।
  • রাজ্জাক-মুমিনুলের পরামর্শে আরও শাণিত নাঈম
    বড় দৈর্ঘ্যের ক্রিকেট এখন বুঝতে পারছেন নাঈম হাসান। কোন পরিস্থিতিতে কিভাবে বোলিং করতে হয় অনেকটাই আয়ত্তে এসে গেছে দীর্ঘদেহী এই অফ স্পিনারের। এখন নিজেকে আরও বেশি প্রস্তুত মনে হচ্ছে এনসিএলের সদ্য সমাপ্ত আসরের সেরা এই উইকেট শিকারির।
  • জ্বলে উঠলেন বোলার সোহাগ গাজী
    অফ স্পিনে তার কার্যকারিতাই প্রায় হারিয়ে যেতে বসেছিল। গত কিছুদিনে হয়ে উঠেছেন অলরাউন্ডার, যার বেশি সাফল্য ব্যাটিংয়ে। উইকেটও পেয়েছেন কিছু, তবে সেসব অনেক দামে কেনা। অবশেষে বল হাতে বলার মতো করে জ্বলে উঠতে পারলেন সোহাগ গাজী।
  • ফজলে মাহমুদ-সোহাগের সেঞ্চুরি
    আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ে সেঞ্চুরি করে ফিরে গেছেন সোহাগ গাজী। অপরাজিত সেঞ্চুরিতে দলকে টানছেন ফজলে মাহমুদ। দুই সেঞ্চুরিতে রংপুরের বড় সংগ্রহের জবাব দিচ্ছে বরিশাল।
  • জাতীয় দলে ফেরার সুযোগ সোহাগ গাজীর সামনে
    ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের বাংলাদেশ দলে গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করা হচ্ছে সোহাগ গাজীকে। তার আগে এই অফ স্পিনারের ফর্ম ও ফিটনেস একটু পরখ করতে চান নির্বাচকেরা। তাই তাকে ডাকা হয়েছে বাংলাদেশ ‘এ’ দলে।
  • সবার ওপর রেকর্ড গড়া রাজ্জাক
    বছরের প্রথম টুর্নামেন্ট জাতীয় ক্রিকেট লিগটা খুব একটা ভালো কাটেনি আব্দুর রাজ্জাকের। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটের সেই টুর্নামেন্টে সাদামাটা বোলিং করা বাঁহাতি এই স্পিনার স্বরূপে ফিরেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগে। মৌসুমের শেষ টুর্নামেন্টে স্পিনের মায়াজালে তুলে নিয়েছেন ৪৩ উইকেট।
  • ৫২ ওভার বোলিং করতে ১১ বোলার!
    সুযোগ থাকলেও মধ্যাঞ্চলকে ফলো-অন করাননি পূর্বাঞ্চলের অধিনায়ক মুমিনুল হক। দুই সেশনের বেশি সময় পেলেও প্রতিপক্ষকে আবার অলআউটের চেষ্টা না করাটা বিস্ময়কর। ৫২ ওভার বল করতে মধ্যাঞ্চলের অধিনায়ক মার্শাল আইয়ুবের ১১ জন বোলার ব্যবহার করাও কম অবাক করা নয়।
  • সোহাগের ৫ উইকেট
    এক ম্যাচ পর আবার পাঁচ উইকেট পেলেন সোহাগ গাজী। তার বোলিংয়ে মধ্যাঞ্চলেকে ফলো-অন করানোর আশায় পূর্বাঞ্চল। সাদমান ইসলাম, রকিবুল হাসান, মার্শাল আইয়ুব ও শুভাগত হোম চৌধুরীর ফিফটিতে সাড়ে তিনশ ছাড়িয়েছে মধ্যাঞ্চলের সংগ্রহ।
  • সোহাগের ব্যাটে উদ্ধার বরিশাল
    বোলিংয়ের চেয়ে ইদানিং ব্যাটিংটাই বেশি ভালো করেন সোহাগ গাজী। বল হাতে আরেকবার উইকেটশূন্য বরিশালের হয়ে। তবে ঢাকা বিভাগের বিপক্ষে দলকে টানলেন ব্যাট হাতে।
  • সোহাগের শতকে বরিশালের বড় সংগ্রহ
    জাতীয় ক্রিকেট লিগের দ্বিতীয় রাউন্ডে সোহাগ গাজীর দারুণ এক শতকে ঢাকা মেট্রোর বিপক্ষে বড় সংগ্রহ গড়েছে বরিশাল। দ্বিতীয় দিন ৩ উইকেট তুলে নিয়ে প্রথম স্তরের ম্যাচে মার্শাল আইয়ুবের দলকে চাপে রেখেছে তারা।