তাসকিন-শহীদের বোলিং তোপের পর শাহরিয়ারের সেঞ্চুরি

তাসকিন-শহীদের বোলিং তোপের পর শাহরিয়ারের সেঞ্চুরি

শুরুতে ছোবল দিলেন তাসকিন আহমেদ। দারুণ বোলিংয়ে শেষ করলেন মোহাম্মদ শহীদ। দুই পেসারের বোলিং তোপে দুইশ ছাড়িয়েই গুটিয়ে গেল প্রাইম দোলেশ্বর। রান তাড়ায় দলকে পথ দেখালেন শাহরিয়ার নাফীস। তার অপরাজিত সেঞ্চুরিতে জয়ে ফিরেছে লেজেন্ডস অব রূপগঞ্জ।

‘বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিতে পারে মিরাজ’

‘বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিতে পারে মিরাজ’

বাংলাদেশের প্রথম টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক শাহরিয়ার নাফীস। ছিলেন টেস্ট ও ওয়ানডে দলের সহ-অধিনায়ক। ভাবা হচ্ছিল, ভবিষ্যৎ অধিনায়ক। সেই পথ থেকে পরে সরে গেছেন অনেক দূরে। নিজের সেই সম্ভাবনাই এখন মেহেদী হাসান মিরাজের মাঝে দেখছেন শাহরিয়ার।

আশরাফুলকে ছাপিয়ে নায়ক শাহরিয়ার

আশরাফুলকে ছাপিয়ে নায়ক শাহরিয়ার

শাহরিয়ার নাফীসের সেঞ্চুরিতে প্রাথমিক পর্বে হারের প্রতিশোধ নিল অগ্রণী ব্যাংক। দুই দলের প্রথম দেখায় কলাবাগান ক্রীড়া চক্রকে সেঞ্চুরিতে জিতিয়েছিলেন মোহাম্মদ আশরাফুল। আবার সেঞ্চুরি করলেন এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান। তবে এবার হেরে গেছে তার দল।

শাহরিয়ারের ব্যাটে রূপগঞ্জকে হারাল অগ্রণী ব্যাংক

শাহরিয়ারের ব্যাটে রূপগঞ্জকে হারাল অগ্রণী ব্যাংক

শিরোপা প্রত্যাশী লেজেন্ডস অব রূপগঞ্জকে হারিয়ে দিল অগ্রণী ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাব। দারুণ বোলিংয়ে রূপগঞ্জকে কম রানে থামালেন আল আমিন হোসেন। ঝকঝকে এক ফিফটিতে দলকে জেতালেন বাঁহাতি ওপেনার শাহরিয়ার নাফীস।

শান্তর সেঞ্চুরি, চার বলে মাশরাফির ৪ উইকেট

শান্তর সেঞ্চুরি, চার বলে মাশরাফির ৪ উইকেট

জয়ের জন্য শেষ ওভারে অগ্রণী ব্যাংকের দরকার ছিল ১৩ রান। ধীমান ঘোষ যেভাবে খেলছিলেন তাতে লক্ষ্যটা খুব কঠিন ছিল না। কিন্তু টানা চার বলে উইকেট তুলে নিয়ে আবাহনীকে জয়ে ফেরালেন মাশরাফি বিন মুর্তজা।

ব্যর্থ সৌম্য, শাহরিয়ারের অপরাজিত ফিফটি

ব্যর্থ সৌম্য, শাহরিয়ারের অপরাজিত ফিফটি

বিসিএলে আবারও ব্যর্থ সৌম্য সরকার। দুই অঙ্ক ছুঁয়েই ফিরেছেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। দেশের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ১০ রানের মাইলফলক ছোঁয়া তুষার ইমরানের সঙ্গে মধ্যাঞ্চলের বিপক্ষে দলকে এগিয়ে নিচ্ছেন শাহরিয়ার নাফীস।

শাহরিয়ার, মার্শালের ব্যাটে শিরোপা লড়াইয়ে দোলেশ্বর

শাহরিয়ার, মার্শালের ব্যাটে শিরোপা লড়াইয়ে দোলেশ্বর

হারলেই শিরোপার আশা শেষ- এমন সমীকরণ চাপ হয়ে দাঁড়াতে পারেনি প্রাইম দোলেশ্বরের সামনে। শাহরিয়ার নাফীস ও মার্শাল আইয়ুবের ব্যাটে মোহামেডানকে হারিয়ে শিরোপার সম্ভাবনা বাঁচিয়ে রেখেছে দলটি।

মার্শাল-শাহরিয়ার হারিয়ে দিলেন আবাহনীকে

মার্শাল-শাহরিয়ার হারিয়ে দিলেন আবাহনীকে

আগের রাউন্ডে হেরে গাজী গ্রুপ সুযোগ করে দিয়েছিল তাদেরকে ছোঁয়ার। কিন্তু পারল না কাছাকাছি থাকা আবাহনী। উল্টো শেষ রাউন্ডে আবাহনীকে হারিয়ে তাদের পাশাপাশি থেকেই সুপার লিগে গেল প্রাইম দোলেশ্বর।

শাহরিয়ারের শতকে বরিশালের লড়াই

শাহরিয়ারের শতকে বরিশালের লড়াই

ফলোঅনে পড়া বরিশালকে দ্বিতীয় ইনিংসে পথ দেখিয়েছেন শাহরিয়ার নাফীস। তার শতকে ম্যাচ বাঁচাতে লড়ছে প্রথম স্তরে টিকে যাওয়া দলটি। 

শাহরিয়ারের প্রশংসায় তামিম, মুশফিক

শাহরিয়ারের প্রশংসায় তামিম, মুশফিক

চার ম্যাচে তিনটি অর্ধশতক করা শাহরিয়ার নাফীসকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন তামিম ইকবাল ও মুশফিকুর রহিম। চিটাগং ভাইকিংস অধিনায়ক তামিমের কাছে চলতি আসরে এখন পর্যন্ত সেরা ব্যাটসম্যান শাহরিয়ার। আর বরিশাল অধিনায়কের মতে, তাদের শীর্ষে উঠায় বড় অবদান এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের।

বরিশালকে জেতালেন শাহরিয়ার-মালান

বরিশালকে জেতালেন শাহরিয়ার-মালান

তখনও হাতে উইকেট ৯টি। কিন্তু রান বলের টানাপোড়েন বাড়ছিল সময়ের সঙ্গে। থিতু দুই ব্যাটসম্যান হঠাৎ করেই মনে হচ্ছিলো ক্লান্ত। তিন বলেই সমীকরণ সহজ করে দিলেন ডেভিড মালান। ডোয়াইন স্মিথকে টানা তিন ছক্কায় জয় নিয়ে এলেন নাগালে। পরে দুই উইকেট হারালেও শেষ ওভারে দুই চারে শেষ করলেন মুশফিকুর রহিম।

‘দেশের মাটিতে এমন ইনিংস দেখিনি’

‘দেশের মাটিতে এমন ইনিংস দেখিনি’

সাব্বিরের ব্যাটের তাণ্ডবে মাঠের নানা প্রান্ত উড়ে যাচ্ছিলো বল। আর শাহরিয়ার নাফীসের মনে হচ্ছিল, এ দিন হয়ত দুইশ’ রানও যথেষ্ট হতো না। শেষ পর্যন্ত সাব্বিরকে ফিরিয়েছে বরিশাল, জিতেছে ম্যাচও। তবে ইনিংসটিতে মুগ্ধতা যায়নি শাহরিয়ারের। দেশের মাটিতে এ রকম ইনিংস দেখেননি, বলেছেন অভিজ্ঞ এই ব্যাটসম্যান।

পাওনা আদায়ে বিসিবির দ্বারস্থ শাহরিয়ার-নাফিসরা

পাওনা আদায়ে বিসিবির দ্বারস্থ শাহরিয়ার-নাফিসরা

পুরো টাকা দেওয়ার শেষ সময় চলে এসেছে। অথচ ব্রাদার্স ইউনিয়নের ক্রিকেটাররা পেয়েছেন কেবল পারিশ্রমিকের প্রথম অংশ! পাওনা চেয়ে ক্লাব কর্তাদের কাছে বারবার প্রত্যাখ্যাত হয়ে ক্লাবটির ক্রিকেটাররা সহায়তা চেয়েছেন বিসিবির।

শাহরিয়ারের ঘোর কাটছেই না

শাহরিয়ারের ঘোর কাটছেই না

বাস্তবতার সঙ্গে মানিয়ে নিতে শিখে গিয়েছিলেন শাহরিয়ার নাফীস। তবে মাঝে মধ্যে অসহায় অনুভব করতেন তখনই, একমাত্র ছেলে শাহওয়ার আলি নাফীস যখন প্রশ্ন করত, “বাবা, তোমাকে জাতীয় দলে নেয় না কেন?”