• ‘ঝাড়ি কম দিস ভাই, বয়সে আমি তোর বড়’
    তুই যেভাবে নেতৃত্ব দিচ্ছিস, মাঝে মধ্যে মনে হয় আমাদেরও না দুয়েকটা ঝাড়ি মেরে দিস- মুমিনুল হককে বলছিলেন তামিম ইকবাল। কম যান না টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুলও; মনে করিয়ে দিলেন, সিনিয়র ক্রিকেটারদের মধ্যে মাঠে ঝাড়ি দেন কেবল তামিমকেই!
  • স্মরণীয় দ্বৈরথ: মর্কেল ও মানসিক চাপের সঙ্গে মুমিনুলের লড়াই
    দলে জায়গা ধরে রাখার চাপ। মনে সংশয়ের ঘুণপোকা। সামনে মর্নে মর্কেলের গতি ও বাউন্স সামলানোর চ্যালেঞ্জ। এই বিরুদ্ধ পারিপার্শ্বিকতায় মুমিনুল হক খেলেছিলেন দারুণ এক ইনিংস। তার নিজের কাছে লড়াই জয়ের মনে রাখার মতো এক অধ্যায় সেটি।
  • নায়কদের নায়ক: যাকে দেখে ‘টিভিতে খেলার’ স্বপ্ন এঁকেছিলেন মুমিনুল
    বাড়ির সবাই ভারত ক্রিকেট দলের সমর্থক। ছোট্ট ছেলেটিও সবার সঙ্গে বসল টিভির সামনে। আকাশী-নীল জার্সি পরা ছোটখাটো গড়নের একজন ব্যাটসম্যান সেদিন গুঁড়িয়ে দিলেন হলুদ জার্সি পরা বোলারদের। শারজাহর ২২ গজে সেই ঝড় দেখে কক্সবাজারের বাসায় বসে নিজের হৃদয়ে স্বপ্নের ছবি এঁকে ফেলল এক বালক, ‘আমিও এরকম ক্রিকেট খেলব টিভিতে!’
  • মুমিনুল-সৌম্য গাজী গ্রুপে, প্রাইম ব্যাংকে রুবেল
    বঙ্গবন্ধু ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগের আসন্ন আসরের জন্য দলবদল করেছেন মুমিনুল হক, সৌম্য সরকার, ইমরুল কায়েস, রুবেল হোসেন। বাংলাদেশ টেস্ট অধিনায়ক খেলবেন গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্সে। একই দলে নাম লিখিয়েছেন বাঁহাতি ওপেনার সৌম্য। শেখ জামাল ধানমণ্ডি ক্লাবে যোগ দিয়েছেন ইমরুল। জাতীয় দলের পেসার রুবেল খেলবেন প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাবের হয়ে।
  • ২৯ ধাপ এগোলেন নাঈম, ৫ ধাপ মুশফিক-মুমিনুল
    জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টেস্টে দারুণ বোলিংয়ের পুরস্কার পেলেন নাঈম হাসান। ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ে আইসিসি টেস্ট বোলারদের র‍্যাঙ্কিংয়ে ২৯ ধাপ এগিয়েছেন বাংলাদেশের তরুণ অফ স্পিনার। মিরপুর টেস্টে ভালো করে ব্যাটসম্যানদের র‍্যাঙ্কিংয়ে ৫ ধাপ করে এগিয়েছেন মুশফিকুর রহিম ও মুমিনুল হক।
  • ‘তামিম ভাইয়ের সাথে আমার তুলনা কখনও হয় না’
    তামিম ইকবালের চেয়ে কম ম্যাচ খেলেই টেস্ট সেঞ্চুরির সংখ্যায় তাকে ধরে ফেলেছেন মুমিনুল হক। বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক ব্যাটিং গড়েও আছেন বেশ এগিয়ে। তবু তামিমের সঙ্গে নিজের তুলনা করতে চান না মুমিনুল। বরং তামিমকে এগিয়ে রাখছেন যোজন যোজন। 
  • ‘আগ্রাসী’ হয়েছেন অধিনায়ক মুমিনুল
    স্বভাবে শান্ত। চুপচাপ। একটু অন্তর্মুখী। বাংলাদেশ ক্রিকেটে বরাবরই এভাবেই পরিচিত মুমিনুল হক। কদিন আগে স্বয়ং বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান বলেছেন, মুমিনুল বড্ড লাজুক। তবে মুমিনুলের দাবি, ধীরে ধীরে নিজেকে ভাঙতে চেষ্টা করছেন তিনি। আগ্রাসী হয়ে উঠছেন অধিনায়ক হিসেবে।
  • বিদেশে সেঞ্চুরি নিয়ে ‘কথা বলবেন না’ মুমিনুল
    টেস্ট ক্রিকেটে পথচলার সাত বছর হতে চলেছে। দেশের মাটিতে মুমিনুল হক করে ফেলেছেন নয় সেঞ্চুরি। কিন্তু বিদেশে সেঞ্চুরি এখনও অধরা। দেশের বাইরে ১৭ টেস্ট খেলেও ছোঁয়া হয়নি তিন অঙ্ক। তবে সেই ভাবনায় কাতর হতে চান না বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক। বলতে চান না সেটি নিয়ে খুব বেশি কথাও।
  • মিরাজ-নাঈমের লড়াইয়ে দলের লাভ দেখছেন অধিনায়ক
    নাঈম হাসানের পারফরম্যান্সকে অনেকে দেখছেন মেহেদী হাসান মিরাজের জন্য জেগে ওঠার বার্তা হিসেবে। মুমিনুল হক সরাসরি সেটি বলছেন না। তবে অধিনায়ক হিসেবে দারুণ উপভোগ করছেন দুই তরুণ অফ স্পিনারের লড়াই। পরস্পরকে ছাপিয়ে যাওয়ার এই প্রতিযোগিতায় চূড়ান্ত লাভ যে দলেরই!
  • পারলে সাকিবকেও দলে নিতেন মুমিনুল
    সেনাপতি হিসেবে যখন লড়াইয়ে নেমেছেন, সম্ভব সেরা সব অস্ত্রকেই নিজের ভাণ্ডারে দেখতে চান মুমিনুল হক। তাই মুশফিকুর রহিম তো বটেই, পারলে এমনকি সাকিব আল হাসানকেও পাকিস্তান সফরের দলে নিতেন বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক। যদিও জানেন, আইসিসির নিষেধাজ্ঞায় থাকা সাকিবকে পাওয়া সম্ভব নয়।
  • ‘যত ছোটই হোক মুমিনুলই নেতৃত্বের জন্য সঠিক ব্যক্তি’
    ভীষণ চাপের মধ্যে ছিলেন মুমিনুল হক। নিজের ব্যাটে ছিল না রান, দল হারছিল বাজেভাবে। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে চাপের মধ্যে দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে করেছেন সেঞ্চুরি। মুশফিকুর রহিম মনে করছেন, এবার শুধু এগোনোর পালা তার সতীর্থের। তাকেই টেস্ট দলের নেতৃত্বে দেখতে চান ব্যাটিংয়ের সবচেয়ে বড় ভরসা।
  • মুশফিক-মুমিনুল জুটির ডাবল সেঞ্চুরির রেকর্ড
    পরপর তিন বলে ডোনাল্ড টিরিপানোকে বাউন্ডারিতে পাঠালেন মুশফিকুর রহিম। মুমিনুল হকের সঙ্গে তার জুটির রান হলো ১৯৮। পরের বলেই শঙ্কা। এলবিডব্লিউয়ের জন্য জিম্বাবুয়ে চাইল রিভিউ। কিন্তু আউট নয়, উল্টো ‘নো’ বল থেকে এলো রান। পরের বলে মুশফিকের সিঙ্গেলে জুটির রান স্পর্শ করল দুইশ। ধরা দিল মাইলফলক।
  • স্বস্তির সেঞ্চুরিতে তামিমকে ছুঁলেন মুমিনুল
    ক্যারিয়ারে এতটা চাপে বুঝি কখনোই ছিলেন না মুমিনুল হক। চেপে বসেছে নেতৃত্বের বিষম ভার। ব্যাট থেকে হারিয়ে গেছে রান। সমানে হারছে দল। সব মিলিয়ে অবস্থা ছিল জেরবার। অবশেষে দুঃসময়ের বলয় ভেঙে একটু স্বস্তির শ্বাস নিতে পারছেন মুমিনুল। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মিরপুর টেস্টে দারুণ এক সেঞ্চুরি উপহার দিয়েছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক।
  • ১০০-২০০-৩০০ আসছে, কথা দিলেন মুমিনুল
    শেষ ছয় টেস্টেই হার। যার পাঁচটিই ইনিংস ব্যবধানে। এই পরিসংখ্যানে স্পষ্ট টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের পারফরম্যান্স। শেষ পাঁচ টেস্টে নেই কারও সেঞ্চুরি। অধিনায়ক মুমিনুল হক অবশ্য আশা দেখালেন। কথা দিলেন, খুব শিগগিরই যে কেউ ১০০, ২০০ কিংবা ৩০০ রানের ইনিংস খেলবেন।
  • আধ ঘণ্টার নাটকীয়তায় ইনিংস হারের মুখে বাংলাদেশ
    দিনের শুরুটা হয়েছিল বেশ ভালো। দ্বিতীয় ওভারেই উইকেট। ধারাবাহিকতা ধরে রেখে পাকিস্তানের প্রথম ইনিংস সাড়ে চারশর আগে থামিয়ে দেন বোলাররা। কিন্তু শেষ বিকেলের নাটকীয় ব্যাটিং ধসে বাংলাদেশ পড়েছে ইনিংস হারের শঙ্কায়।
  • পাকিস্তান সফরে নতুন শুরুর আশায় মুমিনুল
    দেশের বাইরে টেস্টে সময়টা বড্ড বাজে কাটছে বাংলাদেশের। হেরেছে টানা আট ম্যাচে, এর ছয়টিতেই ইনিংস ব্যবধানে। ব্যর্থতার বৃত্ত ভাঙতে মরিয়া মুমিনুল হক। টেস্ট অধিনায়কের আশা, পাকিস্তান সফর দিয়ে ছন্দে ফিরবে বাংলাদেশ।
  • দলে বেশি পরিবর্তনের বিপক্ষে বাংলাদেশ কোচ ও অধিনায়ক
    নতুন অভিযানের আগে একটা জায়গায় একমত রাসেল ডমিঙ্গো ও মুমিনুল হক, দল নিয়ে খুব বেশি নাড়াচাড়া করা যাবে না। বাংলাদেশ কোচ ও অধিনায়ক মনে করেন, একজন খেলোয়াড়ের নিজেকে প্রমাণের জন্য যথেষ্ট সুযোগ পাওয়া উচিত। তারা দল নির্বাচনে একটা ধারাবাহিকতা আনার দিকে জোর দিচ্ছেন।
  • প্রথম সিরিজে ব্যাকফুটে ছিলাম: মুমিনুল
    টেস্ট নেতৃত্ব নিয়ে নিশ্চয়ই অনেক রোমাঞ্চ ছিল মুমিনুল হকের। কিন্তু ভারত সফরে তার পরিচয় হয়েছে কঠিন বাস্তবতার সঙ্গে। পাকিস্তানে যাওয়ার আগে তাই পা রাখছেন বাস্তবতার জমিনে। অধিনায়ক হিসেবে নিজের উন্নতির অনেক জায়গা দেখছেন মুমিনুল।
  • ‘যুদ্ধে যাওয়ার’ জন্য তৈরি মুমিনুলরা
    চারপাশে অস্ত্রধারী নিরাপত্তাকর্মী আর বিশাল বহর-পাকিস্তানে যে অবস্থায় থাকে বিদেশি দলগুলি, তাতে যুদ্ধাবস্থা বললে ভুল হবে না হয়তো। অন্তত মুমিনুল হকের কাছে এটি একরকম জরুরি অবস্থাই। অনুশীলনের ঘাটতি থাকবে, মানসিকভাবে মানিয়ে নেওয়াও কঠিন। দলকে সব পরিস্থিতির সঙ্গে খাপ খাইয়ে নিতে বলছেন বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক।
  • ‘জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মুশফিক ভাই অবশ্যই খেলবেন’
    মুমিনুল হকের মতে, পাকিস্তানে মুশফিকুর রহিমের অভাব প্রবলভাবেই অনুভব করবে দল। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টেস্টে তাই মুশফিকের খেলা নিয়ে সংশয়ের কারণ দেখেন না বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক।
  • বাজে সময় পেছনে ফেলার স্বস্তি মুমিনুলের
    সবশেষ টেস্টে দুঃস্বপ্নের স্মৃতি পেছনে ফেলে পাকিস্তানের বিপক্ষে রাওয়ালপিন্ডি টেস্টের দিকে তাকিয়ে মুমিনুল হক। সে লক্ষ্যে তার প্রস্তুতিটা বেশ ভালো হলো। বিসিএলের ম্যাচে মধ্যাঞ্চলের বিপক্ষে মন্থর উইকেটে করেছেন সেঞ্চুরি। দেশের বাইরে বাজে সময় কাটানো টপ অর্ডার এই ব্যাটসম্যানের আশা, বড় রান করার অভ্যাস কাজে লাগবে পাকিস্তানে।
  • ‘লম্বা সময় খেললে তামিম ভাইয়ের তিনশ হবেই’
    দিন শেষে নামের পাশে অপরাজিত ২২২ রান। ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস। তবু জানা হলো না তামিম ইকবালের অনুভূতি। দিনের খেলা শেষে পূর্বাঞ্চলের ওপেনার বললেন, “সময় হলেই কথা বলব।” সেই সময় কখন হবে, বলা কঠিন। তবে মুমিনুল হক তাকিয়ে আছে একটা সময়ের দিকে। দলের ইনিংস যতক্ষণ চলবে, পূর্বাঞ্চলের অধিনায়ক ততক্ষণই উইকেট দেখতে চান তামিমকে। তাহলে তো ট্রিপল সেঞ্চুরি হবেই!
  • তামিমের ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস, মুমিনুলের ২১তম সেঞ্চুরি
    সেই ২০১৪ সালে বিসিএলে দুটি ম্যাচ খেলেছিলেন তামিম ইকবাল। ইনিংস মিলিয়ে করতে পারেননি একশ। ৬ বছর পর আবার বিসিএলে খেলতে নেমে সেই তামিম করলেন ডাবল সেঞ্চুরি। খেললেন প্রথম শ্রেণির ক্যারিয়ারে নিজের সেরা ইনিংস। একই দিনে সেঞ্চুরি করেছেন মুমিনুল হক। পূর্বাঞ্চলের দুই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যানের ব্যাটে পিষ্ট হয়েছে মধ্যাঞ্চলের বোলিং।
  • ভারত সফর বুঝিয়ে দিল বাংলাদেশ ক্রিকেটের বাস্তবতা
    বলা হয়, শেষ ভালো যার সব ভালো তার। কিন্তু বাংলাদেশের ভারত সফরে ভালো খুঁজতে যেতে হচ্ছে সেই শুরুতে! সময় যত গড়িয়েছে, ততই খারাপ হয়েছে পারফরম্যান্স। বিশেষ করে টেস্ট সিরিজ এতটাই বাজে কেটেছে যে সফরের শুরুতে টি-টোয়েন্টির সাফল্য মনে হচ্ছে যেন সেই কবেকার ঘটনা! বাংলাদেশের ক্রিকেট এখন কোথায় দাঁড়িয়ে, সেই চিত্রই যেন ফুটিয়ে তুলেছে এবারের ভারত সফর।  
  • গাভাস্কারের সমালোচনা মেনে নিলেন মুমিনুল
    সুনীল গাভাস্কারের কঠোর সমালোচনা মেনে নিয়েছেন মুমিনুল হক। একই সঙ্গে এই সিরিজের শিক্ষা কাজে লাগিয়ে পরের সিরিজে উন্নতির প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক।
  • দলকে কক্ষপথে ফেরাতে সময় চান অধিনায়ক
    দুই ম্যাচেই বাজেভাবে হেরে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে শুরুটা হলো যেন দুঃস্বপ্নের মতো। মুমিনুল হকের কোনো সন্দেহ নেই, ঘুরে দাঁড়াবে দল। তবে পথে ফিরতে সময় চাইলেন ভারতের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দেওয়া এই ব্যাটসম্যান।
  • সুড়ঙ্গের শেষে আলো দেখছেন মুমিনুল
    দেশের বাইরে শেষ ১১ ইনিংসে স্রেফ ৭৬ রানের বাজে রেকর্ড নিয়ে ভারত সফর শুরু করা মুমিনুল হক আবারও ব্যর্থ। ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো গড় নেমে এসেছে ৪০-এর নিচে। বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যানের আশা, শিগগির কাটবে দুঃসময়, আবার হাসবে তার ব্যাট।
  • বিসিবি সভাপতির অভিযোগ নিয়ে ‘চুপ’ মুমিনুল
    অধিনায়ক হিসেবে প্রথম সিরিজটা ভীষণ কঠিন কেটেছে মুমিনুল হকের। নিজের ব্যাটে নেই রান। দল দুই ম্যাচেই হেরেছে বাজেভাবে। এরই মাঝে নাজমুল হাসান অভিযোগ করেন, কলকাতা টেস্টে টস জিতে বোলিং নেওয়ার কথা থাকলেও ব্যাটিং নিয়েছে বাংলাদেশ। এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি মুমিনুল হক।
  • প্রথমবার চল্লিশের নিচে মুমিনুল
    তার পছন্দ নয় বটে, তবে নিজের পারফরম্যান্স দিয়েই ‘টেস্ট স্পেশালিস্ট’ তকমাটা পেয়েছেন মুমিনুল হক। বাংলাদেশের প্রথম দিবা-রাত্রির টেস্টে সেই মুমিনুলই খুলতে পারলেন না রানের খাতা। প্রথম ইনিংসের পর দ্বিতীয় ইনিংসেও ফিরলেন শুন্য রানে। আর ‘পেয়ার’ পাওয়ার ম্যাচে প্রথমবারের মতো তার টেস্ট গড় নেমে গেল চল্লিশের নিচে।
  • গোলাপি বলের লড়াইয়ে শঙ্কা-সম্ভাবনার দোলাচলে বাংলাদেশ
    ভারতের পর অনুশীলন করে চলে গেছে বাংলাদেশ দলও। কিন্তু নেভেনি ইডেন গার্ডেন্সের বাতি। পরদিনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানকে ঘিরে চলছে একের পর এক মহড়া। শুধু ইডেন নয়, ম্যাচকে ঘিরে ব্যস্ততা পুরো কলকাতা জুড়ে। উপমহাদেশে প্রথমবারের মতো হতে যাচ্ছে দিবা-রাত্রির টেস্ট। ভারতের সামনে আরেকটি সিরিজ জয়ের হাতছানি। শক্তিতে অনেক পিছিয়ে থাকা বাংলাদেশ রয়েছে শঙ্কা আর সম্ভাবনার দোলাচলে।
  • ভাগ্য বদলাতে মুমিনুলের মন্ত্র
    গোলাপি বল আরও বেশি আঁটসাঁট টেকনিকের দাবি করে বলে মনে করেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। মুমিনুল হক এর সঙ্গে যোগ করলেন শট নির্বাচন, ধৈর্য ও প্রতিটি বলে শতভাগ মনোযোগ। বাংলাদেশ অধিনায়কের বিশ্বাস, ভাগ্য বদল করতে এই ব্যাপারগুলো ঠিকঠাক থাকলেই হবে।
  • সাইফের জন্য মুমিনুলের আক্ষেপ
    আগের টেস্টে দুই ওপেনারের ব্যর্থতায় দুয়ার খুলে গিয়েছিল সাইফ হাসানের জন্য। কলকাতা টেস্টে হতে পারতো অভিষেক। চোটের জন্য ছিটকে যাওয়া এই তরুণ ওপেনারের জন্য আক্ষেপ ঝরল মুমিনুল হকের কণ্ঠে।
  • ইন্দোর টেস্টের আয়নায় বাংলাদেশের ক্রিকেট
    ১৯ বছরে কতটা এগিয়েছে দেশের ক্রিকেট? টেস্টের প্রতি ক্রিকেটারদের নিবেদন কতখানি? আগ্রহভরে কি খেলেন প্রথম শ্রেণির ক্রিকেট, কতটা উন্মুখ তারা নিজেদের মেলে ধরতে? ইন্দোর টেস্টে মুমিনুল হকের দলের যাচ্ছেতাই পারফরম্যান্সে এমন নানা প্রশ্ন উঠে আসছে। জাগছে মান নিয়ে প্রশ্ন। ১৯ বছর পরও যে সেই শুরুর সময়ের বাংলাদেশেরই দেখা মিলল।
  • ‘এর চেয়ে বেশি সুইং কিভাবে সম্ভব’
    গোলাপি বল তো অনেক বেশি সুইং করবে, কিভাবে সামলাবেন?-প্রশ্ন শুনে হতাশার মাঝেও হাসি ফুটল মুমিনুল হকের মুখে। ইন্দোরে লাল বলে যে সুইং করিয়েছেন ভারতের তিন পেসার, কলকাতায় এর চেয়ে খুব বেশি হবে না বলেই বিশ্বাস তার। বাংলাদেশ অধিনায়ক মনে করেন, ইন্দোরে শামি-ইশান্ত-উমেশকে খেলেই ভালো প্রস্তুতি হয়ে গেছে তাদের। 
  • সাংবাদিকদের প্রশ্নও মুমিনুলদের জন্য চাপ!
    ব্যাট-বলের লড়াইয়ের প্রবল চাপ তো আছেই, মাঠের বাইরেও তা একেবারে কম নয়। বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের অসংখ্য চাপের একটি নাকি আসে সাংবাদিকদের প্রশ্ন থেকে! তবে অধিনায়ক মুমিনুল হক মনে করছেন, সব ধরনের চাপ কাটিয়ে উঠতে তাদের মানসিক দৃঢ়তা বাড়াতে হবে।
  • ‘মুস্তাফিজে বিশ্বাস হারায়নি বাংলাদেশ’
    মুস্তাফিজুর রহমান খেলবেন কি না, জানতে টসের আগ পর্যন্ত অপেক্ষার কথা বলেছিলেন মুমিনুল হক। শেষ পর্যন্ত একাদশে জায়গা হয়নি বাঁহাতি এই পেসারের। তাহলে কি তার ওপর আস্থা নেই দলের? অধিনায়ক জানালেন, তরুণ পেসারের ওপর বিশ্বাস আছে আগের মতোই।
  • প্রথম দিনেই হাল ছেড়ে দিল বাংলাদেশ!
    সংবাদ সম্মেলন জুড়ে মানসিক শক্তি বাড়ানোর কথা বললেন মুমিনুল হক। তবে তার কথায়ও মিলল ভেঙে পড়ার সুর। প্রথম ইনিংসে ভরাডুবির পর ইন্দোর টেস্টে নিজেদের প্রতিপক্ষের চেয়ে অনেক পেছনে দেখছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক।
  • তিন পেসার না খেলানোর ব্যাখ্যায় মুমিনুল
    বাড়তি ব্যাটসম্যান খেলানোর প্রবণতা থেকে বেরিয়ে আসতে পারেনি বাংলাদেশ। উইকেট পেস সহায়ক হওয়ার পরও ইন্দোরে তারা খেলছে দুই পেসার নিয়ে। মুমিনুল হক জানালেন, বাড়তি ব্যাটসম্যান খেলাতে গিয়ে একাদশে তিন পেসার নিতে পারেননি তারা।
  • ‘উইকেট আনপ্লেয়েবল ছিল না’
    বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের আসা-যাওয়ার মাঝে উইকেট পুরোপুরি ‘বোলিং সহায়ক’ বলে মনে হচ্ছিল। ব্যাটসম্যানরা যেন আউট হতে পারেন যে কোনো বলে। এতোটা আনপ্লেয়েবল কি ছিল ইন্দোরের উইকেট? জবাবে মুমিনুল হক জানালেন, উইকেট অতটা কঠিন ছিল না। তবে বিশ্বের সেরা বোলিং আক্রমণের বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে কিছু ভুল সিদ্ধান্তেই অল্পতে গুটিয়ে গেছে দল। 
  • সব দায় নিলেন মুমিনুল
    টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত কেন? উইকেট কি আনপ্লেয়েবল ছিল? এই উইকেটেও তিন পেসার খেলানোর সাহস নেই! নেতৃত্বের অভিষেকের দিন শেষে সংবাদ সম্মেলনে এমন সব প্রশ্নের তীর ছুটল মুমিনুল হকের দিকে। সতীর্থদের ব্যর্থতা আড়াল করে সব দায় নিলেন নিজের কাঁধে।
  • বাংলাদেশের ওপর জেতার ‘চাপ নেই’
    ভারত সফরে দক্ষিণ আফ্রিকা যেভাবে বিধ্বস্ত হয়েছিল তেমন কিছু না হলেই চলবে-বাংলাদেশের জন্য ব্যাপারটা যেন এমন। সাকিব আল হাসান-তামিম ইকবালবিহীন দলকে নিয়ে ভারতের বিপক্ষে নেই খুব একটা প্রত্যাশা। জিততে হবে-এমন কোনো চাপ দেখছেন না নতুন অধিনায়ক মুমিনুল হক।
  • ‘সব চ্যালেঞ্জের জন্য প্রস্তুত বাংলাদেশ’
    দেশের মাটিতে ভারতীয় স্পিনারদের রেকর্ড অসাধারণ। তবে সবশেষ সিরিজে কার্যকারিতার দিক থেকে যেন তাদের ছাড়িয়ে গেছেন পেসাররা। উইকেট বলছে বাংলাদেশের সামনে অপেক্ষা করছে উমেশ যাদব-মোহাম্মদ শামিদের আগুনে গোলা। মুমিনুল হক জানালেন, পেসারদের সঙ্গে রবিচন্দ্রন অশ্বিন-রবীন্দ্র জাদেজাদের স্পিনের জন্যও প্রস্তুত তার দল।
  • নতুন অধ্যায়ের শুরুতে রোমাঞ্চিত মুমিনুল
    দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার সুযোগ পেয়ে বেশ উপভোগ করছেন মুমিনুল হক। কোনোরকম চাপ নয়, বরং দেশকে আরও বেশি দেওয়ার তাগিদ অনুভব করছেন তিনি।
  • ‘সাকিব-তামিম নেই মানে তিন জন নেই’
    ম্যাচে একজন কম নিয়ে খেলার অনুভূতি হচ্ছে মুমিনুল হকের। সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবাল না থাকায় বাংলাদেশ অধিনায়কের মনে হচ্ছে, একসঙ্গে তিন খেলোয়াড় হারিয়েছেন তিনি।
  • টেস্টে অধিনায়ক মুমিনুল, টি-টোয়েন্টিতে মাহমুদউল্লাহ
    আইসিসির নিষেধাজ্ঞার কারণে ভারত সফরে খেলতে পারছেন না বাংলাদেশের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তার পরিবর্তে টেস্ট দলের অধিনায়কত্ব পেয়েছেন মুমিনুল হক। আর টি-টোয়েন্টি দলের নেতৃত্ব দেবেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।
  • উৎসবের আবহে শুরু হচ্ছে জাতীয় লিগ
    টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ সামনে রেখে ক্রিকেটারদের মধ্যে জাতীয় ক্রিকেট লিগ (এনসিএল) নিয়ে তুমুল আগ্রহ আগে থেকেই। আফগানিস্তানের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টে বাংলাদেশের হারের পর প্রথম শ্রেণির এই ক্রিকেটকে বাড়তি গুরুত্ব দিচ্ছে কর্তৃপক্ষও। অনেক দিন পর এবারের আসরে খেলবেন জাতীয় দলের তারকা ক্রিকেটাররা। সব মিলে উৎসবের আবহে শুরু হতে যাচ্ছে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে দেশের শীর্ষ টুর্নামেন্টের নতুন আসর।
  • মিরাজের ৭ উইকেটের পর মুমিনুলের সেঞ্চুরি
    আগের দিন শেষ বেলায় ঘুরে দাঁড়ানো বাংলাদেশ ‘এ’ দল দ্বিতীয় দিন গুঁড়িয়ে দিয়েছে শ্রীলঙ্কা ‘এ’ দলকে। ৭ উইকেট নিয়ে এতে নেতৃত্ব দিয়েছেন মেহেদী হাসান মিরাজ। ব্যাটিংয়ে সফরকারীদের টেনেছেন মুমিনুল হক। দারুণ সেঞ্চুরিতে দলকে এনে দিয়েছেন লিড।
  • বাড়তি অনুশীলন করে প্রস্তুত মুমিনুল
    স্রেফ একটা সংস্করণে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলায় মুমিনুল হকের জন্য কাজটা খুব কঠিন। প্রায়ই শুরু করতে হয় নতুন করে। টেস্ট দলে জায়গা ধরে রাখতে বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান বাড়তি অনুশীলনকে করে নিয়েছেন নিজের মন্ত্র।
  • মুমিনুলের সেঞ্চুরি, জহুরুলের ৪ রানের আক্ষেপ
    বেঙ্গালুরুতে চার দিনের ম্যাচের টুর্নামেন্টে বিসিবি একাদশের শুরুটা হয়েছে দুর্দান্ত। টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী দিনে বিদর্ভ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের বিপক্ষে দেড়শ ছাড়ানো রান করে অপরাজিত অধিনায়ক মুমিনুল হক। মাত্র চার রানের জন্য সেঞ্চুরি না পাওয়ার আক্ষেপ নিয়ে ফিরেছেন অভিজ্ঞ ওপেনার জহুরুল ইসলাম।
  • ক্যাচের বিশ্বরেকর্ড স্পর্শ করলেন মুমিনুল
    বড় রান তাড়ায় বড় ব্যবধানে হেরে গেছে দল। মুমিনুল হক নিজে ফিরেছেন ৪ রানে। তবে এই ম্যাচেও বড় এক প্রাপ্তি আছে মুমিনুলের। রান যত করেছেন, তার চেয়ে বেশি নিয়েছেন ক্যাচ। তাতে তার নাম উঠে গেছে বিশ্বরেকর্ডে।
  • রূপগঞ্জের জয়ে মুমিনুলের ৭ রানের আক্ষেপ
    দারুণ বোলিংয়ে পাঁচ উইকেট নিয়ে লক্ষ্যটা হাতের নাগালে রাখলেন রিশি ধাওয়ান। শট খেলা সহজ নয় এমন উইকেটে দলকে রান তাড়ায় পথ দেখালেন মুমিনুল হক। বিকেএসপিকে হারিয়ে লেজেন্ডস অব রূপগঞ্জের সুপার সিক্স নিশ্চিত করার ম্যাচে মিশে থাকল মাত্র ৭ রানের জন্য তার সেঞ্চুরি না পাওয়ার আক্ষেপ।
  • মুমিনুল-ইয়াসিরের সেঞ্চুরির পর নাঈমের ৮ উইকেট
    অধিনায়ক মুমিনুল হক ও মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান ইয়াসির আলীর সেঞ্চুরিতে মধ্যাঞ্চলকে বড় লক্ষ্য দিয়েছিল পূর্বাঞ্চল। এরপর ৮ উইকেট নিয়ে প্রতিপক্ষকে গুঁড়িয়ে দিয়ে দলকে তিন দিনেই দারুণ এক জয় এনে দিলেন নাঈম হাসান।
  • অল্পের জন্য হলো না মুমিনুলের ডাবল সেঞ্চুরি
    প্রথম ইনিংসে ডাবল সেঞ্চুরির আশা জাগিয়েও তার আগেই থেমেছিলেন রনি তালুকদার। দ্বিতীয় ইনিংসে ডাবল সেঞ্চুরির খুব কাছে গিয়ে থামলেন পূর্বাঞ্চলের অধিনায়ক মুমিনুল হক।
  • ১১ ধাপ এগোলেন মুমিনুল, ৬ ধাপ তাইজুল
    ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টে ভালো করার পুরস্কার র‍্যাঙ্কিংয়ে পেলেন মুমিনুল হক ও তাইজুল ইসলাম। আইসিসি টেস্ট ব্যাটসম্যানদের র‍্যাঙ্কিংয়ে ১১ ধাপ এগিয়েছেন মুমিনুল। তাইজুল উঠে এসেছেন ক্যারিয়ার সেরা অবস্থানে।
  • ঘূর্ণি বলের উৎসবে বাংলাদেশের হাসি
    সিরিজের আবহ সঙ্গীত ছিল ‘যন্ত্রণা ফিরিয়ে দেওয়ার সিরিজ’। গত জুলাইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজে গিয়ে যেভাবে নাকাল হতে হয়েছে, ঘরের মাটিতে সেই তেতো স্বাদ ফিরিয়ে দেওয়া স্পিন দিয়ে। তিন দিন পুরোবার আগেই সেই সুর বাজল মধুর হয়ে। চট্টগ্রামের ২২ গজে ক্যারিবিয়ানরা দেখল ঘূর্ণি বলের প্রলয় নাচন। সেই স্পিন মঞ্চেই বাংলাদেশ হাসল জয়ের হাসি।
  • দোষ পুরোটাই আমার: মুমিনুল
    দিনের সবচেয়ে আলোকিত পারফর্মার তিনি। কিন্তু সবচেয়ে অন্ধকার অধ্যায়ের দায়টুকও নিজের ঘাড়ে নিচ্ছেন। শেষ সেশনে বাংলাদেশের ব্যাটিং ধসের দায় নিজেকেই দিচ্ছেন মুমিনুল হক।
  • তামিমের পাশে নিজেকে দেখেন না মুমিনুল
    রেকর্ড বই বলছে, একটি রেকর্ডে তামিম ইকবালের পাশে মুমিনুল হক। আরেকটিতে তামিমের ওপরে। কিন্তু ওপরে তো নয়ই, ব্যাটসম্যান হিসেবে নিজেকে তামিমের পাশেও দেখেন না মুমিনুল। যাবতীয় তুলনায় তার আপত্তি প্রবল।
  • ‘নাঈম-তাইজুলের এই রানের কারণেই জিততে পারি’
    ২৩৫ রানে সপ্তম ব্যাটসম্যান হিসেবে সাকিব আল হাসান ফিরে যাওয়ার পর তিনশ রানের নিচে গুটিয়ে যাওয়ার শঙ্কায় ছিল বাংলাদেশ। সেখান থেকে প্রথম ইনিংসে সাড়ে তিনশ রানের আশা জাগিয়েছে তাইজুল ইসলাম ও নাঈম হাসানের লড়াকু ব্যাটিং। মুমিনুল হক মনে করেন, লোয়ার অর্ডারের এই রানগুলোই ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টে জয় এনে দিতে পারে বাংলাদেশকে।
  • মুমিনুলের সেঞ্চুরি আর শেষের স্বস্তি
    লোকে হয়তো শেষটাই মনে রাখবে। তাইজুল ইসলাম ও নাঈম হাসান যা দেখালেন, তা মনে রাখার মতোই বটে! প্রথম দিনের সবচেয়ে আলোচিত ঘটনা হতে পারত মুমিনুল হকের আরও একটি সেঞ্চুরি। কিংবা শ্যানন গ্যাব্রিয়েলের তিন ওভারের তাণ্ডব। কিন্তু তাইজুল ও নাঈমের বীরোচিত প্রতিরোধ ছাপিয়ে যাচ্ছে সবকিছুকেই। মুমিনুলের সেঞ্চুরির পর হঠাৎ এলোমেলো বাংলাদেশ গুছিয়ে উঠেছে শেষ বিকেলের উজ্জ্বল জুটিতে।
  • তামিমকে ছাড়িয়ে, তামিমের পাশে মুমিনুল
    চট্টগ্রামে যখন এসেছেন, সেঞ্চুরি তো ধরাবাঁধাই ছিল! মুমিনুল হক রক্ষা করলেন জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে পঞ্চাশ পেরুলেই সেঞ্চুরি করার ধারাবাহিকতা। দারুণ সেঞ্চুরিতে একটি রেকর্ডে ছাড়িয়ে গেলেন তামিম ইকবালকে, ছুঁলেন আরেকটিতে।
  • আবেগ ছুঁয়ে গিয়েছিল মুমিনুলকে
    এমনিতে মাঠের ভেতরে বাইরে আবেগের বশ হতে খুব বেশি দেখা যায় না মুমিনুলকে। মিরপুর টেস্টের প্রথম দিনে ফিফটির পর তো ব্যাটই তুললেন না। কিন্তু সেঞ্চুরির পর তার উপযাপন নজর কাড়ল বেশ। মুমিনুল জানালেন, আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন বলে বুঝে উঠতে পারছিলেন না কি করবেন।
  • তবু আক্ষেপে পুড়ছেন মুমিনুল
    সেঞ্চুরি করে একবার, দেড়শ ছুঁয়ে আরেকবার। এক ইনিংসে দুইবার ব্যাট উঁচিয়ে ধরতে পেরেছেন মুমিনুল হক। শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে দেশের হয়ে সবচেয়ে বড় ইনিংসের রেকর্ড গড়েছেন। বিপর্যয় থেকে উদ্ধার করে দলকে নিয়ে গেছেন নিরাপদ ঠিকানায়। ড্রেসিং রুমে ফেরার সময় পেয়েছেন মাঠের প্রায় সবার দাঁড়ানো সম্মান। এরপরও দিনশেষে আক্ষেপে পুড়ছেন মুমিনুল। দিনটি যে শেষ করতে পারেননি উইকেটে থেকে!
  • প্রথম ইনিংসে অন্তত চারশ রান চান মুমিনুল
    শুরুর কঠিন সময় পার করে দিয়ে তিনশ রানের স্বস্তিতে ঢাকা টেস্টের প্রথম দিন শেষ করেছে বাংলাদেশ। মুমিনুল হক মনে করেন, ম্যাচের যা পরিস্থিতি তাতে প্রথম ইনিংসে তাদের চারশ রান করতে না পারার কোনো কারণ নেই।
  • মুমিনুলের ক্যারিয়ারের ‘ইন্টারেস্টিং’ সেঞ্চুরি
    জিম্বাবুয়ের সঙ্গে করলেন দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে করেছেন তিনটি। নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে দুটি। সবকটি যদিও দেশের মাটিতেই, এবারের সেঞ্চুরিটি তবু একটু আলাদা মুমিনুল হকের কাছে। উইকেট ছিল চ্যালেঞ্জিং, পরিস্থিতি কঠিন। নিজের কাছে মুমিনুলের এই সেঞ্চুরি বেশ ‘ইন্টারেস্টিং’।
  • ‘আমার সেঞ্চুরির অর্ধেক কৃতিত্ব মুশফিক ভাইয়ের’
    ক্রিজে আসার পর মুমিনুল হককে মুশফিকুর রহিমের প্রথম কথা ছিল, ‘বেঁচে থাক, এই উইকেটে এমন কঠিন সময়ে বেঁচে থাকাটাই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।’ সতীর্থের কথায় স্থির হয় বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের অস্থির চিন্তা। গড়ে তুলেন বড় জুটি, তুলে নেন সেঞ্চুরি। মুমিনুল মনে করেন, তার এই ইনিংসের অর্ধেক কৃতিত্ব মুশফিকের।
  • মুমিনুল-মুশফিকের রেকর্ড জুটিতে বাংলাদেশের দিন
    কুয়াশামাখা সকাল নিয়ে এসেছিল বিপদের বার্তা। উইকেটে ছিল আর্দ্রতা, জিম্বাবুয়ের পেসারদের বোলিংয়ে থাকল ঝাঁঝ, বাংলাদেশের টপ অর্ডার ব্যর্থ আবার। বাতাসে ভাসছিল শঙ্কার রেণু। কিন্তু সময়ের সঙ্গে দিনটি হয়ে উঠল রৌদ্রোজ্জ্বল, মুমিনুল হক ও মুশফিকুর রহিমের ব্যাটিং দীপ্তিতে দলের ইনিংসও হয়ে উঠল ঝলমলে। বারবার দুইশর নিচে গুটিয়ে যাওয়া দলের এক জুটিতেই এল দুইশর বেশি। অনেক দিন পর টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশ পেল আনন্দময় দিন।
  • সেঞ্চুরিতে মুমিনুলের ফেরা
    শন উইলিয়ামসকে কাট করে বাউন্ডারি, মুমিনুল হক ছুঁলেন ফিফটি। আরেক প্রান্ত থেকে ব্যাট তুলে তালি দিয়ে উৎসাহ জোগালেন মুশফিকুর রহিম। মুমিনুলের ভাবান্তর নেই। গত কিছুদিনের যা অবস্থা, তাতে ফিফটিও উল্লেখযোগ্য মাইলফলক। কিন্তু একটু ব্যাট তোলা বা ন্যূনতম উদযাপনও দেখা গেল না। মুমিনুলের দৃষ্টি ছিল বড় কিছুতে। সেই লক্ষ্য পূরণ করে তবেই করলেন উদযাপন। সেঞ্চুরি!
  • টেস্টের আগে মুমিনুলের সেঞ্চুরি
    কখনও ফিরছিলেন শূন্য রানে, কখনও থিতু হয়েও খেলতে পারছিলেন না বড় ইনিংস। জিম্বাবুয়ের বিপেক্ষ টেস্ট সিরিজের আগে অবশেষে নিজের ইনিংস বড় করতে পারলেন মুমিনুল হক। তার সেঞ্চুরিতে চট্টগ্রাম সহজেই হারিয়েছে ঢাকাকে।
  • মুমিনুলের ব্যাটে জয়ের আশায় চট্টগ্রাম
    ব্যাটিং ব্যর্থতায় দ্বিতীয় ইনিংসেও গুঁড়িয়ে গেল ঢাকা। বারবার রঙ পাল্টানো ম্যাচে বাজে শুরুর পর মুমিনুল হক ও তাসামুল হকের দারুণ ব্যাটিংয়ে জয়ের আশা জাগিয়েছে চট্টগ্রাম।
  • ‘মুমিনুলের দুর্ভাগ্য, তবে ক্যারিয়ার শেষ হয়ে যায়নি’
    সাড়ে তিন বছর পর ওয়ানডেতে সুযোগ। কিন্তু দুটি ম্যাচ খেলিয়েই বাদ। সুযোগটা কি পর্যাপ্ত ছিল? ওয়ানডে দল থেকে মুমিনুল হকের বাদ পড়া নিয়ে এই প্রশ্নের সঙ্গে একমত হাবিবুল বাশার। জাতীয় দলের অন্যতম এই নির্বাচক ব্যাখ্যা করলেন বাস্তবতা, মুমিনুলের প্রতি জানালেন সহানুভূতি।
  • অভিষেকের অপেক্ষায় শান্ত-আবু হায়দার, খেলবেন মুমিনুলও
    ছিটকে যাওয়া তামিম ইকবালের জায়গায় একটি বদল তো নিশ্চিতই। ওয়ানডে অভিষেক হচ্ছে নাজমুল হোসেন শান্তর। পাঁজরের ব্যথা নিয়ে প্রথম ম্যাচ খেলা মুশফিকুর রহিমকেও গুরুত্বহীন ম্যাচে খেলানোর ঝুঁকি নিতে চায় না দল। পিঠেপিঠি ম্যাচের ধকলের ভাবনায় বিশ্রাম পাচ্ছেন মুস্তাফিজুর রহমানও। আফগানিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশ একাদশে তাই পরিবর্তন আসছে তিনটি।
  • সম্ভাবনার দুয়ারে মুমিনুল-শান্ত
    দুজন দুই প্রজন্মের। দুজনের ক্যারিয়ারের গল্পটাও দুই রকমের। তবে একটা জায়গায় দুজনই এখন দাঁড়িয়ে একই দুয়ারে। মুমিনুল হক ও নাজমুল হোসেন শান্ত পা ফেলতে যাচ্ছেন নতুন চ্যালেঞ্জের পথে। রঙিন পোশাকে তাদের আলোর ঝলকানি দেখতে আগ্রহ ভরে তাকিয়ে বাংলাদেশ কোচ স্টিভ রোডস।
  • এশিয়া কাপের দলে মুমিনুল
    দল নির্বাচনের আলোচনায় বেশ জোর দিয়েই বিবেচনায় ছিল তার নাম। তবে সুযোগ পাননি তখন। শেষ পর্যন্ত অবশ্য মুমিনুল হককে নিয়েই এশিয়া কাপে যাচ্ছে বাংলাদেশ দল। স্কোয়াডে যোগ করা হয়েছে এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যানকে। মুমিনুলকে নিয়ে বাংলাদেশ দল এখন ১৬ জনের।
  • মুমিনুলের রেকর্ডময় ইনিংসে এগিয়ে গেল বাংলাদেশ ‘এ’
    অনেক দিন থেকেই তার নামের পাশে টেস্ট বিশেষজ্ঞের তকমা। তবে ‘এ’ দলের হয়ে বিধ্বংসী এক ইনিংস খেলে রঙিন পোশাকের বাংলাদেশ দলে ফিরতে মুমিনুল হক নির্বাচকদের দিয়ে রাখলেন বার্তা। অধিনায়কের রেকর্ডময় ইনিংসে দল জিতেছে রেকর্ড স্কোর গড়ে।
  • মুমিনুলের রেকর্ড গড়া ১৮২
    আয়ারল্যান্ড সফর তার জন্য ওয়ানডে দলে ফেরার দাবি জানানোর সুযোগ। প্রথম দুই ইনিংসে থিতু হয়েও বড় ইনিংস খেলতে পারেননি। কিন্তু এক ইনিংসেই যেন পুষিয়ে দিলেন মুমিনুল হক। খেললেন রেকর্ড গড়া বিধ্বংসী এক ইনিংস।
  • সীমিত ওভারের ক্রিকেটে নির্বাচকদের ভাবনায় মুমিনুল
    চার বছরের বেশি সময় ধরে টি-টোয়েন্টি দলে নেই মুমিনুল হক। তিন বছরের বেশি সময় ধরে দেশের হয়ে খেলেন না ওয়ানডে। তবে বাঁহাতি ব্যাটসম্যান এখনও সীমিত ওভারের ক্রিকেটে নির্বাচকদের ভাবনায় আছেন। আয়ারল্যান্ড সফরে মুমিনুলের ওপর নজর থাকবে মিনহাজুল আবেদীন, হাবিবুল বাশারের।
  • বাংলাদেশ ‘এ’ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মুমিনুল
    বাংলাদেশের ওয়ানডে দলে মুমিনুল হকের না থাকা গত ৩ বছর ধরেই দেশের ক্রিকেটে অন্যতম আলোচিত এক প্রসঙ্গ। রঙিন পোশাকে ফেরার দাবিটা এবার সরাসরি জানানোর সুযোগ পাচ্ছেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। আয়ারল্যান্ড সফরের বাংলাদেশ ‘এ’ দলে রাখা হয়েছে মুমিনুলকে। আনঅফিসিয়াল ওয়ানডে সিরিজে দলকে নেতৃত্বও দেবেন তিনি।
  • এমন তো নয় আমরা জীবনে বাউন্সি উইকেটে খেলিনি: মুমিনুল
    শ্যানন গ্যাব্রিয়েলের আগুন ঝরানো বোলিং। কেমার রোচ, জেসন হোল্ডার, মিগুয়েল কামিন্সরাও কম যান না। উইকেটে বেশ প্রাণের ছোঁয়া। ব্যাটসম্যানদের নাভিশ্বাস! শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ফাস্ট বোলারদের সাফল্য বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের জন্য একটি বার্তাও। তবে সেই বার্তায় শঙ্কার সংকেত দেখছেন না মুমিনুল হক। বাউন্সি উইকেট আর শর্ট বল নিয়ে ভাবনায় কাতর নন এই ব্যাটসম্যান।
  • কিছু করার তাগিদ অনুভব করছেন মুমিনুল
    রঙিন পোশাকে ব্রাত্য তিনি অনেক দিন ধরেই। বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি দল যখন দেরাদুনে, মুমিনুল হক তখন মিরপুরে ব্যস্ত অনুশীলনে। জানেন, টেস্ট এলেই ডাক পড়বে। সামনেই ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর। মুমিনুল তাই প্রস্তুত রাখছেন নিজেকে। তাগিদ অনুভব করছেন ক্যারিবিয়ানে দারুণ কিছু করার।
  • তুষারকে ছাড়িয়ে লিটন
    প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে আরেকটি চমৎকার আসর কাটল তুষার ইমরানের। দলের শিরোপা জয়ে রেখেছেন গুরুত্বপূর্ণ অবদান। শেষ ম্যাচে ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস খেলে তাকে ছাড়িয়ে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকদের চূড়ায় উঠেছেন লিটন দাস। তাদের বাইরে বিসিএলের চলতি আসরে পাঁচশ ছাড়ানো রান করেছেন সাদমান ইসলাম, মিজানুর রহমান ও মুমিনুল হক।
  • তুষারের সাফল্যের কারণ জানেন মুমিনুল
    বিসিএলের তৃতীয় রাউন্ড শেষে রানের তালিকায় শীর্ষে ছিলেন মুমিনুল হক। ওমরাহ করার জন্য খেলেননি চতুর্থ রাউন্ড। ফিরে দেখলেন, এক রাউন্ডেই তাকে ছাড়িয়ে অনেকটা এগিয়ে গেছেন তুষার ইমরান। তাতে খুব একটা অবাক নন মুমিনুল। বড় দৈর্ঘ্যের ম্যাচে তুষার কেন এতটা সফল, সেই কারণ যে খুব ভালো করেই জানেন তিনি!
  • গাজীর নাটকীয় জয়
    ১ রানে তিন উইকেট নিয়ে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দিয়েছিল ব্রাদার্স ইউনিয়ন। কিন্তু শেষরক্ষা করতে পারেনি তারা। নবম উইকেট জুটির দৃঢ়তায় নাটকীয় জয় তুলে নিয়েছে গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স।
  • মুমিনুলের জন্য শ্রীলঙ্কার আলাদা পরিকল্পনা
    চট্টগ্রামে শ্রীলঙ্কার পেসারদের বাউন্স কিংবা স্পিনারদের ফাঁদ কিছুই কাজে আসেনি। দুই ইনিংসে সেঞ্চুরি করে ম্যাচ বাঁচানোয় বড় অবদান রাখেন মুমিনুল হক। বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যানের জন্য এবার আলাদা পরিকল্পনা করেছে অতিথিরা।
  • র‌্যাঙ্কিংয়ে ১৫ ধাপ এগোলেন মুমিনুল
    বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে কোনো টেস্টের দুই ইনিংসে সেঞ্চুরি পাওয়া মুমিনুল হক আইসিসি টেস্ট ব্যাটসম্যানদের র‌্যাঙ্কিংয়ে এগিয়েছেন ১৫ ধাপ। দুই ইনিংসের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে ছয় ধাপ এগিয়েছেন ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।
  • মুমিনুল, লিটনের প্রশংসায় করুনারত্নে
    উইকেটে বোলারদের জন্য খুব একটা সহায়তা ছিল না বলে শ্রীলঙ্কা অপেক্ষা করেছিল মুমিনুল হক ও লিটন দাসের ভুলের জন্য। অতিথি ওপেনার দিমুথ করুনারত্নে মনে করছেন, প্রথম সেশনে দুই ব্যাটসম্যান কোনো ভুল না করায় চট্টগ্রাম টেস্টে জেতা হয়নি তাদের।
  • শঙ্কার ‘ভাইরাস’ সরিয়ে বিশ্বাসের জয়
    ভয় ছিল প্রবল। সামর্থ্য নিয়ে ছিল সংশয়। শঙ্কার মেঘ জমা করেছিল ইতিহাসও। তবে শেষ দিনে বাংলাদেশ দল দাঁড় করাল বিশ্বাসের দুর্ভেদ্য দেয়াল, যে দেয়ালে চিড় ধরাতে পারেনি কোনো কিছুই। মুমিনুল হকের মতে, বিশ্বাসের মন্ত্রেই বাংলাদেশ দূরে ঠেলেছে নেতিবাচকতার ভাইরাস। একই সুর মাহমুদউল্লাহর কণ্ঠেও।
  • দুঃসময় মুমিনুলকে শিখিয়েছে এগিয়ে চলার মন্ত্র
    জোড়া সেঞ্চুরির ইতিহাস, ম্যাচ বাঁচানো ইনিংস। সত্যিই দেখিয়ে দেওয়ার কিছু থাকলে এর চেয়ে ভালো জবাব আর হয় না। তবে মুমিনুল হক সেই আলোচনার পালে হাওয়া যোগাতে রাজি নন। বরং বললেন, বাজে সময়টাই তাকে পরিণত করেছে অনেক। শিখেছেন অনেক কিছু।
  • দ্বিতীয় ইনিংসের সেঞ্চুরিকে এগিয়ে রাখছেন মুমিনুল
    বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে টেস্টে দুই ইনিংসে পাওয়া সেঞ্চুরির কোনটিকে এগিয়ে রাখবেন মুমিনুল হক? নিজেদের সামর্থ্যের প্রমাণ দেওয়া ঝকঝকে ১৭৬ নাকি দ্বিতীয় ইনিংসের ১০৫? বাঁহাতি ব্যাটসম্যান বেছে নিয়েছেন চট্টগ্রাম টেস্ট ড্রয়ে বড় অবদান রাখা দ্বিতীয় সেঞ্চুরিকে।
  • চাপে সাফল্যের কৌশল জানালেন মুমিনুল
    টেস্টে দলের দ্বিতীয় ইনিংসে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় ভরসা হয়ে উঠেছেন মুমিনুল হক। ছয় টেস্ট সেঞ্চুরির চারটিই তিনি করেছেন দলের দ্বিতীয় ইনিংসে। বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান জানিয়েছেন, চাপের মধ্যেই বের হয়ে আসে তার সেরাটা।
  • ‘মুমিনুল মানুষ ছোট, কাজ করে বড়’
    সংবাদ সম্মেলনের মঞ্চে উঠে মাহমুদউল্লাহ ডাকলেন পেছনেই থাকা মুমিনুল হককে, “মিনি আয়, বস এখানে।” নামটা দিয়েছিলেন সাবেক কোচ চন্দিকা হাথুরুসিংহে। মুমিনুলকে এখন এই নামে ডাকেন সতীর্থরাও। তার উচ্চতা ও শারীরিক গড়নের কারণেই এই নাম। তবে দেখতে ছোটখাট হলেও মুমিনুল যে কর্মে বিশাল, সেটিও মনে করিয়ে দিলেন মাহমুদউল্লাহ।
  • মুমিনুল-লিটনের বীরত্বে ম্যাচ বাঁচাল বাংলাদেশ
    পরিস্থিতি ছিল প্রতিকূল, সঙ্গী সেখানে শঙ্কা। পেছনে অনেকবার ব্যর্থতার ইতিহাস। সামনে পরাজয়ের চোখ রাঙানি। সেই বিরুদ্ধ স্রোতেই তরী বেয়ে দলকে কাঙ্ক্ষিত ঠিকানায় নিয়ে গেলেন মুমিনুল হক। নিজে গড়লেন ইতিহাস, বাঁচালেন ম্যাচ।
  • জোড়া সেঞ্চুরিতে মুমিনুলের ইতিহাস
    লাকশান সান্দাকানের বলে কাভার-পয়েন্টে ঠেলে একটি রান। তিন অঙ্ক স্পর্শ। আরেকটি মাইলফলক, আবারও ব্যাট-হেলমেট উঁচিয়ে উদযাপন। সঙ্গে একটি অনির্বচনীয় স্বাদ! রেকর্ড বইয়ের এমন এক পাতায় লেখা হলো মুমিনুল হকের নাম, যেখানে আগে ছিল না বাংলাদেশের কেউ।
  • মুমিনুলের তৃপ্তি, মুমিনুলের অতৃপ্তি
    ১৩ টেস্ট পর আবার সেঞ্চুরির দেখা পেয়ে ভীষণ খুশি মুমিনুল হক। এই প্রাপ্তির মধ্যে বুকে অস্বস্তির কাঁটা হয়ে বিঁধছে একটি ব্যর্থতা। দ্বিতীয় দিনের প্রথম সেশনে যে টিকতে পারেননি।
  • ‘উইকেটে স্পিন ধরেছে, কাল আরও বেশি টার্ন করবে’
    দ্বিতীয় দিন শেষ বেলায় বাংলাদেশের স্পিনাররা খুব একটা ভোগাতে পারেননি ধনঞ্জয়া ডি সিলভা ও কুসল মেন্ডিসকে। মুমিনুল হকের বিশ্বাস, তৃতীয় দিন চিত্রটা পাল্টাবে। কারণ, স্পিন ধরেছে চট্টগ্রামের উইকেটে।
  • বলতে গেলে প্রেস কনফারেন্স শেষ হবে না: মুমিনুল
    টেকনিক্যাল দিক নিয়ে কাজ করার প্রসঙ্গে তার মুখে তালা। মানসিকভাবে উন্নতির কথা কিছু বললেন বটে। তবে সুনির্দিষ্ট করে শুনতে চাইলে আবারও বন্ধ করে দিলেন দুয়ার। নিজের উন্নতির পেছনের গল্পগুলি নিয়ে বিস্তারিত কথা বলতে চাইলেন না মুমিনুল হক।
  • উদযাপনে ‘ওরকম’ কিছু বোঝাননি মুমিনুল
    দুর্দান্ত সেঞ্চুরিতে যেমন মুগ্ধতা ছড়িয়েছেন, তেমনি আলোচনার খোরাক জুগিয়েছেন সেঞ্চুরি ছোঁয়ার পর উদযাপনেও। তবে মুমিনুল হকের দাবি, তার সেঞ্চুরি উদযাপনে কারও প্রতি কোনো জবাব ছিল না।
  • আমার আউটই ঝামেলা ছিল: মুমিনুল
    চট্টগ্রাম টেস্টে বাংলাদেশ প্রথম ইনিংসে ছয়শ পর্যন্ত যেতে না পারার জন্য নিজেকেই দুষছেন মুমিনুল হক। বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান মনে করছেন, তার আউটই চাপে ফেলে দেয় দলকে।
  • মাহমুদউল্লাহর ব্যাটে পাঁচশ ছাড়িয়ে বাংলাদেশ
    মুমিনুল হকের স্বপ্নদৌড় থমকে গেছে সাতসকালেই। মোসাদ্দেক-মিরাজরা উইকেট বিলিয়েছেন অহেতুক। একটু হলেও বোলারদের পক্ষে কথা বলতে শুরু করেছে উইকেট। প্রতিকূল এই স্রোতেও শক্ত হাতে হাল ধরলেন মাহমুদউল্লাহ। নেতৃত্বের অভিষেকে দারুণ এক অপরাজিত ইনিংসে টানলেন দলকে। নিয়ে গেলেন পাঁচশর কাঙ্ক্ষিত ঠিকানায়।
  • গুরুর ছোঁয়ায় শাণিত মুমিনুল
    বিপিএল শেষে যখন ছুটি কাটাচ্ছিলেন ক্রিকেটারদের অনেকে, মুমিনুল হক চলে গিয়েছিলেন বিকেএসপিতে। ভাবনায় ছিল সামনের টেস্ট সিরিজ। মনে অস্বস্তির কাঁটা স্পিনে ভোগান্তি। ক্রিকেটে যে কোনো সমস্যায় সবার আগে তার মনে পড়ে ‘মেন্টর’ মোহাম্মদ সালাউদ্দিনের কথা। বিকেএসপিতে গিয়ে কোচের সঙ্গে কাজ করলেন ‘ফুটওয়ার্ক’ নিয়ে। উন্নতির ছাপ দেখালেন বিসিএলে। বাড়ল আত্মবিশ্বাস। সেটির প্রতিফলনই পড়ল শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম দিনে।
  • ‘যা প্রমাণ করার ছিল, মুমিনুল করেছে’
    সেঞ্চুরির পর মুমিনুল হকের অমন খ্যাপাটে উদযাপনের কারণ বুঝতে একটুও অসুবিধা হয়নি তামিম ইকবালের। তবে বাঁহাতি ওপেনার উদযাপনের পেছনের প্রেক্ষাপট সবার সামনে আনেননি। তবে কাকে লক্ষ্য করে অমন উদযাপন তার ইঙ্গিত মিলেছে তামিমের কথায়।
  • মুমিনুলের দিন, বাংলাদেশের দিন
    রানের ফোয়ারা ছুটছে। মাইলফলক আর রেকর্ড ধরা দিচ্ছে। দিনটি হয়ে উঠছে স্বপ্নময়। হঠাৎই শেষ বেলায় একটু বিষাদের ছোবল। জোড়া ধাক্কার অস্বস্তি। তবে আলোর ঝিলিক তাতে খুব একটা ম্লান হয়নি। দিন শেষেও যে জ্বলজ্বল করছে মুমিনুল হকের ব্যাট!
  • ২ হাজারে দ্রুততম মুমিনুল
    মাইলফলকটি খানিকটা দূরেই ছিল। প্রয়োজন ছিল ১৬০ রান। অসাধারণ ব্যাটিংয়ে সিরিজের প্রথম দিনেই কাঙ্ক্ষিত সেই ঠিকানায় পৌঁছে গেলেন মুমিনুল হক। রেকর্ড গড়ে ছুঁলেন ২ হাজার টেস্ট রান।
  • সেঞ্চুরিতে চেনা মুমিনুল, উদযাপনে অচেনা
    সেঞ্চুরির সঙ্গে তার সখ্য পুরোনো। এই মাঠের সঙ্গে সম্পর্কও। গত কিছুদিনে দুটি সম্পর্কেই মরচে পড়েছিল খানিকটা। এবার সেসব ঝালাই করলেন মুমিনুল হক। দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে কাটালেন সেঞ্চুরি খরা। জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামকে আবারও প্রমাণ করলে পয়মন্ত। এ পর্যন্ত ছিলেন চেনা রূপেই। তবে চমকে দিলেন উদযাপনে। ফুটে উঠল যেন অন্য মুমিনুল!
  • শেষ দিনে মুমিনুলের সেঞ্চুরি
    প্রথম ইনিংসে শূন্য রানে ফেরা মুমিনুল হক দ্বিতীয় ইনিংসে করেছেন সেঞ্চুরি। অধিনায়কের দৃঢ়তায় উত্তরাঞ্চলের সঙ্গে ম্যাচ ড্র করেছে পূর্বাঞ্চল।
  • ৪৯৯ উইকেট নিয়ে অপেক্ষায় রাজ্জাক
    নিশ্চিত ড্রয়ের পথে এগিয়ে যেতে থাকা ম্যাচে শেষ বিকেলে হঠাৎই উত্তেজনা। দ্রুত ৩ উইকেট নিয়ে নিলেন আব্দুর রাজ্জাক। তাতে ম্যাচে ফলের সম্ভাবনা জাগেনি। তবে জাগে দারুণ এক মাইলফলকের সম্ভাবনা। আরেকটি উইকেট নিলেই ক্যারিয়ারের ৫০০ উইকেট হয়ে যেত। কিন্তু শেষ পর্যন্ত এদিন আর হলো না।
  • মুমিনুলের ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস
    ডাবল সেঞ্চুরির কাঙ্ক্ষিত ঠিকানায় পৌঁছলেন। নিজের আগের সেরা ছাড়িয়ে পেরিয়ে গেলেন আড়াইশ রানও। তবে তিনশর কাছে আর যেতে পারেননি মুমিনুল হক। আউট হয়েছেন ক্যারিয়ার সেরা ২৫৮ রানে।
  • মুমিনুলের ডাবল সেঞ্চুরি
    ডাবল সেঞ্চুরির হাতছানিতে শুরু হয়েছিল দিন। কাঙ্ক্ষিত সেই মাইলফলকে পৌঁছেও গেছেন মুমিনুল হক। বিসিএলে পূর্বাঞ্চলের হয়ে করেছেন ডাবল সেঞ্চুরি।
  • মুমিনুলের সামনে ডাবল সেঞ্চুরির হাতছানি
    দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে ছিলেন ওয়ানডে দলে। কিন্তু কোনো ম্যাচ খেলার সুযোগ না পেলেও বাদ পড়েছেন ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্টের বাংলাদেশ দল থেকে। সেই খেদ থেকেই কিনা, বড় দৈর্ঘ্যের ম্যাচেও মুমিনুল হক ব্যাট করলেন ওয়ানডের গতিতে। বিসিএলের নতুন আসরের প্রথম দিন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান রাঙালেন বড় সেঞ্চুরিতে।
  • অনেক পরিবর্তন বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি দলে
    নেই কেবল মাশরাফি বিন মুর্তজা। এছাড়া ওয়ানডে স্কোয়াডের ওপরই টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য আস্থা রেখেছেন নির্বাচকরা। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে দুই ম্যাচের সিরিজের জন্য দলে ফিরেছেন মুমিনুল হক, লিটন দাস, নাসির হোসেন, রুবেল হোসেন ও শফিউল ইসলাম।
  • দল ঘোষণার পর ঢুকলেন মুমিনুল
    ওয়ানডে দল ঘোষণায় বরাবরের মতোই উপেক্ষিত ছিলেন মুমিনুল হক। তাকে ছাড়াই দেওয়া হয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তিন ম্যাচ সিরিজের ওয়ানডে দল। কয়েক ঘণ্টা পর বিসিবি জানায়, ওয়ানডে দলে যুক্ত হয়েছেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান।
  • সাড়ে চারশ রান সম্ভব ছিল: মুমিনুল
    দুটি ফিফটি, চারটি পঞ্চাশ ছোঁয়া জুটি- এরপরও রান ৩২০। প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের সংগ্রহ একটু কমই মনে হচ্ছে মুমিনুল হকের। ফিফটি পাওয়া বাঁহাতি ব্যাটসম্যান মনে করছেন, সাড়ে চারশ পর্যন্ত যাওয়া সম্ভব ছিল।
  • ম্যাচ বাঁচানোর আশায় মুমিনুল
    তৃতীয় দিন শেষেও সেনওয়েস পার্কের উইকেট ব্যাটিং সহায়ক। এখনও বোলারদের জন্য তেমন কিছু নেই। প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ রান করা মুমিনুল হক মনে করছেন, উইকেটের খুব একটা না পরিবর্তন না হলে ম্যাচ বাঁচানো সম্ভব।
  • শর্ট বলে সতীর্থদের দুর্বলতা দেখেন না মুমিনুল
    শর্ট বলের চ্যালেঞ্জ নিয়ে দুর্ভাবনার কিছু দেখছেন না মুমিনুল হক। তার অগাধ আস্থা সতীর্থদের সামর্থ্যে। দক্ষিণ আফ্রিকার পেসারদের শর্ট বল সামলাতে আত্মবিশ্বাসী অর্ধশতক পাওয়া বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান।   
  • মুমিনুল, মুশফিক, সাব্বিরের ফিফটি
    দক্ষিণ আফ্রিকার কন্ডিশনের প্রথম পরীক্ষায় ফিফটি করেছেন মুমিনুল হক, মুশফিকুর রহিম ও সাব্বির রহমান। থিতু হয়ে আউট হয়েছেন ছন্দে ফেরার লড়াইয়ে থাকা সৌম্য সরকার ও সাব্বির রহমান। পুরোপুরি ব্যর্থ মাহমুদউল্লাহ ও লিটন দাস।
  • মুমিনুলকে আটে নামানোর সিদ্ধান্ত ‘ট্যাকটিক্যাল’
    চারে নামলেন নাসির হোসেন। খানিকটা বিস্ময়কর। পাঁচে সাকিব আল হাসান, ছয়ে মুশফিকুর রহিম। মুমিনুল হক কোথায়? এমনকি সাতেও সাব্বির রহমানকে দেখে অনেকের বিস্ময় চূড়ায়। মুমিনুল কেন আট নম্বরে! ব্যাটিংয়ে হতাশার দিনে সবচেয়ে বড় প্রশ্নটির উত্তর দিলেন মুশফিকুর রহিম ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে।
  • বাদ পড়ার পরদিনই ফিরলেন মুমিনুল
    প্রথমবারের মত টেস্ট দল থেকে বাদ পড়েছিলেন। তবে বাইরে থাকতে হলো না একদিনের বেশি। আবার দলে ঢুকলেন মুমিনুল হক। তাকে ফেরার পথ তৈরি করে দিয়েছে মোসাদ্দেক হোসেনের চোখের সমস্যা। চোখের কর্নিয়ার সমস্যায় ছিটকে গেছেন তরুণ এই অলরাউন্ডার।
  • প্রাপ্যটুকুও পেলেন না মুমিনুল
    সংবাদ সম্মেলনে ১৯টি প্রশ্ন করা হয়েছে প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীনকে। ১৩টিই ছিল একজনকে নিয়ে। কোচ চন্দিকা হাথুরুসিংহের কাছে প্রশ্ন ছিল ১৩টি। ১০টি সেই একজনকে নিয়েই। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্টের দলে নেই মুমিনুল হক। কিন্তু ছিলেন দল ঘোষণার সংবাদ সম্মেলনের প্রায় পুরোটা জুড়েই!
  • বাংলাদেশ মানে কেবল মুমিনুল নয়: হাথুরুসিংহে
    সংবাদ সম্মেলনে একের পর এক প্রশ্ন মুমিনুল হককে নিয়ে। এক পর্যায়ে বেশ অধৈর্য হয়ে পড়লেন চন্দিকা হাথুরুসিংহে। সংবাদ মাধ্যম একজন-দুজন ক্রিকেটারকে নিয়ে বেশি ভাবিত অভিযোগ করে বললেন, সবাইকে মাপেন তিনি সমান পাল্লায়। মুমিনুলের ফর্ম খারাপ হওয়ার দায় অবশ্য তিনি ততটা নেননি।
  • সংবাদ সম্মেলনে মুমিনুল-ঝড়
    গত কিছুদিন ধরেই ছিল গুঞ্জন। চূড়ান্ত ঘোষণাটি এরপরও এল যেন বড় বিস্ময় হয়ে। সত্যিই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্টের স্কোয়াডে নেই মুমিনুল হক! মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে দল ঘোষণার সংবাদ সম্মেলনে ছুটে গেল প্রশ্নের পর প্রশ্ন। মুমিনুলকে নিয়ে প্রশ্নগুলোর জবাব দিলেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন।
  • প্রস্তুতি ম্যাচের দলে মাহমুদউল্লাহ-মুমিনুল
    টেস্ট দলে জায়গা হারানো মাহমুদউল্লাহ ও মুমিনুল হক ডাক পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচের দলে।
  • প্রথম টেস্টের দলে নাসির-শফিউল, বাদ মুমিনুল
    অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্টের দলে ফিরেছেন নাসির হোসেন ও শফিউল ইসলাম। প্রথমবারের মতো টেস্ট দল থেকে বাদ পড়েছেন মুমিনুল হক।
  • মুমিনুলের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ
    এক সময় তাকে ছাড়া ভাবা যেত না বাংলাদেশের টেস্ট দল। সেই মুমিনুল হক সবশেষ টেস্টে বাদ পড়লেন একাদশ থেকেই। বাংলাদেশ সেই ম্যাচ জিতেও নিল! ফেরার পথ কঠিন। আবার জায়গা পাকা করা আরও কঠিন। মুমিনুলের কাছে সেটিই এখন সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ। কণ্ঠে প্রত্যয়, জিতবেনই।
  • আশা জাগিয়েও হলো না মুমিনুলের সেঞ্চুরি
    শ্রীলঙ্কায় দ্বিতীয় টেস্টে বাদ পড়েছিলেন একাদশ থেকে। এই প্রস্তুতি ম্যাচ তাই মুমিনুল হকের জন্য ছিল একটি পরীক্ষা। সেই পরীক্ষায় ভালোভাবেই পাস করলেন মুমিনুল হক, কিন্তু ‘লেটার মার্কস’ কি পেলেন? এসব ম্যাচে সেঞ্চুরি না করলে যে দাবিটা জোরেসোরে জানানো হয় না!
  • মুমিনুলকে তাসামুলের স্যালুট!
    প্রথমটুকু স্বাভাবিকই ছিল। সেঞ্চুরি ছুঁয়েই ব্যাটসম্যান খুললেন হেলমেট, তুললেন ব্যাট। এরপরই বিস্ময়। ব্যাটসম্যান ছুটে গেলেন কাছেই মিড উইকেটে থাকা ফিল্ডারের দিকে। গ্লাভস খুলে ঠুকে দিলেন স্যালুট! জড়িয়ে ধরলেন বুকে।
  • ওয়ানডেতে কিছুটা উন্নতি করছি: মুমিনুল
    চার-ছক্কা থেকেই তো একশ রান করে ফেললেন, বলার পরও ঠিক বিশ্বাস হচ্ছিল না মুমিনুল হকের। জানতে চাইছিলেন কতগুলো চার-ছক্কা ছিল ইনিংসে? ১৬টি চার আর ৬টি ছক্কা। মুমিনুল মনে করতে পারলেন না, এর আগে কখনও কোনো ধরনের ক্রিকেটে এক ইনিংসে এত ছক্কা হাঁকিয়েছিলেন কি না।
  • বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে ক্যারিয়ার সেরা রান মুমিনুলের
    দুই বছরের বেশি সময় ধরে ওয়ানডে দলে উপেক্ষিত মুমিনুল হক খেলেছেন ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস। চোখ জুড়ানো ব্যাটিংয়ে প্রাইম দোলেশ্বরের বিপক্ষে গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্সকে এনে দিয়েছেন দারুণ এক জয়।
  • এবার নাসিরের দুর্দান্ত শতক
    প্রথম ম্যাচে বল হাতে জয়ের নায়ক ছিলেন মুমিনুল হক ও নাসির হোসেন। ইমার্জিং টিমস এশিয়া কাপের দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-২৩ দলের জয়ে এবার ব্যাট হাতে দুজন রাখলেন গুরুত্বপূর্ণ অবদান। অধিনায়ক মুমিনুল পেয়েছেন অর্ধশতক, দুর্দান্ত এক শতক করে অপরাজিত নাসির।
  • বাংলাদেশকে জেতালেন বোলার মুমিনুল-নাসির!
    দলের অধিনায়ক ও সহ-অধিনায়ক তারা দুজন। সম্ভবত এই টুর্নামেন্টের সবচেয়ে বড় দুটি নামও। জয়ের নায়ক হওয়া তাই প্রত্যাশিতই। তবে খানিকটা চমক হয়ে এল দুজনের ভূমিকা। ইমার্জিং টিমস এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচে বল হাতে দলকে জেতালেন মুমিনুল হক ও নাসির হেসেন।
  • ইমার্জিং কাপে অধিনায়ক মুমিনুল, সহ-অধিনায়ক নাসির
    প্রস্তুতি ম্যাচের দলে নাম দেখেই বোঝা গিয়েছিল, রাখা হচ্ছে মূল দলেও। শুধু দলে থাকলেনই না, পেলেন আরও বড় দায়িত্ব। ইমার্জিং টিমস এশিয়া কাপে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দেবেন মুমিনুল হক। জাতীয় দলে জায়গা হারানো অলরাউন্ডার নাসির হোসেন থাকছেন সহ-অধিনায়ক হিসেবে।
  • মুমিনুলে ধৈর্য হারিয়ে ফেললো বাংলাদেশ?
    চার বছর আগে শ্রীলঙ্কায় টেস্ট অভিষেকের পর এই সংস্করণে বাংলাদেশ দলের অবিচ্ছেদ্য অংশে পরিণত হয়েছিলেন মুমিনুল হক। সেই শ্রীলঙ্কাতে ফিরে এবার জায়গা হারিয়েছেন বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান।
  • ভালো কাটলো প্রথম দিন
    শেষ বিকালে হঠাৎ ঝড়ো হাওয়া, আকাশ ঢেকে গেল ঘন কালো মেঘে। দিনের শেষ ঘণ্টায় খেলা হওয়া নিয়ে শঙ্কা। শেষ পর্যন্ত এলো না বৃষ্টি, বাংলাদেশ ব্যাটিং করলো পুরো ৯০ ওভার।
  • সৌম্যর খোঁচা, তামিম-মুমিনুলের দৃঢ়তা
    অফ স্টাম্পের বাইরে টানা শর্ট বল করে ফাঁদ পাতলো লঙ্কান বোলাররা, পা দিলেন সৌম্য সরকার। একবার কোনোমতে বেঁচে যাওয়া বাঁহাতি এই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান ফিরলেন সেই খোঁচা মেরেই।
  • মুশফিকদের নিয়ে আশার কথা শোনালেন হ্যালসল
    মাত্রই ফিটনেস টেস্ট শেষ হল মুশফিকুর রহিম, ইমরুল কায়েস ও মুমিনুল হকের। ফল আসতে বা তাদের ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে এখনও দেরি আছে। তবে প্রাথমিক দেখায় তিন ক্রিকেটারকে নিয়ে আশার কথা শুনিয়েছেন ফিল্ডিং কোচ রিচার্ড হ্যালসল।
  • মুশফিক, ইমরুল, মুমিনুলের পরীক্ষার ফলের অপেক্ষা
    ফিটনেস পরীক্ষা দিলেন মুশফিকুর রহিম, ইমরুল কায়েস ও মুমিনুল হক। চোটের জন্য নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে ক্রাইস্টচার্চ টেস্টে খেলতে না পারা তিন ক্রিকেটারের এই পরীক্ষার ফলাফলের দিকে তাকিয়ে টিম ম্যানেজমেন্ট।
  • ‘মুস্তাফিজের মনোবিদ দরকার নেই’
    অস্ত্রোপচারের পর মাঠে ফেরা মুস্তাফিজুর রহমান লড়ছেন মনের জোর ফিরে পেতে। তবে এখানে ক্রীড়া মনোবিদের কোনো সাহায্য দরকার আছে বলে মনে করছেন না বিসিবির প্রধান ক্রীড়া চিকিৎসক ডা. দেবাশীষ চৌধুরী। তার বিশ্বাস, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে কেটে যাবে তরুণ বাঁহাতি পেসারের সমস্যা।
  • ভারত টেস্টে উইকেট নিয়ে ভাবনা নেই মুমিনুলের
    দেশের মাটিতে বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো টেস্ট খেলতে কী উইকেট বানাবে ভারত? মুশফিকুর রহিমের দলের জন্য স্পিন উইকেট হবে নাকি থাকবে ঘাসের ছোঁয়া? যেটাই হোক না কেন, সব পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত হয়েই ভারত যাবে মুমিনুল হকরা।
  • দেশের বাইরে শতক চাই মুমিনুলের
    ভারত সফরের আগে ফিট হওয়ার লড়াইয়ে থাকা মুমিনুল হক এরই মধ্যে ঠিক করেছেন আরেক লক্ষ্য। দেশের বাইরে টেস্ট শতক চাই তার।
  • ছিটকে গেলেন মুমিনুলও, স্কোয়াডে মুস্তাফিজ-শান্ত
    অনুশীলন শুরুর আগে সংবাদ সম্মেলনে তমিম ইকবাল বলেছিলেন দুটি নাম। খেলতে পারবেন না মুশফিকুর রহিম ও ইমরুল কায়েস। অনুশীলন শেষে সেখানে যোগ হলো আরও আরও একটি নাম। পাঁজরের চোটে ক্রাইস্টচার্চ টেস্টে খেলতে পারবেন না মুমিনুল হকও।
  • তামিমের চোখে মুমিনুল ‘অসাধারণ’
    তীব্র বাতাস, স্ট্যান্স নিয়ে সরে দাঁড়াতে হলো বেশ কয়েকবার। একবার তো বাতাস তাকে ক্রিজ থেকেই সরিয়ে দিল! দমকা হাওয়া খানিকটা নাড়িয়ে দিলেও নাড়াতে পারেনি কিউই পেস আক্রমণ। প্রথম দিন শেষে মুমিনুল হক টিকে আছেন বাংলাদেশের ভরসা হয়ে।
  • মুমিনুলকে ভোলেননি ওয়াগনার
    তিন বছরের বেশি সময় আগে ঢাকা টেস্টে মুমিনুল হকের বিপক্ষে খেলেছিলেন নিল ওয়াগনার। ওই ম্যাচের মতো এবারও তার দলকে ভোগাচ্ছেন বাংলাদেশের এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান।
  • গুমোট দিনে তামিম-মুমিনুলের আলো
    চারপাশে দমকা হাওয়ার শো শো শব্দ, যেন উড়িয়ে নেবে সব কিছু। ঘূর্ণিঝড় নয়, ওয়েলিংটনে এই তীব্র বাতাস নিত্য দিনের ব্যাপার! মেঘলা আকাশও স্বাভাবিক এখানে। উইকেটে সবুজের ছোঁয়া তো প্রত্যাশিতই। বাংলাদেশের ভেঙে পড়াটা তাই অস্বাভাবিক হতো না। বরং হলো উল্টো!
  • ম্যাচ বল পেলেন মুমিনুল
    ঢাকা ডায়নামাইটসের বিপক্ষে জয়ের পর ম্যাচ সেরার আনুষ্ঠানিক পুরস্কার পেয়েছেন সামিত প্যাটেল। তবে রাজশাহী কিংস সেরা পারফরমারের পুরস্কারটা দিয়েছে বাঁহাতি উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান মুমিনুল হককে।
  • ইনিংস উদ্বোধন উপভোগ করছেন মুমিনুল
    বিপিএলে ইনিংস উদ্বোধন উপভোগ করছেন মুমিনুল হক। বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান জানিয়েছেন, রান পেলে নির্ভার থেকে খেলা যায়।
  • হারানোর কিছু নেই মুমিনুলের
    টেস্ট বিশেষজ্ঞর কাছে টি-টোয়েন্টিতে ফ্র্যাঞ্চাইজির চাওয়া কি? কিছু না, আমি যা করবো তা-ই বোনাস, বলছিলেন মুমিনুল হক। এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান মনে করছেন, কোনো প্রত্যাশা না থাকায় নির্ভার হয়ে এবারের বিপিএলে খেলতে পারবেন তিনি।   
  • জাভেদ-হাবিবুল জুটির কাছে তামিম-মুমিনুল
    টেস্ট ক্যারিয়ারের শুরুটা যেমন দারুণ হয়েছে মুমিনুল হকের, তামিম ইকবালের সঙ্গে তার জুটিতেও রয়েছে অসাধারণ কিছুর ইঙ্গিত। শতরানের দিক থেকে এখনই বাংলাদেশের দ্বিতীয় সফলতম জুটি এই দুজন!
  • কোহলিকে প্রেরণা মেনে মুমিনুলের নতুন লড়াই
    চৈত্রের দুপুরের কাঠফাটা রোদ। সূর্যের তাপ আর গরম হাওয়া গায়ে বুলিয়ে দিচ্ছে যেন আগুনের হলকা। এই দাবদাহের মাঝেই মিরপুর একাডেমি মাঠের এক প্রান্তে ট্রেনারের তত্ত্বাবধানে রানিং করছিলেন তিন ক্রিকেটার। উঠতি উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান জসিমউদ্দিন, ঘরোয়া লিগের নিয়মিত পারফরমার অলরাউন্ডার তানভীর হায়দার, সঙ্গে মুমিনুল হক!