• ৭ মেডেন ও ২ রান দিয়ে নাহিদার ৪ উইকেট
    আগের দুই ম্যাচেও ছিলেন মিতব্যয়ী, তবে ধরা দেয়নি উইকেট। এবার নিজেকে আরও ভালোভাবে মেলে ধরলেন নাহিদা আক্তার। বাঁহাতি এই স্পিনার ৭ ওভার মেডেন নিয়ে স্রেফ ২ রান দিয়ে নিলেন ৪ উইকেট! পরে রান তাড়ায় পঞ্চাশ ছাড়ানো ইনিংস খেললেন ফারজানা হক পিংকি। জাতীয় দলের দুই অভিজ্ঞ ক্রিকেটারের দারুণ পারফরম্যান্সে কেরানীগঞ্জ ক্রিকেট একাডেমিকে উড়িয়ে দিল রুপালি ব্যাংক ক্রীড়া পরিষদ।
  • নাহিদার দারুণ লড়াইয়েও বাংলাদেশের সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া
    চমৎকার বোলিংয়ের পর ব‍্যাট হাতে শেষ পর্যন্ত লড়াই করলেন নাহিদা আক্তার। তবুও পেরে উঠল না বাংলাদেশ। নারী বিশ্বকাপে টানা দ্বিতীয় জয় পেতে পেতেও পাওয়া হলো না নিগার সুলতানার দলের। কম রানের রোমাঞ্চকর লড়াইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হেরে গেল বাংলাদেশ।
  • বিশ্বরেকর্ড জুটি আর নাহিদার বোলিং রেকর্ডে বাংলাদেশের জয়
    টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ৫০ রানেই নেই ৬ উইকেট! কেনিয়ার বিপক্ষে বিব্রতকর অবস্থায়ই পড়ে গিয়েছিল বাংলাদেশের মেয়েরা। সেখান থেকে দলকে উদ্ধার করে সালম খাতুন ও রিতু মনির বিশ্বরেকর্ড গড়া জুটি। পরে নাহিদা আক্তারের রেকর্ড গড়া বোলিংয়ে ভেঙে পড়ে কেনিয়ার ব্য্যাটিং। বাংলাদেশ মাঠ ছাড়ে বড় জয় নিয়েই।
  • নাহিদার ৫ উইকেটে বাংলাদেশের তিনে তিন
    নতুন বলে টানা ১০ ওভারের স্পেল। ৪টি মেডেন দিয়ে স্রেফ ২১ রানে নাহিদা আক্তার নিলেন ৫ উইকেট। তার স্পিনে আবারও একশর নিচে গুটিয়ে গেল জিম্বাবুয়ে নারী দল। আরেকটি বড় জয়ে সিরিজ শেষ করল বাংলাদেশের মেয়েরা।
  • রেকর্ড গড়া জয়ে সিরিজ বাংলাদেশের মেয়েদের
    আগের ম্যাচে পঞ্চাশের নিচে গুটিয়ে যাওয়া জিম্বাবুয়ে নারী দল এবার কিছুটা লড়াই করল বটে। তবে বাংলাদেশের বোলাররা লক্ষ্যটা রাখলেন নাগালেই। দারুণ দুই অর্ধশতকে বাকিটা সারলেন মুর্শিদা খাতুন ও ফারজানা হক। রেকর্ড গড়া জয়ে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই সিরিজ জিতে নিল বাংলাদেশ নারী দল।