বর্ণবাদ রুখতে ভারত-ইংল্যান্ড টি-টোয়েন্টিতে বিশেষ ব্যবস্থা

ইংল্যান্ড-ভারত এজবাস্টন টেস্ট চলাকালীন গ্যালারিতে বর্ণবাদী আচরণের অভিযোগ ওঠার পর নড়েচড়ে বসেছে ওয়ারউইকশায়ার কাউন্টি কর্তৃপক্ষ। বর্ণবাদী আচরণ মোকাবেলায় একাধিক নতুন ব্যবস্থা নিয়েছে তারা। দুই দলের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে এজবাস্টন জুড়ে থাকবে ‘আন্ডারকভার ফুটবল ক্রাউড-স্টাইল স্পটারস।’

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 7 July 2022, 01:55 PM
Updated : 7 July 2022, 01:58 PM

মূলত, দর্শকদের মাঝে গোপনে কাজ করবেন কিছু পর্যবেক্ষক। কোনো আপত্তিকর মন্তব্য শুনতে পেলে তারা তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য রিপোর্ট করবেন। ফুটবল ম্যাচে ব্যবহার করা হয় এটি।

এজবাস্টন টেস্টের শেষ দিন গত মঙ্গলবার এই সংস্করণে নিজেদের সর্বোচ্চ রান তাড়ার রেকর্ড গড়ে ভারতকে হারায় ইংল্যান্ড। ৩৭৮ রানের লক্ষ্য তারা ছুঁয়ে ফেলে স্রেফ ৩ উইকেট হারিয়ে। ম্যাচের চতুর্থ দিন ভারতের বেশ কজন সমর্থক গ্যালারিতে বর্ণবাদের শিকার হওয়ার কথা জানান সামাজিক মাধ্যমে।

ভারতীয় সমর্থকদের টুইটগুলো শেয়ার করে কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন ইয়র্কশায়ার কাউন্টি দলে বর্ণবাদের শিকার হওয়ার অভিযোগ জানিয়ে ও বর্ণবাদ নিয়ে লড়াই করে আলোচনায় উঠে আসা সাবেক ইংলিশ ক্রিকেটার আজিম রফিক। পরে অভিযোগ তদন্ত করে দেখার ঘোষণা দেয় ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি) এবং ওয়ারউইকশায়ার কাউন্টি কর্তৃপক্ষ।

ওয়ারউইকশায়ারের প্রধান নির্বাহী স্টুয়ার্ট কেইন বৃহস্পতিবার বিবৃতিতে বলেন, খেলা দেখার সময় দর্শকদের সব ধরনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে চান তারা।

“সাম্প্রতিক ইতিহাসে সবচেয়ে উত্তেজনাপূর্ণ টেস্ট ম্যাচগুলির একটি ছিল এটি, যা দেখেছে প্রায় ১ লাখ মানুষ। কিন্তু এরিক হলিস স্ট্যান্ডে ভারতের সমর্থকদের বেপরোয়া বর্ণবাদী আচরণের শিকার হওয়ার ব্যাপারটি আমরা আড়াল করতে পারি না।” 

“স্বল্প সংখ্যক লোকের এসব অগ্রহণযোগ্য কার্যকলাপ একটি দারুণ লড়াইয়ের উপর ছায়া ফেলেছে। এর জন্য যারা দায়ী তারা ক্রিকেট পরিবারের অংশ হওয়ার যোগ্য নয়। ভেন্যু কর্তৃপক্ষ হিসেবে তো বটেই, সাধারণ মানুষ হিসেবেও আমাদের আরও কঠোর পরিশ্রম করতে হবে। খেলা দেখার সময় সবাই যেন নিরাপদ বোধ করে, তা নিশ্চিত করার দায়িত্ব নিতে হবে।”

আগামী কিছুদিনে এজবাস্টনে বেশ ব্যস্ত সূচি রয়েছে। আগামী শনিবার ইংল্যান্ড-ভারত টি-টোয়েন্টি, পরের সপ্তাহে (একই দিনে) হবে ভাইটালিটি ব্লাস্টের দুই সেমি-ফাইনাল ও ফাইনাল, কমনওয়েলথ গেমসে মেয়েদের টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের ম্যাচও হবে এই মাঠে।

ম্যাচগুলোয় পুলিশের উপস্থিতি বাড়ানো হবে বলেও জানিয়েছে ওয়ারউইকশায়ার কাউন্টি কর্তৃপক্ষ।

ক্লাবটি জানিয়েছে, পরবর্তী ম্যাচগুলিতে সকল সমর্থককে ‘এজবাস্টন অ্যাপ’ এর মাধ্যমে বিচক্ষণতার সঙ্গে বাজে আচরণকারীদের বিরুদ্ধে রিপোর্ট করার জন্য উৎসাহিত করা হবে। ঘৃণামূলক অপরাধের জন্য কেউ দোষী সাব্যস্ত হলে তাকে কেবল এজবাস্টন থেকেই নয়, ইসিবির নিয়ন্ত্রণাধীন সকল ভেন্যু থেকে নিষিদ্ধ করা হবে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক