সেন্ট লুসিয়া কিংসের নতুন কোচ স্যামি

আনুষ্ঠানিকভাবে খেলোয়াড়ি জীবনের ইতি না টানলেও পাকাপাকিভাবে যেন কোচিংয়ে জড়িয়ে পড়লেন ড্যারেন স্যামি। পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) পর এবার ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগেও (সিপিএল) কোচ হিসেবে দেখা যাবে তাকে। সিপিএলের আগামী আসরে তার কোচিংয়ে খেলবে সেন্ট লুসিয়া কিংস।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 17 June 2022, 04:22 PM
Updated : 17 June 2022, 04:22 PM

স্যামিকে প্রধান কোচ হিসেবে নিয়োগের বিষয়টি শুক্রবার ফ্র্যাঞ্চাইজির পক্ষ থেকে নিশ্চিত করা হয়।

সেন্ট লুসিয়া কিংসে কোচ হিসেবে অ্যান্ডি ফ্লাওয়ারের স্থলাভিষিক্ত হবেন ৩৮ বছর বয়সী তারকা। জিম্বাবুয়ের কিংবদন্তি ক্রিকেটার ফ্লাওয়ার গত দুই মৌসুম দলটির দায়িত্ব সামলেছেন।

স্যামি ২০১৩ সালে সিপিএলের প্রথম আসর থেকেই সেন্ট লুসিয়া দলটির অংশ। গত আসরে তিনি অধিনায়কত্ব ছেড়ে ফ্র্যাঞ্চাইজিটির ‘টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট পরামর্শক ও ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর’ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়া ‘ব্যাকরুম স্টাফ’ হিসেবে ফ্লাওয়ারের সঙ্গেও কাজ করেন তিনি।

দীর্ঘদিনের ঠিকানায় কোচ হিসেবে নিয়োগ পেয়ে রোমাঞ্চিত স্যামি। সেন্ট লুসিয়া কিংসের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করা ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, আগে থেকেই দলটির কোচ হওয়ার স্বপ্ন ছিল তার।

“সেন্ট লুসিয়া আমার বাড়ি এবং সব সময় তাই থাকবে। খেলোয়াড়ী জীবন শেষে ফ্র্যাঞ্চাইজিটিকে নেতৃত্ব দেওয়া আমার পরিকল্পনার অংশ ছিল। এখন সেই সময়।”

“দুর্দান্ত এই ফ্র্যাঞ্চাইজির সঙ্গে নতুন অধ্যায় শুরু করতে আমার তর সইছে না। আমরা সিপিএলে প্রথম শিরোপা জয়ের চেষ্টায় আছি। এই ভূমিকায় আমার ওপর বিশ্বাস রাখায় ফ্যাঞ্চাইজি মালিকদের ধন্যবাদ।”

সিপিএলে ২০২০ সালে সবশেষ খেলেছেন স্যামি। সেবার তার নেতৃত্বে সাত বছর পর প্রথমবারের মতো ফাইনাল খেলে সেন্ট লুসিয়া। এরপর থেকে পেশাওয়ার জালমির প্রধান কোচের দায়িত্বে রয়েছেন তিনি। গত বছরের জুনে দুই বছরের জন্য ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজের (সিডব্লিউআই) স্বাধীন নন-মেম্বার পরিচালক হিসেবেও নিযুক্ত হন স্যামি।

সিপিএল শুরুর পর প্রথম সাত বছরে মাত্র একবার প্লে-অফ খেলতে পারা কিংস গত দুই আসরে খেলেছে ফাইনাল। যদিও দুই ফাইনালেই হেরেছে দলটি।

ক্রিকইনফোর খবর অনুযায়ী, গত মৌসুমের মতো এবারও সেন্ট লুসিয়া কিংসকে নেতৃত্ব দিতে পারেন ফাফ দু প্লেসি। এবারের সিপিএল মাঠে গড়াবে আগামী ৩০ অগাস্ট। ফাইনাল ৩০ সেপ্টেম্বর।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক