রোহিতের সঙ্গে কোনো দ্বন্দ্ব নেই: কোহলি

রোহিত শর্মার সঙ্গে বিরাট কোহলির দ্বন্দ্বের খবর গত কয়েক বছরে ভারতীয় গণমাধ্যমে নানা সময়ে এসেছে। সম্প্রতি টি-টোয়েন্টির নেতৃত্ব ছাড়া কোহলিকে ওয়ানডে অধিনায়ক থেকে সরিয়ে দেওয়া, তার জায়গায় রোহিতকে দুই সংস্করণের দায়িত্ব দেওয়া এবং সবশেষ আসছে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের ওয়ানডে সিরিজ থেকে কোহলির ছুটি নেওয়ার উড়ো খবরে এই দুই ক্রিকেটারের মধ্যে দ্বন্দ্বের গুঞ্জন নতুন মাত্রা পায়। তবে সবকিছু কেবলই গুজব বলে উড়িয়ে দিয়েছেন ভারতের টেস্ট অধিনায়ক।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 15 Dec 2021, 05:04 PM
Updated : 15 Dec 2021, 05:04 PM

প্রতিবারের মতো এ নিয়ে ধোঁয়াশা আরও একবার পরিষ্কার করলেন কোহলি। বললেন, তার ও রোহিতের মধ্যে কোনো সমস্যা নেই। একই প্রশ্ন শুনতে শুনতে কিছুটা বিরক্ত তিনি।

গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ দিয়ে এই সংস্করণের নেতৃত্ব ছাড়েন কোহলি। টেস্ট ও ওয়ানডের নেতৃত্বে থাকতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু গত বুধবার তাকে ৫০ ওভারের ক্রিকেটের নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেয় বিসিসিআই। বিষয়টিকে অবশ্য ‘স্বাভাবিকভাবেই’ নিয়েছেন এই ক্রিকেটার।

রঙিন পোশাকে জাতীয় দলের নেতৃত্বে পরিবর্তনের ডাক গত দুই বছরে অনেকবারই উঠেছে ভারতীয় ক্রিকেটে। সাদা বলের ক্রিকেটে রোহিতের অধিনাকত্বের সাফল্য আর কোহলির ট্রফি খরা মিলিয়ে আলোচনাটা অনেক দিন ধরেই ছিল। এবার হলোও তাই।

কিন্তু তাতে রোহিতের সঙ্গে সম্পর্কে কোনো দূরত্ব বাড়েনি বলে বুধবার সংবাদ মাধ্যমে দাবি করলেন কোহলি।

“আগেও অনেকবার বলেছি, রোহিত ও আমার মধ্যে কোনো সমস্যা নেই। সত্যি বলতে গত দুই থেকে আড়াই বছরে আমি বিষয়টি বারবার পরিষ্কার করেছি। এ বিষয়ে বলতে বলতে আমি এখন ক্লান্ত, কারণ বারবার আমাকে একই প্রশ্ন করা হচ্ছে।”

চোটের কারণে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের টেস্ট সিরিজ থেকে ছিটকে গেছেন রোহিত। এরপরই ভারতীয় গণমাধ্যমে খবর বের হয়, ওয়ানডে সিরিজ থেকে ছুটি চেয়েছেন কোহলি। যা নিয়ে বাড়তে থাকে রোহিত-কোহলির দূরত্বের গুঞ্জন। ভারতের সাবেক অধিনায়ক মোহাম্মদ আজহারউদ্দিন তো বলেই বসেন, রোহিতের সঙ্গে সম্পর্কের ফাটলের ইঙ্গিত দিচ্ছে কোহলির এই সিদ্ধান্ত।

সেই বিষয়ও বুধবার পরিষ্কার করে দেন কোহলি। বোর্ডের সঙ্গে বিশ্রাম নিয়ে কোনো কথাই হয়নি বলে জানান তিনি।

“একটা বিষয় আমি নিশ্চিত করে বলতে পারি, যতদিন ক্রিকেট খেলব, আমার কোনো কাজ বা কথা-বার্তায় দলকে হেনস্তা হতে হবে না। ভারতীয় ক্রিকেটের প্রতি এটাই আমার অঙ্গীকার।”

তিনটি করে টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি খেলতে দক্ষিণ আফ্রিকা যাচ্ছে ভারত। আগামী ২৬ ডিসেম্বর সেঞ্চুরিয়নে শুরু হবে দুই দলের প্রথম টেস্ট। পরেরটি শুরু ৩ জানুয়ারি, জোহানেসবার্গে। তৃতীয় ও শেষ টেস্ট কেপ টাউনে ১১ জানুয়ারি। ১৯ জানুয়ারি পার্লে শুরু হবে ওয়ানডে সিরিজ।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক