মেহেদির ঝড়ো ইনিংসের পর নাসুমের ছোবল

শুরুতে তাণ্ডব চালালেন মেহেদি হাসান। মাঝে দলকে টানলেন ইয়াসির আলি। শেষটায় ঝড় তুলে গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্সকে বড় সংগ্রহ এনে দিলেন আরিফুল হক। পরে দারুণ বোলিংয়ে ব্রাদার্স ইউনিয়নের বিপক্ষে দলকে জয় এনে দিলেন নাসুম আহমেদ।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 11 June 2021, 02:39 PM
Updated : 11 June 2021, 02:40 PM

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ টি-টোয়েন্টিতে শুক্রবারের ম্যাচে ডাকওয়ার্থ-লুইস-স্টার্ন পদ্ধতিতে ১৫ রানে জিতেছে মাহমুদউল্লাহর দল।

২১ বলে ৪৭ রানের বিস্ফোরক ইনিংস খেলেন অফ স্পিনিং অলরাউন্ডার মেহেদি। ৪৭ রান করতে ৩৯ বল খেলেন ইয়াসির। শেষের দিকে ২১ বলে ৩৫ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেন আরিফুল। আলাউদ্দিন বাবুর ৪ উইকেটের পরও ৬ উইকেটে ১৭৩ রানের বড় সংগ্রহ গড়ে গাজী।

ব্রাদার্সের ইনিংসের দ্বাদশ ওভারে বৃষ্টি নামলে আর খেলা সম্ভব হয়নি। সে সময় দলটির সংগ্রহ ছিল ৫ উইকেটে ৮৫ রান। ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে সে সময় ব্রাদার্সের প্রয়োজন ছিল ১০১ রান।

বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে মেহেদির ব্যাটে উড়ন্ত সূচনা পায় গাজী। ম্যাচের প্রথম ওভারেই আব্দুল গাফফারকে একটি করে চার-ছক্কা মারেন মেহেদি। পরের ওভারে তিন চার হাঁকান সাকলাইন সজিবকে। আভাস দিয়েই থেমে যায় সৌম্য সরকারের ঝড়।

নিজের মতো আগ্রাসী ব্যাটিং করে যান মেহেদি। অল্পের জন্য পাননি ফিফটি। ২১ বলে ৩ ছক্কা ও ৬ চারে ৪৭ রান করে ফেরেন আলাউদ্দিনের বলে। পরের বলেই এই পেসার ফিরিয়ে দেন মাহমুদউল্লাহকে। গোল্ডেন ডাকের স্বাদ পান গাজী গ্রুপ অধিনায়ক।

কিছুক্ষণ টিকে থাকলেও রানের চাকায় দম দিতে পারেননি মুমিনুল হক। ২৭ বলে বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান করেন ২৫ রান। ইয়াসিরও শুরুতে খেলছিলেন রয়েসয়ে। পরে বাড়ান রানের গতি। দুই ছক্কা ও তিন চারে ৩৯ বলে করেন ৪৭ রান।

ইনিংসের শেষ দুই বলে ছক্কা হাঁকিয়ে দলের রান ১৭০ পার করেন আরিফুল। ২১ বলে তিন চার ও দুই ছক্কায় তিনি করেন ৩৫ রান।

রান তাড়ায় শুরুটা ভালো হয়নি ব্রাদার্সের। তৃতীয় ওভারে জুনায়েদ সিদ্দিককে ফিরিয়ে দেন মেহেদি। বেশিক্ষণ টিকেননি আরেক ওপেনার মিজানুর রহমান।

দ্রুত রান তোলার চেষ্টায় থাকা পরের তিন ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়ে দেন নাসুম। এরপরই বৃষ্টির বাগড়ায় শেষ হয়ে যায় ম্যাচ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স: ২০ ওভারে ১৭৩/৬ (মেহেদি ৪৭, সৌম্য ১৫, মুমিনুল ২৫, মাহমুদউল্লাহ ০, ইয়াসির ৪৭, আরিফুল ৩৫*, আকবর ২, জাকির ০*; গাফফার ৪-০-৩২-০, সজিব ৪-০-২৭-০, সুজন ৪-০-৫৫-০, আলাউদ্দিন ৪-০-২৫-৪, রাহাতুল ২-০-৭-১, নাঈম জুনি. ২-০-২৬-০)।

ব্রাদার্স ইউনিয়ন: (১১.২ ওভারে লক্ষ্য ১০১) ১১.২ ওভারে ৮৫/৫ (মিজানুর ১০, জুনায়েদ ৫, সুজন ২৬, নুরুজ্জামান ২২, মাইশুকুর ১৮, রাহাতুল ২*, আলাউদ্দিন ১*; মেহেদি ২-০-১৫-১, মাহমুদউল্লাহ ২-০-১৫-০, মহিউদ্দিন ২-০-১৭-১, মুকিদুল ১.২-০-১০-০, নাসুম ৩-০-১৬-৩, মুমিনুল ১-০-১২-০)।

ফল: ডাকওয়ার্থ-লুইস-স্টার্ন পদ্ধতিতে ১৫ রানে জয়ী গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স।

ম্যান অব দা ম্যাচ: মেহেদি হাসান।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক