মিরাজ-ফরহাদের ব্যাটে খেলাঘরের জয়

টিপটিপ বৃষ্টি ঝরছে তখন। সময়ের ডাক যেন শুনতে পেলেন ফরহাদ হোসেন। সুজন হাওলাদারের অফ স্টাম্পের বাইরের বল ফ্লিক করে ওড়ালেন ছক্কায়। সময়ের পরিক্রমায় সেটিই হয়ে গেল ম্যাচের ভাগ্য নির্ধারক। ওই শটের পরই বৃষ্টির বেগ বেড়ে বন্ধ হলো খেলা। ফরহাদের দল ম্যাচটি জিতে গেল ৫ রানে!

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 June 2021, 01:37 PM
Updated : 10 June 2021, 01:37 PM

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ টি-টোয়েন্টির বৃষ্টি-বিঘ্নিত ম্যাচে ডাকওয়ার্থ-লুইস-​স্টার্ন পদ্ধতিতে ব্রাদার্স ইউনিয়নকে ৫ রানে হারাল খেলাঘর সমাজ কল্যাণ সমিতি।

বিকেএসপিতে বৃহস্পতিবার মাঝারি রান তাড়ায় খেলাঘর প্রথম পাঁচ বলের মধ্যে হারায় দুই ওপেনারকে। সেখানে ভরসা জোগায় মেহেদী হাসান মিরাজের ব্যাট। কার্যকর জুটিতে তাকে সঙ্গ দেন ফরহাদ। দলের জয় নিশ্চিতও করে দেয় তার শটই।

২০ ওভারে ব্রাদার্স করে ৫ উইকেটে ১৩৪ রান। শুরু থেকে প্রায় শেষ পর্যন্ত খেলে ৬১ বলে ৬৬ রান করেন অধিনায়ক মিজানুর রহমান। দলটির আর কেউ ছুঁতে পারেননি ২৫।

খেলাঘর ১৬.২ ওভারে ৩ উইকেটে ১০৯ রান তোলার পর বৃষ্টি নামলে আর খেলা শুরু করা যায়নি।

৪০ বলে ৪০ রানে মিরাজ ও ২৯ বলে ৩৬ রানে অপরাজিত থাকেন ফরহাদ।

টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ব্রাদার্সের শুরুটা মন্দ ছিল না। উদ্বোধনী জুটিতে মিজানুর ও জুনায়েদ সিদ্দিক যোগ করেন ৪৯ রান। এরপর ৮ রানের মধ্যে ৩ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে দলটি।

১৯ বলে ১৯ রান করা জুনায়েদকে ফিরিয়ে শুরুর জুটি ভাঙেন লেগ স্পিনার রিশাদ হোসেন। তিনে নেমে প্রথম বলে রান আউটে কাটান পড়েন মাইশুকুর রহমান। নিজের পরের ওভারে আব্দুল কাইয়ুমকে ফিরিয়ে রিশাদ ধরেন দ্বিতীয় শিকার।

দল হারলেও ৬৬ রান করে ম্যাচের সেরা ব্রাদার্সের মিজানুর রহমান।

এরপর দলের রান একশ ছাড়ায় মিজানুর ও রাহাতুল ফেরদৌসের ৪৯ রানের জুটিতে। আগের ম্যাচে ফিফটি করা রাহাতুল এবার ২৫ বলে ২ ছক্কায় করেন ২৪ রান।

উইকেট বেশ অক্ষত থাকলেও শেষ দিকে প্রত্যাশিত ঝড় তুলতে পারেননি ব্রাদার্সের কেউ। ইনিংসের শেষের আগের বলে আউট হওয়া মিজানুরের ৬৬ রানের ইনিংস গড়া ৪টি চার ও ২ ছক্কায়। ৭ বলে একটি করে চার-ছক্কায় ১৪ রানে অপরাজিত থাকেন আলাউদ্দিন বাবু।

রিশাদ ও সৈয়দ খালেদ আহমেদ নেন ২টি করে উইকেট। তবে রিশাদ ৩ ওভারে যেখানে রান দেন ১৪, খালেদ ৪ ওভারে ৩৭। উইকেট না পেলেও আঁটসাঁট বোলিং করেন মিরাজ।

মাঝারি লক্ষ্য তাড়ায় সাকলাইন সজিবের প্রথম বলে বাউন্ডারিতে শুরু করেন ইমতিয়াজ হোসেন। তৃতীয় বলে বোল্ড হয়ে গোল্ডেন ডাকের তেতো স্বাদ পান আরেক ওপেনার রাফসান আল মাহমুদ।

পঞ্চম বলে মিরাজ লেগ সাইডে খেলে চেষ্টা করেন দ্রুত সিঙ্গেল নেওয়ার। কিন্তু রান আউট হয়ে যান ইমতিয়াজ। ৫ রানে দল হারায় ২ উইকেট।

শুরুর ধাক্কা সামাল দেয় খেলাঘর মিরাজ ও জহুরুলের ৫৮ রানের জুটিতে। ২৬ বলে ২ চার ও এক ছক্কায় ২৬ রান করে ফেরেন অধিনায়ক জহুরুল।

এরপর মিরাজ আর ফরহাদ এগিয়ে নেন দলকে। রান রেটের চাপ ছিল না, তাই খুব ঝুঁকির পথে হাঁটতে হয়নি দুজনকে। মিরাজের ৪০ রানের ইনিংসে ছিল ২টি করে চার ও ছক্কা। ৩ চার ও ২ ছক্কায় ৩৬ রানের ইনিংসটি সাজান ফরহাদ।

ষষ্ঠ ম্যাচে খেলাঘরের এটি তৃতীয় জয়। সমান ম্যাচে ব্রাদার্সের দ্বিতীয় হার।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

ব্রাদার্স ইউনিয়ন: ২০ ওভারে ১৩৪/৫ (মিজানুর ৬৬, জুনায়েদ ১৯, মাইশুকুর ০, কাইয়ুম ৩, রাহাতুল ২৪, আলাউদ্দিন ১৪*, সুজন ০*; টিপু ৪-০-২৩-০, মিরাজ ৪-০-২৪-০, খালেদ ৪-০-৩৭-২, ইফরান ৪-০-২৮-০, মাসুম ১-০-৭-০, রিশাদ ৩-০-১৪-২)

খেলাঘর সমাজ কল্যাণ সমিতি: ১৬.২ ওভারে ১০৯/৩ (ইমতিয়াজ ৫, রাফসান ০, মিরাজ ৪০*, জহুরুল ২৬, ফরহাদ ৩৬*; সাকলাইন ৪-০-২৬-১, নাঈম জুনিয়র ৩-০-২৩-০, রাহাতুল ৪-০-১৭-১, কাইয়ুম ৩-০-২৪-০, আলাউদ্দিন ২-০-১০-০, সুজন ০.২-০-৭-০)

ফল: ডাকওয়ার্থ-লুইস-​স্টার্ন পদ্ধতিতে ৫ রানে জয়ী খেলাঘর সমাজ কল্যাণ সমিতি

ম্যান অব দা ম্যাচ: মিজানুর রহমান।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক