মাসুম-মিনহাজুরের ছোবলে এলোমেলো সিলেট

প্রতিপক্ষের বড় ইনিংসের জবাবে সিলেটের ব্যাটসম্যানরা যোগ দিলেন ব্যর্থতার মিছিলে। মাসুম খান ও মিনহাজুর রহমানদের দারুণ বোলিংয়ে তাদের অল্প রানে থামিয়ে বড় লিডের আশা উজ্জ্বল করেছে গতবারের চ্যাম্পিয়ন খুলনা।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 March 2021, 02:47 PM
Updated : 23 March 2021, 02:55 PM

জাতীয় লিগের প্রথম স্তরের ম্যাচের দ্বিতীয় দিন খুলনা গুটিয়ে যায় ৩৭৫ রানে। সিলেট দিন শেষ করে ৮ উইকেটে ১৩০ রানে। এখনও ২৪৫ রানে পিছিয়ে আছে তারা।

সিলেটের ইনিংসে এখনও পর্যন্ত ৩০ ছাড়াতে পেরেছেন কেবল একজন। ৩৭ রান করেন ওপেনার ইমতিয়াজ আহমেদ। ৩০ রানে অপরাজিত আছেন এনামুল হক জুনিয়র।

৩২ রানে ৪ উইকেট নেন ডানহাতি পেসার মাসুম, প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে তার সেরা বোলিং। দুই বাঁহাতি স্পিনার মিনহাজুর ও মইনুল ইসলাম নেন ২টি করে উইকেট।

তুষার ইমরান ও ইমরুল কায়েসের ৯০ ছাড়ানো দুটি ইনিংসে প্রথম দিনেই শক্ত ভিত পায় খুলনা। শেখ আবু নাসের স্টেডিয়ামে ৭ উইকেটে ৩০৮ রান নিয়ে মঙ্গলবার ব্যাটিংয়ে নেমে আরও ৬৭ রান যোগ করে নুরুল হাসান সোহানের দল।

২৪ রান নিয়ে ব্যাটিং শুরু করে নাহিদুল ইসলাম থামেন ফিফটি থেকে দুই রান দূরে। ৭৮ বলে ৫ চার ও একটি ছক্কায় ইনিংসটি সাজান তিনি। শেষ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হওয়া আব্দুল হালিম ৪৭ বলে ৪টি চারে করেন ২৩ রান। 

প্রথম দিন ২টি করে উইকেট নেওয়া আবু জায়েদ চৌধুরি ও ইবাদত হোসেন এ দিন নেন আরও একটি করে। ৭৯ রানে ৩ উইকেট ইবাদতের। আবু জায়েদ ৩ উইকেট নেন ৯৪ রানে।

ব্যাটিংয়ে নেমে শুরু থেকেই নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় সিলেট। ইনিংসের দ্বিতীয় আর নিজের প্রথম ওভারে তৌফিক খানকে কট বিহাইন্ড করে ফেরান মাসুম।

থিতু হয়ে ইনিংস বড় করতে পারেননি অমিত হাসান ও জাকির হাসান। ৪১ বলে ১৪ রান করা অমিতও উইকেটের পেছনে ক্যাচ দেন মিনহাজুরের বলে। মাসুমের দ্বিতীয় শিকার হয়ে ফেরেন জাকির, ৩০ বলে করেন ১১।

এক প্রান্ত আগলে রেখে এগিয়ে যাচ্ছিলেন ইমতিয়াজ। তাকেও থামান মাসুম। ৭৩ বলে ৪টি চারে সাজানো সিলেট ওপেনারের ৩৭ রানের ইনিংস। অধিনায়ক অলক কাপালি ও আসাদুল্লাহ আল গালিব যেতে পারেননি দুই অঙ্কে।

৭৮ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে একশর নিচে গুটিয়ে যাওয়ার শঙ্কায় পড়েছিল সিলেট। সেই শঙ্কা কাটে জাকের আলি ও এনামুলের দৃঢ়তায়। জাকেরও ফেরেন থিতু হয়ে, ৫৫ বলে একটি চারে করেন ১৮।

তাকে ফেরানোর পর আবু জায়েদকে টিকতে দেননি মইনুল। সৈয়দ খালেদ আহমেদকে নিয়ে দিনের বাকি সময় কাটিয়ে দেন এনামুল। ৮৯ বলে ২টি চারে ৩০ রানে অপরাজিত তিনি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:


খুলনা বিভাগ ১ম ইনিংস: (আগের দিন ৩০৮/৭) ১০৯.৪ ওভারে ৩৭৫ (নাহিদুল ২৮, মাসুম ৮, হালিম ২৩, মিনহাজুর ৮*; আবু জায়েদ ২৯-৬-৯৪-৩, ইবাদত ২৬.৫-৬-৭৯-৩, খালেদ ২৫-৭-৭২-১, কাপালি ১০.৫-১-৫২-১, এনামুল জুনিয়র ১৮-২-৭২-১)

সিলেট বিভাগ ১ম ইনিংস: ৫৮ ওভারে ১৩০/৮ (ইমতিয়াজ ৩৭, তৌফিক ০, অমিত ১৪, জাকির ১১, কাপালি ৩, জাকের ১৮, গালিব ৩, এনামুল জুনিয়র ৩০*, আবু জায়েদ ৪, খালেদ ২*; হালিম ১২-৩-২৬-০, মাসুম ১৪-৩-৩২-৪, জিয়াউর ৫-১-১৫-০, মিনহাজুর ১৫-৩-২৯-২, নাহিদুল ৬-২-৭-০, মইনুল ৫-১-১০-২, রবি ১-০-৩-০)

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক