শোয়েবের গতি দেখে অন্য প্রান্তে থাকতে চেয়েছিলেন ল্যাঙ্গার!

একের পর এক আগুনের গোলা ধেয়ে আসছে। কে চায় শখ করে অগ্নিপরীক্ষায় পড়তে। চাননি জাস্টিন ল্যাঙ্গারও। দুই দশক আগের এক ম্যাচে শোয়েব আখতারকে খেলার ব্যাপারে নাকি তার মাঝে একরকম অনীহা দেখা গিয়েছিল, জানিয়েছেন রিকি পন্টিং।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 15 April 2020, 06:03 PM
Updated : 15 April 2020, 06:03 PM

পার্থের উইকেটে পেসারদের জন্য একটু বাড়তি সুবিধা থাকেই। ১৯৯৯ সালে পেস সহায়ক উইকেট পেয়ে পাকিস্তানের পেসার শোয়েব যেন গতির ঝড় তুলেছিলেন। সেই ঝাপটা সামাল দেওয়া পন্টিংয়ের কাছে ছিল তার খেলা সবচেয়ে দ্রুতগতির বোলিং।    

টুইটারে নিজের অফিসিয়াল পেজে বুধবার একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন পন্টিং। অন্য প্রান্তে থাকা ল্যাঙ্গারের প্রতিক্রিয়া নিয়ে মজাও করেছেন সাবেক অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক।  
“আমি যাদের মুখোমুখি হয়েছিলাম, তাদের মধ্যে সবচেয়ে গতিময় স্পেলটি ছিল শোয়েব আখতারের। বিশ্বাস করুন, অন্য প্রান্তে থাকা জাস্টিন (ল্যাঙ্গার) খুব একটা এগিয়ে আসছিল না।”
পন্টিংয়ের পোস্টে সাড়া দিয়েছেন শোয়েব। লিখেছেন, “কেবল রিকি পন্টিংই এভাবে খেলতে পারতেন। তিনি ছিলেন সবচেয়ে সাহসী। জাস্টিন ল্যাঙ্গার অবশ্যই নন স্ট্রাইকার প্রান্তে থাকতে চেয়েছিলেন।”
শোয়েবের আগুন ঝরানো স্পেলের পরও শেষ হাসি হেসেছিল অস্ট্রেলিয়া। পন্টিংয়ের ১৯৭ রানে ভর করে ইনিংস ও ২০ রানে জিতেছিল স্বাগতিকরা।
 
তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক