বিপিএলের সম্ভাবনাময়দের ডাকা হবে জাতীয় দলের ক্যাম্পে

বঙ্গবন্ধু বিপিএলের শুরু থেকে মুগ্ধতা ছড়িয়ে যাচ্ছেন বাঁহাতি পেসার মেহেদি হাসান রানা। নজর কেড়েছেন অফ স্পিনিং অলরাউন্ডার মেহেদি হাসান ও পেসার হাসান মাহমুদ। এমন সম্ভাবনাময় তরুণদের হাইপারফরম্যান্স ইউনিটে (এইচপি) না দিয়ে সরাসরি জাতীয় দলের ক্যাম্পে ডাকার কথা জানালেন নাজমুল হাসান।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 26 Dec 2019, 11:19 AM
Updated : 26 Dec 2019, 11:23 AM

পাঁচ ম্যাচ খেলে ১৩ উইকেট নিয়ে এবারের আসরে উইকেট সংগ্রাহকদের তালিকার শীর্ষে আছেন চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মেহেদি রানা। ঢাকা প্লাটুনের হয়ে ৬ ম্যাচে ৪ উইকেট নিয়েছেন আরেক তরুণ পেসার মাহমুদ। একটু খরুচে বোলিং করলেও গতি দিয়ে মনোযোগ কেড়েছেন।

ঢাকার হয়েই ৬ ম্যাচে অফ স্পিনে ৫ উইকেট নিয়েছেন মেহেদি। ১৪৫.১৬ স্ট্রাইক ও ২৭ গড়ে করেছেন ১৩৫ রান। কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের বিপক্ষে তিনে নেমে ২৯ বলে খেলেন ৫৯ রানের বিস্ফোরক ইনিংস। পরের ম্যাচে সিলেট থান্ডারের বিপক্ষে ২৮ বলে করেন ৫৬।

এবারের আসরে যে সব তরুণ ভালো করবেন তাদের ব্যাপারে করণীয় ঠিক করতে প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গোর দেশে ফেরার অপেক্ষায় রয়েছে বিসিবি। বোর্ড প্রধান নাজমুল হাসান জানান, এইচপিতে না দিয়ে তরুণ ক্রিকেটারদের সুযোগ দিতে চান জাতীয় দলের ক্যাম্পে।

“আপনারা দেখেন, মেহেদি হাসান, সে মূলত একজন অফ স্পিনার। কিন্তু আমি তো দেখছি সে একজন ব্যাটসম্যান! ওকে যে প্রমোশন দিয়ে উপরে নেওয়া হলো এরপর সে ভালো খেলছে। টি-টোয়েন্টিতে আমাদের এমন একজন ক্রিকেটার সামনে তো লাগবেই। এটা এক নম্বর কথা। এখানে ধারাবাহিকতা অনেক গুরুত্বপূর্ণ।”

 “এরপরে মেহেদি হাসান রানা ভালো বল করছে। হাসান মাহমুদ একজন সম্ভাবনাময় ক্রিকেটার। সে বেশ জোরে বল করতে পারে। আমি যেটা এখন পর্যন্ত জানি যে, ৪/৫ জন ক্রিকেটার আমাদের নজরে এসেছে। যে জিনিসটা আমরা ঠিক করেছি কোচ (ডমিঙ্গো) আসার পরে, মানে এটা নিয়ে তো আলাদা করে এইচপি বা অন্য জায়গায় দিয়ে তো লাভ নেই, ওদেরকে জাতীয় দলের মধ্যে ক্যাম্পে ডেকে দেখা লাগবে। ওদের রেখে কিভাবে পরিচর্যা করা যায় সেটা আমরা পরিকল্পনা করব।”

বিশ্বকাপ থেকে বাজে সময় কাটানো তামিম ইকবালের ব্যাটে ফিরেছে রান। মুশফিকুর রহিম ভালো খেলছেন। মাহমুদউল্লাহর ব্যাটও হাসছে বিপিএলে। সব মিলিয়ে সুদিন ফেরার আভাস দেখছেন নাজমুল হাসান।

“আমাদের পুরনো যেসব মূল খেলোয়াড় আছে, তামিম আস্তে আস্তে আত্মবিশ্বাস পাচ্ছে- এটা বাংলাদেশের জন্য আমি মনে করি, বিরাট ব্যাপার। তামিম আত্মবিশ্বাস নিয়ে খেলছে এটা একটা, আফিফ (হোসেন) ভালো খেলছে। সেদিন দেখলাম অসাধারণ একটি ইনিংস খেলেছে। এরপর আমাদের মুশফিক ভালো খেলছে। এতদিন করেনি তেমন কিছু, তবে লিটন দাস শেষ দিকে ভালোই খেলল চিটাগাংয়ে। (মাহমুদউল্লাহ) রিয়াদ কয়েকটি ভালো ইনিংস খেলেছে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক