সাকলাইন-সোহাগের স্পিনে মোহামেডানের প্রথম জয়

শুরুতে ছোবল দিলেন সাকলাইন সজীব। শেষের প্রতিরোধ ভাঙলেন সোহাগ গাজী। দুইশ রানের আগেই গুঁড়িয়ে গেল প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাব। ছোট পুঁজি নিয়ে লড়াইও করতে পারেনি এনামুল হকের দল। আব্দুল মজিদ ও রকিবুল হাসানের ফিফটিতে সুপার লিগে নিজেদের প্রথম জয় তুলে নিয়েছে মোহামেডান স্পোর্টি ক্লাব।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 21 April 2019, 09:45 AM
Updated : 21 April 2019, 01:10 PM

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে ৭ উইকেটে জিতেছে মোহামেডান। ১৭৫ রানের লক্ষ্য ৯০ বল বাকি থাকতে ছুঁয়ে ফেলে দলটি।

মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে রোববার টস হেরে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই এনামুল হককে হারায় প্রাইম ব্যাংক। বাঁহাতি স্পিনে সাকলাইন বিদায় করেন রুবেল মিয়া, আল আমিন জুনিয়র ও প্রমোশন পেয়ে চারে নামা নাঈম হাসানকে।

৪৯ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকা প্রাইম ব্যাংক প্রতিরোধ গড়ে অলক কাপালী ও নাহিদুল ইসলামের ব্যাটে। ৫৫ বলে ৪৩ রান করা কাপালীকে ফিরিয়ে ৫৭ রানের জুটি ভাঙেন রাহাতুল ফেরদৌস। শূন্য রানে আরিফুল হককে ফিরিয়ে দেন সাকলাইন।

লোয়ার অর্ডারের দৃঢ়তায় ১৭২ পর্যন্ত যায় প্রাইম ব্যাংক। শেষ তিনটি উইকেটই নেন সোহাগ।

৪০ রানে ৪ উইকেট নিয়ে মোহামেডানের সফলতম বোলার বাঁহাতি স্পিনার সাকলাইন। অফ স্পিনার সোহাগ ৩ উইকেট নেন ৩৮ রানে।

ছোট রান তাড়ায় দলকে উড়ন্ত সূচনা এনে দেন লিটন দাস। প্রথম বিশ্বকাপ খেলার পথে থাকা এই ওপেনার আবার ব্যর্থ ভালো শুরুটা বড় করতে। ২০ বলে ৭ চারে ফিরেন ৩২ রান করে।

বেশিক্ষণ টিকেননি ইরফান শুক্কুর। রকিবুল হাসানের সঙ্গে ৪৬ রানের জুটি গড়ে ফিরে যান মজিদ। তরুণ এই ওপেনার ৭১ বলে ৭ চারে করেন ৫৪ রান। তুষার ইমরানকে নিয়ে বাকিটা সহজেই সারেন রকিবুল। দারুণ ছন্দে থাকা এই মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান ৬৮ বলে ৭ চারে করেন ৫২ রান। ২২ রানে অপরাজিত থাকেন তুষার।

দারুণ বোলিংয়ে চার উইকেট নেওয়া সাকলাইন জেতেন ম্যাচ সেরার পুরস্কার।

১৫ ম্যাচে সপ্তম জয়ে ১৪ পয়েন্ট নিয়ে ছয় নম্বরেই রয়েছে মোহামেডান। সমান ম্যাচে সপ্তম হারের স্বাদ পাওয়া প্রাইম ব্যাংক ১৬ পয়েন্ট নিয়ে আছে চার নম্বরে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাব: ৪২.২ ওভারে ১৭৪ (রুবেল ১৪, এনামুল ১০, আল আমিন জুনিয়র ৪, নাঈম ৪, নাজমুল ৩, কাপালী ৪৩, নাহিদুল ২৬, আরিফুল ০, মনির ২২, রাজ্জাক ২২*, আল আমিন ১৪; শফিউল ১/৩৫, রাহাতুল ২/৩৪, সাকলাইন ৪/৪০, অনিক ০/১৭, সোহাগ ৩/৩৮, আশরাফুল ০/৬)

মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব: ৩৫ ওভারে ১৭৫/৩ (লিটন ৩২, মজিদ ৫৪, শুক্কুর ১১, রকিবুল ৫২*, তুষার ২২*; আল আমিন ০/২৫, মনির ০/২৮, নাঈম ১/৩১, রাজ্জাক ১/৪৩, নাহিদুল ১.২৭, আরিফুল ০/২১)

ফল: মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ৭ উইকেটে জয়ী

ম্যান অব দা ম্যাচ: সাকলাইন সজীব

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক