তাসকিন-শহীদের বোলিং তোপের পর শাহরিয়ারের সেঞ্চুরি

শুরুতে ছোবল দিলেন তাসকিন আহমেদ। দারুণ বোলিংয়ে শেষ করলেন মোহাম্মদ শহীদ। দুই পেসারের বোলিং তোপে দুইশ ছাড়িয়েই গুটিয়ে গেল প্রাইম দোলেশ্বর। রান তাড়ায় দলকে পথ দেখালেন শাহরিয়ার নাফীস। তার অপরাজিত সেঞ্চুরিতে জয়ে ফিরেছে লেজেন্ডস অব রূপগঞ্জ।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 19 April 2019, 11:14 AM
Updated : 19 April 2019, 12:23 PM

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে সুপার লিগ পর্বের তৃতীয় রাউন্ডে ৭ উইকেটে জিতেছে নাঈম ইসলামের দল। ২০৬ রানের লক্ষ্য ৩৪ বল বাকি থাকতে পেরিয়ে যায় তারা।

বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে শুক্রবার টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই জসিমউদ্দিনকে হারায় দোলেশ্বর। চতুর্থ বোলার হিসেবে আক্রমণে আসা তাসকিন ভাঙেন দ্বিতীয় উইকেট জুটির প্রতিরোধ। ফিরিয়ে দেন ৬৪ বলে ৩৭ রান করা সাইফ হাসানকে। পরের ওভারে মার্শাল আইয়ুবের উইকেটও তুলে নেন তাসকিন।

এক প্রান্ত আগলে রেখে দোলেশ্বরকে টানছিলেন সৈকত আলী। জমে উঠেছিল তাইবুর রহমানের সঙ্গে জুটি। এবারও প্রতিরোধ ভাঙেন তাসকিন। ৯৫ বলে ৬ চার ও ১ ছক্কায় ৭২ রান করা সৈকতকে ফিরিয়ে দেন। পরের ওভারে বিদায় করেন তাইবুরকে।

মাহমুদুল হাসান ও ফরহাদ রেজার ব্যাটে দুইশ পার হওয়া দোলেশ্বরের ইনিংস যেন শেষ হয়ে যায় হঠাৎ করেই। তিন চারে ১৯ রান করা রেজাকে ফিরিয়ে জুটি ভাঙেন রিশি ধাওয়ান। এরপর বেশিদূর এগোয়নি দলটির ইনিংস। শহীদের ছোবলে গুটিয়ে যায় ২০৫ রানে। শেষ ৪ উইকেট হারায় মাত্র ৪ রানে।

৫৪ রানে ৪ উইকেট নেন ফিটনেস ইস্যুতে বিশ্বকাপ দলে জায়গা না পাওয়া তাসকিন। শহীদ ৩৫ রানে নেন তিনটি।

রান তাড়ায় শুরুটা ভালো হয়নি রূপগঞ্জের। গোল্ডেন ডাকের স্বাদ পান মোহাম্মদ নাঈম। দ্বিতীয় উইকেটে মেহেদী মারুফের সঙ্গে ১০০ রানের জুটিতে দলকে জয়ের পথে এগিয়ে নেন শাহরিয়ার। বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান তৃতীয় উইকেটে আসিফ আহমেদের সঙ্গে উপহার দেন ৫১ রানের আরেকটি ভালো জুটি।

আসিফের বিদায়ের পর নাঈমকে নিয়ে আরেকটি অর্ধশত রানের জুটিতে দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান শাহরিয়ার। বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানের ১৪২ বলে খেলা ১১৩ রানের ইনিংস গড়া ১১ চার ও ১ ছক্কায়। অধিনায়ক নাঈম দুটি করে ছক্কা-চারে ২৭ বলে অপরাজিত থাকেন ৩২ রানে।    

চলতি আসরে নিজের প্রথম সেঞ্চুরিতে ম্যাচ সেরার পুরস্কার জেতেন শাহরিয়ার।

১৪ ম্যাচে দ্বাদশ জয়ে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার শীর্ষে আছে লেজেন্ডস। সমান ম্যাচে পঞ্চম হারের স্বাদ পাওয়া দোলেশ্বর ১৬ পয়েন্ট নিয়ে আছে পঞ্চম স্থানে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

প্রাইম দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাব: ৪৫ ওভারে ২০৫ (সাইফ ৩৭, জসিম ২, সৈকত ৭২, মার্শাল ২, ফরহাদ ১১, তাইবুর ২৭, রেজা ১৯, মাহমুদুল ২৫*, এনামুল ১, মানিক ০, আবু জায়েদ ০, শহীদ ৩/৩৫, নাবিল ০/২৮, ধাওয়ান ২/৩২, তাসকিন ৪/৫৪, মুক্তার ০/৫২)                                          

লেজেন্ডস অব রূপগঞ্জ: ৪৪.২ ওভারে ২০৮/৩ (মারুফ ৪১, মোহাম্মদ নাঈম ০, শাহরিয়ার ১১৩*, আসিফ ১৭, নাঈম ৩২*; রেজা ০/১৫, মানিক ১/৩২, মাহমুদুল ০/৩৭, আবু জায়েদ ০/১৬, এনামুল জুনিয়র ১/৪৯, তাইবুর ০/২৩, সাইফ ১/৩৪)

ফল: লেজেন্ডস অব রূপগঞ্জ ৭ উইকেটে জয়ী

ম্যান অব দা ম্যাচ: শাহরিয়ার নাফীস

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক