আফগানিস্তানের জন্য ঐতিহাসিক দিন: আসগর

আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে স্বপ্নের টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম জয় পাওয়াকে দেশের মানুষের ও নিজেদের ক্রিকেটের জন্য ঐতিহাসিক বলে জানিয়েছেন আফগানিস্তানের অধিনায়ক আসগর আফগান।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 March 2019, 12:32 PM
Updated : 18 March 2019, 12:32 PM

সোমবার ভারতের দেরাদুনে রাজীব গান্ধী ইন্টান্যাশনাল স্টেডিয়ামে টেস্টের চতুর্থ দিনে ৭ উইকেটে জয় পায় আফগানিস্তান। চতুর্থ ইনিংসে জয়ের জন্য ১৪৭ রানের লক্ষ্য তাড়ায় তৃতীয় দিনের শেষ সেশনে ওপেনার মোহাম্মদ শাহজাদকে হারানো আফগানদের এ দিন দরকার ছিল ১১৮ রান। রহমত শাহ ও ইহসানউল্লাহর ফিফটিতে প্রথম সেশনে সহজেই লক্ষ্যে পৌঁছায় তারা।

সাফল্যের মূল কারণ হিসেবে আফগান অধিনায়ক জানালেন প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে জোর দেওয়া কথা।

“আমরা অনেক বড় দৈর্ঘ্যের ম্যাচ খেলেছি। আর সে কারণে স্বাভাবিকভাবেই আমরা পরিণত হয়েছি। এখন আমরা ঘরের মাঠে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটও খেলছি। আগে আমরা তিন-দিনের ও দুই-দিনের ক্রিকেট খেলতাম। কিন্তু এখন আমরা প্রথম শ্রেণির ক্রিকেট খেলছি।”

“টেস্ট ক্রিকেট খেলাটা আমাদের স্বপ্ন ছিল। আর আজ আমরা আমাদের দ্বিতীয় টেস্ট খেললাম এবং ম্যাচটা জিতলাম। আফগানিস্তানের জন্য, আফগানিস্তানের মানুষের জন্য, আমাদের দলের জন্য, আমাদের ক্রিকেট বোর্ডের জন্য এটা একটা ঐতিহাসিক দিন।”

পুরো ম্যাচে বল ও ব্যাট হাতে আলো ছড়িয়েছেন আফগান ব্যাটসম্যান ও বোলাররা। প্রথম ইনিংসে টস জিতে ব্যাটিংয়ে নামা আইরিশদের মাত্র ১৭২ রানে গুঁড়িয়ে দেন পেসার ইয়ামিন আহমাদজাই, অফ স্পিনার মোহাম্মদ নবি, অভিষিক্ত চায়নাম্যান বোলার ওয়াকার সালামখেইল ও লেগ স্পিনার রশিদ খান। ভারত বাদে প্রথম দল হিসেবে গত ছয় বছরে ভারতের মাটিতে টস হেরে টেস্ট জেতার কৃতিত্ব বোলারদেরই দিচ্ছেন আসগর।

“আমি বোলারদের বিশেষ করে অভিনন্দন জানাতে চাই, রশিদ, ওয়াকার, ইয়ামিন, কারণ উইকেট ব্যাটিং সহায়ক ছিল।”

ইংল্যান্ড ও পাকিস্তানের পর মাত্র তৃতীয় দল হিসেবে নিজেদের দ্বিতীয় টেস্টেই জয়ের মুখ দেখল আফগানিস্তান। ১৮৭৭ সালে ইতিহাসের প্রথম টেস্টে জয় পাওয়া অস্ট্রেলিয়া বাদে আর কেউই এত কম ম্যাচে এই সংস্করণে জয় ছিনিয়ে নিতে পারেনি।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক