সাদমানের ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস

বাংলাদেশ ‘এ’ দলের হয়ে সুযোগ কাজে লাগাতে না পারা সাদমান ইসলাম ঘরোয়া ক্রিকেটে ফিরে পেয়েছেন রানের দেখা। জাতীয় ক্রিকেট লিগের নতুন আসরের প্রথম দিন রাঙিয়েছেন সেঞ্চুরিতে। ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস খেলে সিলেটের বিপক্ষে ঢাকা মেট্রোকে গড়ে দিয়েছেন বড় সংগ্রহের ভিত।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 1 Oct 2018, 02:21 PM
Updated : 1 Oct 2018, 02:21 PM

দ্বিতীয়স্তরের ম্যাচে প্রথম দিনের খেলা শেষে ঢাকা মেট্রোর সংগ্রহ ৪ উইকেটে ৩৩২ রান। মেহরাবহোসেন জুনিয়র ২৮ ও মোহাম্মদ আশরাফুল ১ রানে ব্যাট করছেন।

সিলেটআন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সোমবার টস হেরে ব্যাট করতে নেমে সৈকত আলীর সঙ্গে ১১২রানের জুটিতে দলকে ভালো শুরু এনে দেন সাদমান। ৫ চারে ৪২ রান করা সৈকতকে ফিরিয়ে অতিথিদেরশুরুর জুটি ভাঙেন আবু জায়েদ চৌধুরী।

দ্বিতীয়উইকেটে শামসুর রহমানের সঙ্গে আরেকটি ১১২ রানের জুটি উপহার দেন সাদমান। ৩৪ রান করা শামসুরকেএলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলে জুটি ভাঙেন বাঁহাতি স্পিনার এনামুল হক জুনিয়র।

অধিনায়কমার্শাল আইয়ুবের সঙ্গে ৬২ রানের জুটি গড়ে ফিরেন সাদমান। তার আগে খেলেন ক্যারিয়ারেরপ্রথম দেড়শ ছোঁয়া ইনিংস। শাহানুর রহমানের বলে সায়েম আলমকে ক্যাচ দিয়ে শেষ হয় সাদমানের১৫৭ রানের ইনিংস। বাঁহাতি এই ওপেনারের ২৩৮ বলের ইনিংসটি গড়া ২০ চার ও ২ ছক্কায়। প্রথমশ্রেণির ক্রিকেটে তার আগের সেরা ছিল ১৪০।

প্রথমশ্রেণির ক্রিকেটে এটি সাদমানের ষষ্ঠ ও শেষ ছয় ম্যাচে তৃতীয় সেঞ্চুরি। বাংলাদেশ ‘এ’দলের হয়ে শ্রীলঙ্কা ‘এ’ দলের বিপক্ষে দুই ম্যাচে তিন ইনিংসে এই ওপেনার করেছিলেন কেবল২৯ রান।

পঞ্চাশছুঁয়ে ফিরে যান মার্শাল। অধিনায়কের ৮৪ বলের ইনিংসে বাউন্ডারি তিনটি।

তিনপেসার নিয়ে গড়া সিলেটের আক্রমণ প্রথম দিন সুবিধা করতে পারেনি। উইকেটের দেখা পাননি দুইপেসার খালেদ আহমেদ ও এবাদত হোসেন। এরই মধ্যে রান দেওয়ার সেঞ্চুরি হয়ে গেছে মূল স্পিনারএনামুল জুনিয়রের।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: 

ঢাকামেট্রো ১ম ইনিংস: ৮৮ ওভারে ৩৩২/৪ (সাদমান ১৫৭, সৈকত ৪২, শামসুর ৩৪, মার্শাল ৫০, মেহরাবজুনিয়র ২৮*, আশরাফুল ১*; আবু জায়েদ ১/৪৬, খালেদ ০/৪৮, এনামুল জুনিয়র ১/১১৮, এবাদত ০/৪০,শাহানুর ২/৬১, কাপালী ০/১৫)

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক