সেন্ট কিটসের জয়ে উজ্জ্বল বোলার মাহমুদউল্লাহ

আগের দুই ম্যাচ মিলিয়ে বোলিং পেয়েছিলেন এক ওভার। এদিন মাহমুদউল্লাহ পেলেন নতুন বলের দায়িত্ব। দারুণ বোলিংয়ে প্রতিদান দিলেন দলের আস্থার। সেন্ট লুসিয়া স্টার্সকে উড়িয়ে দিল সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 22 August 2018, 04:19 AM
Updated : 12 Feb 2020, 10:20 AM

ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে মঙ্গলবার সেন্ট লুসিয়াকে ৭ উইকেটে হারিয়েছে সেন্ট কিটস। ৪ ওভারে ২০ রানে ২ উইকেট নিয়ে দলের জয়ের অন্যতম নায়ক মাহমুদউল্লাহ।

সেন্ট লুসিয়ার ড্যারেন স্যামি স্টেডিয়ামে এদিন শেলডন কটরেল প্রথম ওভার করার পর দ্বিতীয় ওভারেই বোলিং পান মাহমুদউল্লাহ। সেই ওভারেই ফিরিয়ে দেন বিপজ্জনক রাকিম কর্নওয়ালকে।

নিজের পরের ওভারে মাহমুদউল্লাহর আর্ম বলে ফিরে যান অভিজ্ঞ লেন্ডল সিমন্স। পাওয়ার প্লেতে বোলিং করেও নিজের প্রথম ৩ ওভারে মাত্র ৯ রান দেন মাহমুদউল্লাহ।

উইকেট পেতে পারতেন আরও একটি। তার বলে কাইস আহমেদকে স্টাম্পিংয়ের সুযোগ হাতছাড়া করেন কিপার ডেভন টমাস।

নিজের শেষ ওভারে সেই কাইসের ব্যাটেই একটি করে চার ও ছক্কা হজম করায় একটু বিবর্ণ হয় মাহমুদউল্লাহর বোলিং বিশ্লেষণ। এরপরও বোলিং ফিগার ছিল দারুণ।

১৮ বলে ২৪ রান করা আফগান ব্যাটসম্যান কাইস সেন্ট লুসিয়ার সর্বোচ্চ স্কোরার। দুই অঙ্ক ছুঁয়েছেন আর কেবল ১৭ বলে ১৪ রান করা ডেভিড ওয়ার্নার।

১২.৩ ওভারে ৬৯ রানেই শেষ হয় সেন্ট লুসিয়ার ইনিংস। মাহমুদউল্লাহর পাশাপাশি দুটি উইকেট নিয়েছেন নেপালের লেগ স্পিনার সন্দিপ লামিচানে। ১৪ রানে ৩ উইকেট নিয়ে সেরা বোলার কটরেল। ম্যাচ সেরা হয়েছেন বাঁহাতি এই পেসারই।

রান তাড়ায় সেন্ট কিটস ৩ উইকেট হারিয়ে জিতে যায় ৭.৪ ওভারে। ২১ বলে ৩৮ রানে অপরাজিত থাকেন কিপার ওপেনার টমাস। মাহমুদউল্লাহর ব্যাটিংয়ে নামার প্রয়োজন হয়নি।

চার ম্যাচে সেন্ট কিটসের এটি দ্বিতীয় জয়। ছয় দলের টুর্নামেন্টে পয়েন্ট টেবিলে তারা আপাতত আছে চারে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক