• উত্তেজনার ভেলায় চেপে এক যুগ পর লঙ্কানদের সিরিজ জয়
    রোমাঞ্চের নানা বাঁক পেরিয়ে ম‍্যাচ এসে পৌঁছাল শেষ বলে। অস্ট্রেলিয়ার প্রয়োজন পাঁচ রান। আগের দুই বলে বাউন্ডারি হাঁকানো ম‍্যাথু কুনেমানের ব‍্যাট থেকে একটি চার কিংবা ছক্কা এসে যাওয়া অসম্ভব কিছু না। প্রথম পাঁচ বলে তেমন একটা ভালো করতে না পারা দাসুন শানাকা ধরে রাখতে পারলেন স্নায়ু চাপ। ছক্কার চেষ্টায় কাভারে ক‍্যাচ তুলে দিলেন ব‍্যাটসম‍্যান। এক যুগ পর অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ জয়ের আনন্দে ভাসল শ্রীলঙ্কা।
  • জিম্বাবুয়েকে ধসিয়ে শ্রীলঙ্কার সিরিজ জয়
    ব্যাট হাতে শুরুটা ভালো করলেও পরে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে ইনিংস খুব বড় করতে পারল না শ্রীলঙ্কা। তবে আড়াইশ ছাড়ানো পুঁজিই জিম্বাবুয়ের জন্য পাহাড়সম করে তুললেন বোলাররা। তাদের সৌজন্যে প্রতিপক্ষকে স্রেফ গুঁড়িয়ে দিয়ে সিরিজ ঘরে তুলল লঙ্কানরা।
  • ম্যাচজয়ী ইনিংস খেলার তৃপ্তি আসালাঙ্কার
    মাত্র তিনটি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি খেলার অভিজ্ঞতা নিয়ে বিশ্বকাপে পা রেখেছিলেন চারিথ আসালাঙ্কা। ব্যাট হাতে ক্যারিয়ারের প্রথম বৈশ্বিক আসরটা তার কাটল দারুণ। শেষ ম্যাচেও দলের জয়ে রাখলেন বড় অবদান। এতেই যেন বেশি ভালো লাগা কাজ করছে বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যানের মধ্যে।
  • বাংলাদেশের বিপক্ষে ঝড় তুলে আসালাঙ্কার ‘প্রথম’
    অফ স্টাম্পের বাইরের লেংথ বল, উড়িয়ে মারলেন চারিথ আসালাঙ্কা। ডিপ কাভারে সহজ ক্যাচ মুঠোয় জমাতে পারলেন না লিটন দাস। জীবন পেয়ে শ্রীলঙ্কার এই ব্যাটসম্যান খেললেন শেষ পর্যন্ত। বাংলাদেশের বিপক্ষে দলকে নিলেন জয়ের ঠিকানায়।