কালো টাকা: ‘বিভ্রান্তি’ কাটছে না টিআইবির

নতুন অর্থবছরের বাজেটে কালো সাদা করার সুযোগ না রাখার বিষয়ে অর্থমন্ত্রীর ঘোষণা সত্ত্বেও বিভ্রান্তি কাটেনি বলে মনে করছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 7 June 2014, 03:41 PM
Updated : 7 June 2014, 03:41 PM

শনিবার এক বিবৃতিতে এই বিষয়ে সরকারের অবস্থান স্পষ্ট করার আহ্বান জানিয়েছে দুর্নীতি বিরোধী প্রতিষ্ঠানটি।

গত ৫ জুন বাজেট বক্তৃতায় অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত কালো টাকার বিষয়ে কিছু না বলায় আগে দেয়া সুযোগ এবারও বহাল থাকছে বলে কয়েকটি সংবাদপত্রে ছাপা হয়।

পরদিন বাজেটোত্তর সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, “কোনো খাতেই কালো টাকা সাদা করার সুযোগ নেই।

“বাজেট বক্তৃতায় যদিও বিষয়টি আমি বলিনি। তবে এখন বলছি, আগে এ বিষয়ে যেসব সুযোগ ছিল তা বাতিল হল।”

কালো টাকার বিরুদ্ধে অর্থমন্ত্রীর অবস্থানকে স্বাগত জানিয়ে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান ওই সংবাদ সম্মেলনে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান গোলাম হোসেনের বক্তব্যে অস্পষ্টতা দেখছেন।

তিনি বলেন, “প্রভাবশালী মহলের চাপের কাছে নতি স্বীকার না করে বাজেটে কালো টাকাকে বৈধতা দেবার অনৈতিক, অসাংবিধানিক ও বৈষম্যমূলক পথে অর্থমন্ত্রীর না যাওয়ার সিদ্ধান্তের ঘোষণা প্রশংসনীয়।

“তবে একই সংবাদ সম্মেলনে এনবিআরের চেয়ারম্যানের বক্তব্যে বিভ্রান্তির সুযোগ সৃষ্টি করেছে।”

কালো টাকা আবাসন খাতে বিনিয়োগের সুযোগ বাতিলের বিষয়ে অর্থমন্ত্রীর বক্তব্যের পর সংবাদ সম্মেলনে এনবিআর চেয়ারম্যান বলেছিলেন, আয়কর আইনের ১৯ (বিবিবি) ধারায় কালো টাকা সাদা করার যে সুযোগ ছিল, তাও এবার বাতিল করা হয়েছে। এর ফলে কোনো ক্ষেত্রেই কালো টাকা সাদা করার সুযোগ থাকলো না।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক