ইনকিলাবের দুঃখ প্রকাশ

‘সাতক্ষীরায় যৌথ বাহিনীর অপারেশনে ভারতীয় বাহিনীর সহায়তা’ শীর্ষক সংবাদ প্রকাশের জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছে দৈনিক ইনকিলাব।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 Jan 2014, 10:33 AM
Updated : 18 Jan 2014, 10:37 AM

ইনকিলাবের অনলাইন সংস্করণে শনিবার ‘আমরা দুঃখিত’ শিরোনামে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “গত ১৬ জানুয়ারি (বৃহস্পতিবার) দৈনিক ইনকিলাবের প্রথম পৃষ্ঠায় ‘সাতক্ষীরায় যৌথ বাহিনীর অপারেশনে ভারতীয় বাহিনীর সহায়তা’ শীর্ষক সংবাদটি প্রকাশিত হওয়ায় আমরা দুঃখিত।”

“এ ব্যাপারে সম্পাদকের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে যে, এ ধরনের স্পর্শকাতর বিষয়ে সংবাদ প্রকাশের ক্ষেত্রে আরো সতর্কতা অবলম্বন করা প্রয়োজন, যাতে এ ধরনের ঘটনার আর পুনরাবৃত্তি না ঘটে।”

বৃহস্পতিবার দৈনিক ইনকিলাবে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়,  “তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে সাতক্ষীরায় গণআন্দোলন দমাতে সরকার ভারতীয় বাহিনীকে অপারেশনে নামিয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অনুমতি সাপেক্ষে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দিল্লির কাছে এ সেনা সহায়তা চেয়ে চিঠি দেয়।”

ওই প্রতিবেদন প্রকাশের পর সরকারের এক ভাষ্যে বলা হয়েছে, বাংলাদেশে ভারতীয় বাহিনীর উপস্থিতির খবরটি বানোয়াট ও ভিত্তিহীন।

এরপর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ওয়ারী থানায় তথ্য-প্রযুক্তি আইনে পুলিশ একটি মামলা দায়ের করে। রাতে আরকে মিশন রোডে পত্রিকাটির কার্যালয়ে তল্লাশি চালায় পুলিশ।

তালা ঝুলিয়ে দেয়া হয় একাত্তরের যুদ্ধাপরাধী বলে চিহ্নিত মাওলানা আবদুল মান্নান (প্রয়াত) প্রতিষ্ঠিত পত্রিকাটির ছাপাখানা ও কম্পিউটার কক্ষে।

পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হন ইনকিলাবের বার্তা সম্পাদক রবিউল্লাহ রবি, কূটনৈতিক প্রতিবেদক আহমেদ আতিক ও উপ প্রধান প্রতিবেদক রফিক মোহাম্মদ।

ইনকিলাবে অভিযানের আটকদের মুক্তি চেয়ে সংবাদপত্রটির ছাপাখানা খুলে দেয়ার দাবি জানিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, মামলায় জিতলে ইনকিলাবের ছাপাখানা খুলে দেয়া হবে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক