‘পরকীয়ায় বাধা দেওয়ায়’ স্ত্রী-সন্তান হত্যা

‘পরকীয়ায় বাধা দেওয়ায়’ স্ত্রীসহ চার মাসের সন্তানকে ‘গলা কেটে হত্যার’ অভিযোগে স্বামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ- সিআইডি।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 11 Jan 2022, 12:30 PM
Updated : 11 Jan 2022, 12:32 PM

গ্রেপ্তার সোলেমান হোসেনের (৩৫) বাড়ি খাগড়াছড়ির রামগড় উপজেলার মধুপুর গ্রামে।

মোবাইল ট্র্যাক করে অপরাধী সনাক্ত করায় নিয়োজিত সিআইডির লফুল ইন্টারসেপশন সেলের (এলআইসি) একটি দল সোমবার রাতে হবিগঞ্জের চুনারুঘাট এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে।

মঙ্গলবার ঢাকার মালিবাগে সিআইডি কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরেন অপরাধ তদন্ত বিভাগের বিশেষ পুলিশ সুপার মুক্তা ধর।

গত ৩ জানুয়ারি সন্ধ্যায় মধুপুরে নিজ বাড়িতে কম্বল প্যাঁচানো অবস্থায় সোলেমানের স্ত্রী খালেদা আক্তার পিংকি (২৫) এবং তার চার মাস বয়সী মেয়ে সালমা আক্তার জান্নাতের গলাকাটা মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় পিংকির বাবা আব্দুল খালেক দুলাল সোলেমানের বিরুদ্ধে রামগড় থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার তদন্তে নেমে হত্যাকাণ্ডের ছয় দিন পর সোলেমানকে গ্রেপ্তার করে সিআইডি।

তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে পাওয়া তথ্য তুলে ধরে বিশেষ পুলিশ সুপার মুক্তাধর জানান, পরকীয়ায় বাধা দেওয়ায় গ্রেপ্তার সোলেমান এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে।

“পিংকী তার স্বামী সোলেমানকে বিবাহ বর্হিভুত সম্পর্কে বাধা দেওয়ায় গত ৩০ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় ঘরে থাকা গৃহস্থালির কাজে ব্যবহৃত ধারালো দা দিয়ে তাদের গলাকেটে হত্যা করে। পরে কম্বল দিয়ে মুড়িয়ে ঘরের মেঝেতে রেখে ঘরে তালা দিয়ে পালিয়ে যায় সোলেমান।”

তিনি জানান, ২০১৩ সালে সোলেমান ও পিংকির পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। সে সময় গাজীপুরের চান্দনা চৌরাস্তা এলাকায় একটি টেক্সটাইল মিলে অপারেটর হিসেবে কাজ করতেন সোলেমান।

বিয়ের পর সোলেমান গ্রামের বাড়িতে থেকে রাজমিস্ত্রির কাজ করতেন। তাদের সংসারে ফারিয়া সুলতানা নামে পাঁচ বছর বয়সী আরেকটি কন্যা সন্তান রয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক