এবার নাসিরের দুর্দান্ত শতক

এবার নাসিরের দুর্দান্ত শতক

প্রথম ম্যাচে বল হাতে জয়ের নায়ক ছিলেন মুমিনুল হক ও নাসির হোসেন। ইমার্জিং টিমস এশিয়া কাপের দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-২৩ দলের জয়ে এবার ব্যাট হাতে দুজন রাখলেন গুরুত্বপূর্ণ অবদান। অধিনায়ক মুমিনুল পেয়েছেন অর্ধশতক, দুর্দান্ত এক শতক করে অপরাজিত নাসির।

ধুঁকছে দক্ষিণ আফ্রিকা, আশায় নিউ জিল্যান্ড

ধুঁকছে দক্ষিণ আফ্রিকা, আশায় নিউ জিল্যান্ড

সময়ের ভেলায় পেরিয়ে গেছে এক যুগের বেশি। টানা ১৫ টেস্ট দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারাতে পারেনি নিউ জিল্যান্ড। দীর্ঘ সেই খরা কাটার আশা এবার করতেই পারে কিউইরা। চতুর্থ দিনে তারা দারুণভাবে বাগে পেয়েছে প্রেটিয়াদের। শেষ দিনে স্রেফ কাজ শেষ করার পালা।

দাপুটে জয়েই সিরিজ ভারতের

দাপুটে জয়েই সিরিজ ভারতের

লক্ষ্য নাগালেই, এরপরও একটু হোঁচট। একটু কি জমল শঙ্কার মেঘও? কিসের কী! অজিঙ্কা রাহানে এসেই শুরু করলেন ধুন্ধুমার মার। অধিনায়কের ব্যাটে মাঠের নানা প্রান্তে উড়তে লাগল বল, হাওয়ায় উড়ে গেল শঙ্কার মেঘও। আরেক পাশে লোকেশ রাহুল তো এই সিরিজের বিপ্লব। দুজনের ব্যাটে ভারত জিতল অনায়াসেই।

৮৭ করলেই ট্রফি ফিরবে ভারতে

৮৭ করলেই ট্রফি ফিরবে ভারতে

অনেক উত্তেজনা-রোমাঞ্চের দোলাচল, সাফল্য-ব্যর্থতা-নাটকীয়তা, পেন্ডুলামের মতো দুলতে থাকা সিরিজ শেষ পর্যন্ত এক দিকে হেলে পড়ল শেষের আগের দিন। ব্যাটে-বলে দারুণ পারফরম্যান্সে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দিলেন রবীন্দ্র জাদেজা। অনেকটা ঠিক করে দিলেন আসলে সিরিজের ভাগ্যই। এই ম্যাচের জয়ী দলই যে জিতবে সিরিজ!

উইলিয়ামসনের রেকর্ড গড়া ইনিংসে এগিয়ে নিউ জিল্যান্ড

উইলিয়ামসনের রেকর্ড গড়া ইনিংসে এগিয়ে নিউ জিল্যান্ড

উড়ে এল বাউন্সার, ছোঁড়া হলো ইয়র্কার। চ্যালেঞ্জ জানাল রিভার্স সুইং আর নিখুঁত লাইন-লেংথ। দিনজুড়ে সব সামলে নিলেন কেন উইলিয়ামসন। সোজা ব্যাট, আলতো হাত; রক্ষণ আর আক্রমণে চোখ জুড়ানো সৌন্দর্য। মাইলফলক ছোঁয়ার দিনে অসাধারণ এক অপরাজিত ইনিংসে নিউ জিল্যান্ডকে এগিয়ে নিলেন অধিনায়ক।

বাংলাদেশকে জেতালেন বোলার মুমিনুল-নাসির!

বাংলাদেশকে জেতালেন বোলার মুমিনুল-নাসির!

দলের অধিনায়ক ও সহ-অধিনায়ক তারা দুজন। সম্ভবত এই টুর্নামেন্টের সবচেয়ে বড় দুটি নামও। জয়ের নায়ক হওয়া তাই প্রত্যাশিতই। তবে খানিকটা চমক হয়ে এল দুজনের ভূমিকা। ইমার্জিং টিমস এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচে বল হাতে দলকে জেতালেন মুমিনুল হক ও নাসির হেসেন।

জাদেজার ব্যাটে ভারতের লিড

জাদেজার ব্যাটে ভারতের লিড

দিন শুরু হয়েছিল প্রায় সমতায়। কিন্তু দারুণ ব্যাটিংয়ে ভারতকে একটু এগিয়ে নিলেন রবীন্দ্র জাদেজা। ঋদ্ধিমান সাহার সঙ্গে জুটিতে ভারতকে এনে দিলেন লিড।

অভিষেকে পাকিস্তানের নায়ক শাদাব

অভিষেকে পাকিস্তানের নায়ক শাদাব

বল হাতে পেলেন পঞ্চম বোলার হিসেবে। দ্বিতীয় বলটিই রং-ওয়ান, পেলেন উইকেট। এক বল পরই আরেকটি উইকেট। তিন বল পর আরেকটি। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রথম ৮ বলেই ৩ উইকেট। শাদাব খান এলেন, দেখলেন, জয় করলেন।

লায়নের স্পিনে ভারতের ভোগান্তি

লায়নের স্পিনে ভারতের ভোগান্তি

টার্ন তো আছেই, মিলল দারুণ বাউন্স। নাথান লায়নের তো এই দুটিই চাই! আরও একবার ধ্রুপদী অফ স্পিনের দারুণ প্রদর্শনীতে ভারতের মিডল অর্ডার এলোমেলো করে দিলেন লায়ন। প্রথম দিনে ব্যাটিংয়ে দারুণ শুরুর পরও পথ হারানো অস্ট্রেলিয়া দ্বিতীয় দিনে ঘুরে দাঁড়াল বল হাতে।

দুর্দান্ত বাংলাদেশের দারুণ শুরু

দুর্দান্ত বাংলাদেশের দারুণ শুরু

ভিত গড়ে দিলেন তামিম ইকবাল-সাকিব আল হাসান। বোলিংয়ে সুরটা বেধে দিলেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। অনেক দিন পর দেখা গেল দুর্দান্ত ফিল্ডিং। শ্রীলঙ্কাকে সহজেই হারাল তিন বিভাগে নিজেদের মেলে ধরা বাংলাদেশ।

হ্যামিল্টনে চাপে দক্ষিণ আফ্রিকা

হ্যামিল্টনে চাপে দক্ষিণ আফ্রিকা

হ্যামিল্টন টেস্টের শুরুতেই চাপে পড়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। ম্যাট হেনরি ও কলিন ডি গ্র্যান্ডহোমের দারুণ বোলিংয়ে প্রথম দিন সুবিধাজনক অবস্থানে আছে নিউ জিল্যান্ড।

স্মিথের আরেকটি সেঞ্চুরি, কুলদিপের জাদু

স্মিথের আরেকটি সেঞ্চুরি, কুলদিপের জাদু

দিনের শুরুতেও আলোচনায় বিরাট কোহলি। ভারতের শঙ্কা সত্যি হয়ে ছিটকে গেছেন এই টেস্ট থেকে। পরে সেটিই হয়ে গেছে আশীর্বাদ! কোহলির বদলে জায়গা পাওয়া কুলদিপ যাদবই যে প্রথম দিনের নায়ক।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের ‘প্রথম’

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের ‘প্রথম’

পিচ রিপোর্ট দেওয়ার সময় ডিন জোন্স বলছিলেন, ‘এটা তিনশ রানের উইকেট নয়। ২৫০/২৬০ এখানে ভালো স্কোর।’ সেই উইকেটে বোলারদের ওপর চড়াও হলেন তামিম ইকবাল, সাকিব আল হাসান, সাব্বির রহমান। দাপুটে ব্যাটিংয়ে ওয়ানডেতে প্রথমবারের মতো শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তিনশ ছাড়ানো সংগ্রহ গড়েছে বাংলাদেশ।

ভারতকে হতাশ করলেন হ্যান্ডসকম-মার্শ

ভারতকে হতাশ করলেন হ্যান্ডসকম-মার্শ

পরীক্ষা ছিল টেকনিক, টেম্পারামেন্ট আর স্নায়ুর। সম্ভাবনার চেয়ে শঙ্কা ছিল বেশি। চোয়ালবদ্ধ লড়াইয়ে সেই কঠিন চ্যালেঞ্জ উতরে গেছেন পিটার হ্যান্ডসকম ও শন মার্শ। শেষ দিনে দুজনের অসাধারণ প্রতিরোধে মুখ থুবড়ে পড়েছে ভারতের জয়ের আশা। হারের শঙ্কা দূর করে অস্ট্রেলিয়া পেয়েছে জয়ের সমান ড্র।

পুজারার ডাবল সেঞ্চুরি, ঋদ্ধিমানের সেঞ্চুরি

পুজারার ডাবল সেঞ্চুরি, ঋদ্ধিমানের সেঞ্চুরি

তিন দিন লড়াই হয়েছে সমানে সমান। চতুর্থ দিনে একটু একটু করে বাড়ল ব্যবধান। ধৈর্যের পরীক্ষায় প্রতিপক্ষের জীবনীশক্তি যেন আস্তে আস্তে শুষে নিলেন চেতেশ্বর পুজারা আর ঋদ্ধিমান সাহা। শেষ বিকেলে অস্ট্রেলিয়ানদের পিঠ দেয়ালে ঠেকিয়ে দিলেন রবীন্দ্র জাদেজা।

দুর্দান্ত জয়ে নতুন শুরু

দুর্দান্ত জয়ে নতুন শুরু

মেহেদী হাসান মিরাজের সুইপ যখন ফিল্ডার ধরতে ব্যর্থ হলেন উৎসব শুরু করে দিয়েছেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। ব্যাটসম্যান নিজেও মেতেছিলেন জয়ের আনন্দে; এর মাঝেও প্রয়োজনীয় দুটি রান নিলেন দুই জনে, সীমানা থেকে ছুটে এল উচ্ছ্বসিত সতীর্থরা। শ্রীলঙ্কাকে প্রথমবারের মতো টেস্টে হারাল বাংলাদেশ, নিজেদের শততম টেস্টে।

লক্ষ্য কঠিন করে ফেলল বাংলাদেশ

লক্ষ্য কঠিন করে ফেলল বাংলাদেশ

বাংলাদেশ চেয়েছিল ১৬০ রানের লক্ষ্য, শ্রীলঙ্কা পুঁজি চেয়েছিল দুইশ রানের। নবম উইকেটের দৃঢ়তায় কাছাকাছি গেছে স্বাগতিকরাই। দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে দিতে পেরেছে ১৯১ রানের লক্ষ্য।

কামিন্সের তোপ, দেয়াল পুজারা

কামিন্সের তোপ, দেয়াল পুজারা

আগের দিন বিকেলে দেখা গেল একটু ঝলক। প্যাট কামিন্স এদিন দেখা দিলেন পূর্ণ রূপে। গতি, সুইং, রিভার্স সুইং, বাউন্সে কাঁপিয়ে দিলেন ভারতীয় ব্যাটিং লাইন আপ। তবে আগের বিকেলে ঝলক দেখানো আরেকজনও যে পুরোপুরি মেলে ধরলেন নিজেকে! কামিন্সের তোপের সামনে দেয়াল হয়ে রইলেন চেতেশ্বর পুজারা। করলেন অসাধারণ এক হার না মানা সেঞ্চুরি।

শততম টেস্ট স্মরণীয় করার স্বপ্ন

শততম টেস্ট স্মরণীয় করার স্বপ্ন

নিজের চার ওভারের মধ্যে মুস্তাফিজুর রহমান নিলেন ৩ উইকেট, সাকিব আল হাসান ২ উইকেট। ঘুরে গেল ম্যাচের মোড়। কলম্বো টেস্টের চালকের আসনে বসলো বাংলাদেশ। দুই বাঁহাতির দারুণ বোলিংয়ে নিজেদের শততম টেস্টে জয়ের আশায় বাংলাদেশ।

মহারাজের স্পিনে কুপোকাত নিউ জিল্যান্ড

মহারাজের স্পিনে কুপোকাত নিউ জিল্যান্ড

এগিয়ে থেকেই দিন শুরু করেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু দিন শেষ হতে হতে ম্যাচই শেষ হয়ে যাবে, ভাবতে পারেননি হয়ত তারাও! অভাবনীয় কিছুই করে দেখালেন কেশভ মহারাজ। পেস-বান্ধব বেসিন রিজার্ভে স্পিন জালে আটকালেন কিউইদের!

আগুনে কামিন্সকে সামলে ভারতের ভালো শুরু

আগুনে কামিন্সকে সামলে ভারতের ভালো শুরু

সাড়ে পাঁচ বছর পর টেস্টে ফিরেই আগুন ঝরিয়েছেন প্যাট কামিন্স। তবে সেই আগুন থেকে নিজেদের অনেকটাই রক্ষা করতে পেরেছে ভারত। অস্ট্রেলিয়ার চ্যালেঞ্জিং স্কোরের জবাব দেওয়ার শুরুটা তাই হয়েছে ভালো।

সাকিব-মোসাদ্দেকে বাংলাদেশের সেরা লিড

সাকিব-মোসাদ্দেকে বাংলাদেশের সেরা লিড

শেষ বেলার পাগলাটে ব্যাটিংয়ে লিডের আশা ছেড়েছিল বাংলাদেশ। স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা দেখেছিল অন্তত ৫০ রানের লিডের সুযোগ। তৃতীয় দিন সব হিসেব পাল্টে দিয়েছেন সাকিব আল হাসান ও মোসাদ্দেক হোসেন। তাদের দৃঢ়তায় নিজেদের শততম টেস্টে শতরানের লিড নিয়েছে মুশফিকুর রহিমের দল।

হার না মানা স্মিথ, দুর্দান্ত জাদেজা

হার না মানা স্মিথ, দুর্দান্ত জাদেজা

প্রথম সেঞ্চুরি করেই বিদায় নিয়েছেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। জুটিতে সঙ্গ দিয়ে ফিরেছেন ম্যাথু ওয়েড ও স্টিভেন ও’কিফ। কিন্তু হার মানেননি স্টিভেন স্মিথ। অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক শেষ পর্যন্ত থেমেছেন দল থেমে যাওয়ায়। অস্ট্রেলিয়াকে থামিয়েছেন রবিন্দ্র জাদেজা।

দক্ষিণ আফ্রিকার লেজের ঝাপটায় বেহাল নিউ জিল্যান্ড

দক্ষিণ আফ্রিকার লেজের ঝাপটায় বেহাল নিউ জিল্যান্ড

সকালটা ছিল নিউ জিল্যান্ডের জন্য স্বপ্নের মত। দুপুরের রোদে স্বপ্ন গেল মিলিয়ে। বিকেলে বাড়ল হতাশা। আর শেষ সময়টা যেন দুঃস্বপ্ন। দক্ষিণ আফ্রিকার জন্য দিনটি ঠিক উল্টো। দুঃস্বপ্নের শুরু আর স্বপ্নময় শেষ!

চেনা স্মিথ, অচেনা ম্যাক্সওয়েল

চেনা স্মিথ, অচেনা ম্যাক্সওয়েল

কারও মতে ‘ব্রেইন ফেইড’, কারও কাছে প্রতারণা। আলোচনা, সমালোচনা, বিতর্ক, কথার লড়াই। গত কিছু দিনে খবরের শিরোনাম হয়েছেন বারবার। কিন্তু যার ব্যাট কথা বলে সবচেয়ে ভালো, তার কেন ভালো লাগবে এসব! স্টিভেন স্মিথ জবাব দিলেন ব্যাট দিয়েই। উপহার দিলেন আরও একটি অসাধারণ সেঞ্চুরি!

ভালো শুরু বরবাদ শেষ বিকেলে

ভালো শুরু বরবাদ শেষ বিকেলে

সিরিজে টানা তৃতীয় ইনিংসে দলকে ভালো সূচনা এনে দিলেন তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকার। গলে দুবারই সতীর্থরা সুবিধা কাজে লাগাতে ব্যর্থ হয়েছিলেন। কলম্বোতেও প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ দল হাঁটছে সেই পথে।

নিকোলসের সেঞ্চুরির পর দুমিনি-চমক

নিকোলসের সেঞ্চুরির পর দুমিনি-চমক

মিডল অর্ডারে নেই রস টেইলরের ভরসা, নতুন বলে নেই ট্রেন্ট বোল্ট। ঘাসের ছোঁয়া থাকা উইকেটে টস হার। ম্যাচের শুরুতেই নেই টপ অর্ডারের তিন উইকেট। তার পরও দিন শেষে এগিয়ে নিউ জিল্যান্ড।

ভুল কৌশলের সুযোগ নিলেন চান্দিমাল

ভুল কৌশলের সুযোগ নিলেন চান্দিমাল

রক্ষণাত্মক ফিল্ডিং সাজিয়ে সুযোগটা করে দিয়েছিলেন মুশফিকুর রহিম। দুই হাতে সেটা কাজে লাগিয়েছেন দিনেশ চান্দিমাল। করেছেন ক্যারিয়ারের অষ্টম শতক, দলকে এনে দিয়েছেন তিনশ’ ছাড়ানো স্কোর।

সেই পি সারা ওভালে উজ্জ্বল বাংলাদেশ

সেই পি সারা ওভালে উজ্জ্বল বাংলাদেশ

ভালো দিনটিকে আরও ভালো করে রাখতে দ্বিতীয় নতুন বলে অন্তত একটি উইকেট চেয়েছিলেন মুশফিকুর রহিম। ঘন কালো মেঘে আলো কমে আসছে বুঝতে পেরে আক্রমণে এনেছিলেন সাকিব আল হাসানকে। কিন্তু মাত্র একটি বলই করতে পারলেন বাঁহাতি এই স্পিনার। শেষটা হয়তো মনমতো হয়নি কিন্তু দুঃস্বপ্নের পি সারা ওভালে শততম টেস্টের প্রথম দিনটি ভালো কেটেছে বাংলাদেশের।  

নিউ জিল্যান্ডের সামনে দেয়াল দু প্লেসি

নিউ জিল্যান্ডের সামনে দেয়াল দু প্লেসি

চার-চারটি ক্যাচ মিস। দুটি অসফল রিভিউ, একটি রিভিউ না নেওয়ার হতাশা। ডিন এলগারের প্রতিরোধ দীর্ঘসময় ভাঙতে না পারা। মূল ফাস্ট বোলারের চোট নিয়ে মাঠ ছাড়া। নিউ জিল্যান্ডের জন্য পুরো দিনটিই হতাশার হচ্ছিল। শেষ ঘন্টায় বদলে গেল চিত্র। শেষ সময়ে তিন উইকেট বদলে দিল ম্যাচেরই মোড়।

তিন ঘণ্টাতেই সব শেষ

তিন ঘণ্টাতেই সব শেষ

শর্ট লেগের ফিল্ডার চোখ সরিয়ে নেওয়ায় দিনের প্রথম বলে কোনোমতে বেঁচে গেলেন সৌম্য সরকার। আসেলা গুনারত্নের দ্বিতীয় বল ব্যাটের বাইরের কানা ফাঁকি দিয়ে বেলস উড়িয়ে দিল। ফিরে গেলেন বাঁহাতি উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান। দিক হারালো বাংলাদেশ।

তামিমের দৃঢ়তা, সৌম্যর পাল্টা আঘাত

তামিমের দৃঢ়তা, সৌম্যর পাল্টা আঘাত

ঘন কালো মেঘে আকাশ ঢেকে যাচ্ছে। আলো ক্রমশ কমছে। আসেলা গুনারত্নের ওভার শুরুর আগেই আলোকস্বল্পতা নিয়ে আম্পায়ার এরাসমাসের দৃষ্টি আকর্ষণ করলেন নন স্ট্রাইকার তামিম ইকবাল। খানিক পরেই লাইট মিটার, আলোর অভাবে স্থানীয় সময় সাড়ে পাঁচটার একটু আগে বন্ধ হয়ে গেল খেলা।

বাজে বোলিং-ফিল্ডিংয়ে বিশাল লক্ষ্য পেল বাংলাদেশ

বাজে বোলিং-ফিল্ডিংয়ে বিশাল লক্ষ্য পেল বাংলাদেশ

নিজেদের পরিকল্পনায় সফল শ্রীলঙ্কা। শতক করেছেন উপুল থারাঙ্গা, অর্ধশতক পেয়েছেন দিনেশ চান্দিমাল। চতুর্থ দিন ওভার প্রতি প্রায় চার করে রান সংগ্রহ করা দলটি বাংলাদেশকে দিয়েছে ৪৫৭ রানের বিশাল লক্ষ্য। প্রতিপক্ষকে অলআউট করার জন্য প্রায় চার সেশন সময় পেয়েছে স্বাগতিকরা।

হেলস-রুটের সেঞ্চুরিতে হোয়াইওয়াশড ওয়েস্ট ইন্ডিজ

হেলস-রুটের সেঞ্চুরিতে হোয়াইওয়াশড ওয়েস্ট ইন্ডিজ

আলজারি জোসেফের শর্ট বলে পুল শট। ব্যাটে ওপরের কানায় লেগে ফাইন লেগের ওপর দিয়ে ছক্কা। ব্যাটসম্যানের বাঁধনহারা উল্লাস। ধারাভাষ্য কক্ষে ফাজির মোহাম্মদের উচ্চারণ, “অ্যালেক্স হেলস… ইনজুরড ইন ইন্ডিয়া, সেঞ্চুরি অ্যাট বারবাডোজ!”

মিরাজকে নিয়ে লড়লেন কেবল মুশফিক

মিরাজকে নিয়ে লড়লেন কেবল মুশফিক

গলের উইকেটে এখনও খুব ভয়ের কিছু নেই। চোয়ালবদ্ধ প্রতিজ্ঞা নিয়ে মাঠে নামলে কাটিয়ে দেওয়া যায় লম্বা সময়। অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম নেতৃত্ব দিলেন সামনে থেকেই। কিন্তু সতীর্থরা ব্যর্থ তাকে অনুসরণ করতে।

বোল্টের সুইং, উইলিয়ামসনের প্রশান্তি

বোল্টের সুইং, উইলিয়ামসনের প্রশান্তি

মন্থর উইকেটেও ট্রেন্ট বোল্টের লেট সুইংয়ের জাদু। কেন উইলিয়ামসনের ব্যাটে বরাবরের নির্ভরতা, চোখ আর মনকে প্রশান্তি দেওয়া শটের সমাহার। ম্যাড়ম্যাড়ে ক্রিকেটের প্রথম দিনে এগিয়ে ছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। দারুণ লড়াইয়ের পর দ্বিতীয় দিনে এগিয়ে গেল নিউ জিল্যান্ড।

চমৎকার শুরুর পর চাপে বাংলাদেশ

চমৎকার শুরুর পর চাপে বাংলাদেশ

পেছনের পায়ে গিয়ে খেললেন মুমিনুল হক। ব্যাট ফাঁকি দিয়ে প্যাডে আঘাত হানলো বল। আম্পায়ার এলবিডব্লিউ দেওয়ার পর রিভিউ নেওয়ার জন্য দাঁড়াননি বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। চমৎকার শুরুর পর চাপে পড়ে গেল বাংলাদেশ।

এলগারের সেঞ্চুরিতে উদ্ধার দক্ষিণ আফ্রিকা

এলগারের সেঞ্চুরিতে উদ্ধার দক্ষিণ আফ্রিকা

টস জিতে ফাফ দু প্লেসি এমন সিদ্ধান্ত নিলেন, গত ৬ বছরে যে পথে পা বাড়াননি কেউ। ২০১১ সালের জানুয়ারি থেকে টানা ২২ টেস্ট পর নিউ জিল্যান্ডের মাটিতে টস জিতে ব্যাটিং নিলেন কেউ! শুরুটা যেমন ছিল, তাতে মনে হচ্ছিলো সিদ্ধান্তের জন্য পস্তাবেন প্রোটিয়া অধিনায়ক। তবে ডিন এলগারের দারুণ সেঞ্চুরিতে দূর হয়েছে দুর্ভাবনা।

মিরাজের স্পিনে ঘুরে দাঁড়াল বাংলাদেশ

মিরাজের স্পিনে ঘুরে দাঁড়াল বাংলাদেশ

দিনের দ্বিতীয় বলে কুসল মেন্ডিসের শট সীমানার ঠিক সামনে কোনোমতে ফেরালেন ফিল্ডার, এলো তিন রান। চতুর্থ বলে উড়ালেন নিরোশান ডিকভেলা, মিডউইকেট দিয়ে বিশাল ছক্কা। আগের দিন যেখান শেষ করেছিলেন তারা শুরু করলেন ঠিক সেখান থেকেই। বাংলাদেশের জন্য এমন হতাশার শুরুর পরও মেহেদী হাসান মিরাজের নৈপুণ্যে শেষটায় হাসিমুখেই মাঠ ছাড়ল অতিথিরা। 

মেন্ডিসের দৃঢ়তায় চাপে বাংলাদেশ

মেন্ডিসের দৃঢ়তায় চাপে বাংলাদেশ

মুখোমুখি হওয়া প্রথম বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিলেন কুসল মেন্ডিস। ‘নো’ বলের কল্যাণে বেঁচে গেলেন তরুণ এই ডানহাতি ব্যাটসম্যান। ষষ্ঠ ওভারে ক্রিজে এসে টিকে থাকলেন সারা দিন। বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথম টেস্টের প্রথম দিনই ম্যাচের লাগাম হাতে নিল শ্রীলঙ্কা।

অশ্বিনের স্পিনে ভারতের অসাধারণ জয়

অশ্বিনের স্পিনে ভারতের অসাধারণ জয়

লড়াইয়ের ক্ষেত্র তৈরি করে দিয়েছিল চেতেশ্বর পুজারা ও অজিঙ্কা রাহানে জুটি। রবিচন্দ্রন অশ্বিনের স্পিনে সেই লড়াইয়ে জয়। অনেকবার ম্যাচের লাগাম হাত বদল হওয়ার রোমাঞ্চকর টেস্টে অসাধারণ জয়ে সিরিজে সমতা ফেরাল ভারত। জিইয়ে রাখল বোর্ডার-গাভাস্কার ট্রফি ফিরিয়ে আনার আশা।

হেইজেলউডের ৬ উইকেট, অস্ট্রেলিয়ার চাই ১৮৮

হেইজেলউডের ৬ উইকেট, অস্ট্রেলিয়ার চাই ১৮৮

আগের দিনের জুটিকে আরও এগিয়ে নিচ্ছিলেন চেতেশ্বর পুজারা ও অজিঙ্কা রাহানে। দ্বিতীয় নতুন বলে সব ওলট-পালট করে দিলেন মিচেল স্টার্ক ও জস হেইজেলউড।

জাদেজার পর পুজারা-রাহানের দারুণ লড়াই

জাদেজার পর পুজারা-রাহানের দারুণ লড়াই

প্রথম সেশনের নায়ক রবীন্দ্র জাদেজা। শেষ সেশনে চেতেশ্বর পুজারা ও অজিঙ্কা রাহানে। মাঝের সেশনে আলো ছড়িয়েছেন জস হেইজেলউড। তবে শুরু আর শেষ সেশনই নিশ্চিত করেছে, দিনটি ভারতের।

জাদেজার ৬ উইকেট, অস্ট্রেলিয়ার লিড ৮৭

জাদেজার ৬ উইকেট, অস্ট্রেলিয়ার লিড ৮৭

ভারতের চাওয়া ছিল ২৫-৩০ রানের বেশি করতে না দেওয়া। অস্ট্রেলিয়া করতে পারল সামান্য বেশি। তার পরও খুশি থাকার কথা ভারতীয়দের। অস্ট্রেলিয়ার লিড ছুঁতে পারেনি তিন অঙ্ক।

ধস সামলে রুট-ওকসের সিরিজ জয়

ধস সামলে রুট-ওকসের সিরিজ জয়

মাঝারি লক্ষ্যটা হঠাৎই হয়ে উঠেছিল কঠিন। ক্যারিবিয়ান স্পিনে এলোমেলো ইংলিশ ইনিংস। কিন্তু বিপর্যয়ে যে বরাবরই চওড়া জো রুটের ব্যাট! দলের প্রয়োজনে দারুণ এক ইনিংস উপহার দিলেন ক্রিস ওকসও। শঙ্কা কাটিয়ে ইংল্যান্ড জিতল ম্যাচ। জিতে নিল সিরিজও।

দারুণ লড়াইয়ের পর এগিয়ে অস্ট্রেলিয়া

দারুণ লড়াইয়ের পর এগিয়ে অস্ট্রেলিয়া

সারা দিনে উইকেট পড়েছে ছয়টি, রান উঠেছে দুইশর কম। এই হিসাব বলবে, মন্থর ক্রিকেটের বিরক্তির একটি দিন। কিন্তু স্কোরকার্ড যে একটি আস্ত গাধা, সেটি তো ক্রিকেটের বহু পুরোনো এক প্রবচন!

টানা ৭ সিরিজ জয়ে শীর্ষেই দক্ষিণ আফ্রিকা

টানা ৭ সিরিজ জয়ে শীর্ষেই দক্ষিণ আফ্রিকা

নিউ জিল্যান্ডের টপ ও মিডল অর্ডারে ছোবল দিলেন পেসাররা। দুর্দান্ত বোলিংয়ে আরও চেপে ধরলেন ইমরান তাহির। রান তাড়ার শুরুটা ভালো না হলেও শেষ পর্যন্ত জয়টা হলো অনায়াস। টানা সপ্তম সিরিজ জয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা নিশ্চিত করল র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থাকা।

মর্গ্যানের সেঞ্চুরির পর প্লাঙ্কেট-ওকসের জোড়া চার

মর্গ্যানের সেঞ্চুরির পর প্লাঙ্কেট-ওকসের জোড়া চার

অভিজ্ঞতার ব্যবধানটা আলোচিত ছিল ম্যাচের আগে থেকেই। এই ম্যাচের আগে ওয়েন মর্গ্যান খেলেছেন ১৭৩ ওয়ানডে, ওয়েস্ট ইন্ডিজের সবাই মিলে ১৫৭টি! ওয়ানডেতে যদিও সেটি খুব বড় ব্যাপার নয়, তার পরও শেষ পর্যন্ত পার্থক্য গড়ে দিলেন সেই মর্গ্যানই।

নিউ জিল্যান্ড ২৮০, গাপটিল অপরাজিত ১৮০

নিউ জিল্যান্ড ২৮০, গাপটিল অপরাজিত ১৮০

মন্থর উইকেট। মাঝ বিরতিতে ২৮০ রানের লক্ষ্যটা একটু বেশিই মনে হচ্ছিলো কেন উইলিয়ামসনের। সেই ম্যাচ শেষ ৫ ওভার আগেই, নিউ জিল্যান্ড অধিনায়কের মুখে জয়ের হাসি। কঠিন কাজটি অনায়াস হয়ে গেল অসাধারণ এক ইনিংসে, যেটিকে উইলিয়ামসন বলছেন, কঠিন উইকেটে তার দেখা সেরা ইনিংস!

৫৪ রানে অলআউট জিম্বাবুয়ে!

৫৪ রানে অলআউট জিম্বাবুয়ে!

টানা দুই ম্যাচ জিতে দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়ানো জিম্বাবুয়ের শেষরক্ষা হলো না। মোহাম্মদ নবির অলরাউন্ড নৈপুণ্যে স্বাগতিকদের গুঁড়িয়ে দিয়ে তাদের বিপক্ষে টানা তৃতীয় সিরিজ জিতেছে আফগানিস্তান।

ডি ভিলিয়ার্স আর ৪ পেসারে উড়ে গেল নিউ জিল্যান্ড

ডি ভিলিয়ার্স আর ৪ পেসারে উড়ে গেল নিউ জিল্যান্ড

কুইন্টন ডি ককের রেকর্ড গড়া টানা পঞ্চম অর্ধশতক। রেকর্ড গড়া ৯ হাজারে আরও এগিয়ে এবি ডি ভিলিয়ার্স। চার পেসারে কিউই ব্যাটিং গুঁড়িয়ে যাওয়া। সবকিছুর যোগফল, দক্ষিণ আফ্রিকার বিশাল জয়।

ও’কিফের স্পিনে বিধ্বস্ত ভারত

ও’কিফের স্পিনে বিধ্বস্ত ভারত

আম্পায়ারের আঙুল যখন উঠছে, অস্ট্রেলিয়ানরা তখন উড়ছে। উল্লাস বাঁধনহারা। প্রায় সব ফিল্ডার ছিলেন কাছাকাছিই। সবাই এক হয়ে আনন্দ জটলায় চলল উৎসব। শেষ উইকেটটি নিলেন নাথান লায়ন। তার পিঠ চাপড়ানো শেষে উদযাপনের মধ্যমণি স্টিভেন ও’কিফ। তার স্পিনেই তো ধ্বংস ভারত!

আফগানিস্তানকে গুঁড়িয়ে সমতায় জিম্বাবুয়ে

আফগানিস্তানকে গুঁড়িয়ে সমতায় জিম্বাবুয়ে

কাজটা সেরে রেখেছিলেন বোলাররা, বাকিটুকু সহজেই সেরেছেন সলোমন মায়ার, পিটার মুররা। আফগানিস্তানকে এবার গুঁড়িয়ে দিয়েছে আগের ম্যাচে কোনোমতে জেতা জিম্বাবুয়ে।

তিন ‘জীবনে’ দলকে টানছেন স্মিথ

তিন ‘জীবনে’ দলকে টানছেন স্মিথ

মুরালি বিজয় হাতছাড়া করলেন প্রথম সুযোগ। অতিরিক্ত ফিল্ডার অভিনব মুকুন্দ বাঁচিয়ে দিলেন আরও দুবার। তাতে আরও ভারী হলো ভারতের ভার। তিন বার জীবন পেয়ে স্টিভেন স্মিথ বাড়িয়ে চলেছেন অস্ট্রেলিয়ার লিড।

৪ ওভারের ভেল্কিতে ভারতকে গুঁড়িয়ে দিলেন ও’কিফ

৪ ওভারের ভেল্কিতে ভারতকে গুঁড়িয়ে দিলেন ও’কিফ

নতুন বল পেয়েছিলেন সকালে। কিন্তু বোলিং হলো খানিকটা এলোমেলো। বিবর্ণ ছোট্ট দ্বিতীয় স্পেলেও। কিন্তু সেই স্টিভেন ও’কিফ তৃতীয় স্পেলে হয়ে উঠলেন যেন জাদুকর। দারুণ স্পিন ভেল্কিতে চোখের পলকে গুঁড়িয়ে দিলেন ভারতকে।

অস্ট্রেলিয়ার ‘স্টার’ ব্যাটসম্যান স্টার্ক

অস্ট্রেলিয়ার ‘স্টার’ ব্যাটসম্যান স্টার্ক

ম্যাচের দ্বিতীয় ওভারে স্পিন। শুরু থেকেই পিচে ধুলোর ওড়াওড়ি, বোলারের বুটের ক্ষত। চতুর্থ ওভার থেকে তীক্ষ্ণ টার্ন। মাঝেমধ্যেই অসমান বাউন্স। ধারাভাষ্য কক্ষে থাকা শেন ওয়ার্ন প্রথম সেশনের পরই বললেন, “এখনই মনে হচ্ছে অষ্টম দিনের উইকেট!”

জ্যাম্পার স্পিনে অস্ট্রেলিয়ার জয়

জ্যাম্পার স্পিনে অস্ট্রেলিয়ার জয়

অ্যাডাম জ্যাম্পার স্পিনে তৃতীয় টি-টোয়েন্টিতে জিতেছে অস্ট্রেলিয়া। দেশটিতে টানা তৃতীয় সিরিজ জেতা শ্রীলঙ্কা শেষ ম্যাচে হেরে গেছে ৪১ রানে।

রেকর্ড গড়া টেইলরে থামল দ. আফ্রিকার জয়যাত্রা

রেকর্ড গড়া টেইলরে থামল দ. আফ্রিকার জয়যাত্রা

রস টেইলরের অর্জনের দিনে রোমাঞ্চকর লড়াইয়ে জিতেছে নিউ জিল্যান্ড। নিজেদের টানা জয়ের রেকর্ড স্পর্শের পরের ম্যাচেই হেরে গেল দক্ষিণ আফ্রিকা।

নাটকীয় জয়ে সিরিজে টিকে জিম্বাবুয়ে

নাটকীয় জয়ে সিরিজে টিকে জিম্বাবুয়ে

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টানা তৃতীয় সিরিজ জিততে এক সময় আফগানিস্তানের দরকার ছিল ৯ রান, হাতে ছিল ৫ উইকেট। বোলারদের দাপটের ম্যাচে সেই সমীকরণ মেলাতে পারেনি দলটি। তৃতীয় ওয়ানডেতে ৩ রানের নাটকীয় জয়ে সিরিজে টিকে আছে জিম্বাবুয়ে।

রশিদ, নবির স্পিনে আফগানিস্তানের জয়

রশিদ, নবির স্পিনে আফগানিস্তানের জয়

শেষ ১৭ ওভারে প্রয়োজন ৮৯ রান, হাতে ৬ উইকেট। ঘরের মাঠে চেনা কন্ডিশনে আফগানিস্তানের বিপক্ষে এই সমীকরণও মেলাতে পারেনি জিম্বাবুয়ে। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে গ্রায়েম ক্রেমারের দল হেরেছে ৫৪ রানে।

গুনারত্নের অসাধারণ ইনিংসে সিরিজ শ্রীলঙ্কার

গুনারত্নের অসাধারণ ইনিংসে সিরিজ শ্রীলঙ্কার

আবার শেষ বলে চার হজম করে হারলো অস্ট্রেলিয়া। আবার ঝড় তুললেন অসেলা গুনারত্নে, এবার ম্যাচ শেষ করে এলেন তিনি। তার দুর্দান্ত এক ইনিংসে অস্ট্রেলিয়ায় টি-টোয়েন্টিতে সিরিজ জয়ের হ্যাটট্রিক করেছে শ্রীলঙ্কা।

শ্রীলঙ্কার কাছে হেরে রুমানাদের স্বপ্নভঙ্গ

শ্রীলঙ্কার কাছে হেরে রুমানাদের স্বপ্নভঙ্গ

বিশ্বকাপের আশা বাঁচিয়ে রাখতে জয়ের কোনো বিকল্প ছিল না রুমানা আহমেদের দলের। কিন্তু স্বাগতিক শ্রীলঙ্কার সঙ্গে লড়াই-ই করতে পারেনি বাংলাদেশ। ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে সুপার সিক্সে নিজেদের শেষ ম্যাচে ৪২ রানে হেরেছে দলটি।

দারুণ জয়ে রেকর্ড স্পর্শ করল দক্ষিণ আফ্রিকা

দারুণ জয়ে রেকর্ড স্পর্শ করল দক্ষিণ আফ্রিকা

এবি ডি ভিলিয়ার্স ছিলেন বাধা হয়ে। তাকে সামলানোতেই হয়ত ছিল কিউইদের মনোযোগ। কিন্তু ম্যাচটা বের করে নিয়ে গেলেন আন্দিলে ফেলুকওয়েয়ো। শেষ তুলির আঁচড়টা অবশ্য ডি ভিলিয়ার্সই দিলেন। দারুণ জয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা স্পর্শ করল নিজেদের রেকর্ড।

মালিঙ্গার ফেরার ম্যাচে শ্রীলঙ্কার নাটকীয় জয়

মালিঙ্গার ফেরার ম্যাচে শ্রীলঙ্কার নাটকীয় জয়

ভারত সফরে মাঠে প্রথম দিনটি দারুণ কাটলো স্টিভেন স্মিথের। শতক করে স্বেচ্ছায় ছেড়েছেন মাঠ। সেই খুশি মিলিয়ে যেতে পারে টিভিতে অস্ট্রেলিয়ার খেলা দেখতে গিয়ে। দেশের মাটিতে শ্রীলঙ্কার কাছে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে হেরে গেছে তার সতীর্থরা।

নিউ জিল্যান্ডকে উড়িয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার শুরু

নিউ জিল্যান্ডকে উড়িয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার শুরু

আগের ৩৬ ঘণ্টায় তুমুল বৃষ্টি হয়েছে অকল্যান্ডে। ম্যাচটি নিয়েই ছিল শঙ্কা। শেষ পর্যন্ত বৃষ্টি থামলেও উঠল ঝড়। ব্যাট-বলের সেই ‘প্রোটিয়া ঝড়ে’ উড়েই গেল নিউ জিল্যান্ড।

আফগানিস্তানের কাছে হেরেই চলেছে জিম্বাবুয়ে

আফগানিস্তানের কাছে হেরেই চলেছে জিম্বাবুয়ে

আসগর স্তানিকজাইয়ের অর্ধশতকে জয় দিয়ে জিম্বাবুয়ে সফর শুরু করেছে আফগানিস্তান। বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচে ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে ১২ রানে জিতেছে দলটি।

শেষটায়ও মিশে থাকল আক্ষেপ

শেষটায়ও মিশে থাকল আক্ষেপ

সূর্যের তেজ তখনও প্রখর। দিনের খেলার বাকি প্রায় ২৫ ওভার। রানের হিসেবেও বাংলাদেশের হারের ব্যবধান বিশাল। তার পরও শেষটায় মিশে থাকল আক্ষেপ। একজন কামরুল ইসলাম রাব্বি বা মেহেদী হাসান মিরাজকে দেখেও কি বিব্রত হবেন না মূল ব্যাটসম্যানরা?

অপেক্ষায় শঙ্কা আর সম্ভাবনার শেষ দিন

অপেক্ষায় শঙ্কা আর সম্ভাবনার শেষ দিন

অফ স্টাম্পের বাইরে পড়ে বেশ খানিকটা ভেতরে ঢুকল বল। সাকিব আল হাসান ছেড়ে দিয়েছিলেন। অল্পের জন্য বল স্পর্শ করল না অফ স্টাম্প। দারুণ লেগ ব্রেক। তবে বোলারের নামটি চমকে দেবে। রবিচন্দ্রন অশ্বিন!

ব্যাটসম্যানদের কাঁধে ম্যাচ বাঁচানোর ভার

ব্যাটসম্যানদের কাঁধে ম্যাচ বাঁচানোর ভার

চা-বিরতির সময় দেখা গেল অনুশীলন উইকেটে বোলিং করছেন ভুবনেশ্বর-ইশান্তরা। চিত্রটা পরিষ্কার হয়ে গেল তখনই। দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করেছে ভারত। শেষ ইনিংসে বাংলাদেশের সামনে লক্ষ্য ৪৫৯ রান।

মুশফিক বীরত্বে চারশর কাছে বাংলাদেশ

মুশফিক বীরত্বে চারশর কাছে বাংলাদেশ

রচিন্দ্রন অশ্বিনের রেকর্ডটি শেষ পর্যন্ত হলো। মুশফিকুর রহিমও আউট হলেন। তবে অশ্বিনের উচ্ছ্বাস দেখা গেল না। মুশফিকের চেহারায় অনেকটাই স্বস্তির ছাপ। অসাধারণ এক সেঞ্চুরি করেছেন। তার চেয়েও বড় কথা, প্রায় লাঞ্চ পর্যন্ত টেনেছেন দলকে। তাতে ফলো অন এড়ানো না গেলেও ভারত আবার নেমেছে ব্যাটিংয়ে।

মুশফিক-মিরাজের হাতে আশার বৈঠা

মুশফিক-মিরাজের হাতে আশার বৈঠা

রবীন্দ্র জাদেজার বলে মুশফিকুর রহিমের সুইপ। ফিল্ডারদের নড়ার সুযোগ না দিয়ে চার। প্রেসবক্সের ঘোষক ঠিক ওই সময়টাতেই জানাচ্ছিলেন, মাঠের দর্শক ২১ হাজার ৯০০। কিন্তু গ্যালারিতে আলোড়ন খুব একটা নেই! দিনের বেশির ভাগ জুড়েই ছিল চিৎকার-হল্লা। শেষ ভাগটায় সেখানে নীরবতা নামাতে পেরেছেন মুশফিক ও মিরাজ!

আমলা, ডি ককের শতকে হোয়াইটওয়াশড শ্রীলঙ্কা

আমলা, ডি ককের শতকে হোয়াইটওয়াশড শ্রীলঙ্কা

হার দিয়েই শেষ হলো শ্রীলঙ্কার দক্ষিণ আফ্রিকা সফর। হাশিম আমলা ও কুইন্টন ডি ককের শতকে পঞ্চম ও শেষ ওয়ানডেতে সহজ জয় পেয়েছে এবি ডি ভিলিয়ার্সের দল।

ভারতের রেকর্ডে পিষ্ট বাংলাদেশ

ভারতের রেকর্ডে পিষ্ট বাংলাদেশ

মুখরোচক কোনো বুফে মেন্যুতে কী কী থাকতে পারে? রেস্তোরাঁ নয়, বলা হচ্ছে ২২ গজের কথা। ব্যাটসম্যানদের কাঙ্ক্ষিত তালিকায় থাকতে পারে শর্ট বল, বাইরে বল, হাফ ভলিসহ আলগা বোলিংয়ের সব পদ; বাজে ফিল্ডিং, ক্যাচ ছাড়া, স্টাম্পিং মিস, ম্যাড়মেড়ে শরীরী ভাষা, একঘেয়ে ও কল্পনাশক্তিহীন নেতৃত্ব। অতিথি হয়ে এসে বাংলাদেশই অতিথি-সেবা করল এই সব দিয়ে। সুস্বাদু সব খাবার পেয়ে গোগ্রাসে গিলল ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা।

শুরু আর শেষে কত অমিল!

শুরু আর শেষে কত অমিল!

প্রভাত সবসময় দিনের পূর্বভাস দেয় না। উইকেটের চেহারার প্রতিফলনও সবসময় পড়ে না আচরণে। নতুন কিছু নয় কেনোটিই। তবে ভারতের মাটিতে প্রথম টেস্টের প্রথম দিনে নতুন করে আবার সেই অভিজ্ঞতা হলো বাংলাদেশের।

দু প্লেসির দারুণ শতকে দ.আফ্রিকার জয়

দু প্লেসির দারুণ শতকে দ.আফ্রিকার জয়

সিরিজে প্রথম অর্ধশতক করলেন কুইন্টন ডি কক, ক্যারিয়ারের পঞ্চাশতম অর্ধশতক পেলেন এবি ডি ভিলিয়ার্স। দুই জনকে পেছনে ফেলে সবটুকু আলো কেড়ে নিলেন ফাফ দু প্লেসি। ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস খেলে দলকে এনে দিলেন দারুণ জয়।

টেইলরের রেকর্ড ছোঁয়া শতকে সিরিজ নিউ জিল্যান্ডের

টেইলরের রেকর্ড ছোঁয়া শতকে সিরিজ নিউ জিল্যান্ডের

তাসমান পারের দুই দেশের লড়াইয়ে শেষ হাসি নিউ জিল্যান্ডের। রস টেইলরের রেকর্ড ছোঁয়া শতকে সিরিজ জিতেছে কেন উইলিয়ামসনের দল। চ্যাপেল-হ্যাডলি ট্রফি ঘরে তুলতে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং করা ট্রেন্ট বোল্টের রয়েছে দারুণ অবদান।

সহজ জয়ে সিরিজ দ. আফ্রিকার

সহজ জয়ে সিরিজ দ. আফ্রিকার

সিরিজ বাঁচিয়ে রাখতে জয়ের বিকল্প ছিল না শ্রীলঙ্কার। কিন্তু ব্যাটিং ব্যর্থতায় লড়াইও করতে পারেনি অতিথিরা। ডোয়াইন প্রিটোরিয়াসের ক্যারিয়ার সেরা বোলিং আর অধিনায়ক এবি ডি ভিলিয়ার্স দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে সহজ জয় পেয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা।  

মিলার, দু প্লেসির শতকে দ.আফ্রিকার বড় জয়

মিলার, দু প্লেসির শতকে দ.আফ্রিকার বড় জয়

ডেভিড মিলার ও ফাফ দু প্লেসির শতকে তিনশ’ ছাড়ানো স্কোর গড়া দক্ষিণ আফ্রিকা জিতেছে সহজেই। বড় পুঁজি পাওয়ার পর বোলারদের নৈপুণ্যে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে শ্রীলঙ্কাকে ১২১ রানে হারিয়েছে এবি ডি ভিলিয়ার্সের দল।

চাহালের স্পিনে সিরিজ ভারতের

চাহালের স্পিনে সিরিজ ভারতের

লম্বা সময় পর অর্ধশতক পেলেন সুরেশ রায়না। ক্যারিয়ার সেরা ব্যাটিং করলেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। ঝড় তুললেন যুবরাজ সিং। কিন্তু দিন শেষে সবটুকু আলো কেড়ে নিলেন উজবেন্দ্র চাহাল। তার লেগ স্পিনেই টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতেছে ভারত।

স্টয়নিসের অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়েও অস্ট্রেলিয়ার হার

স্টয়নিসের অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়েও অস্ট্রেলিয়ার হার

অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়ে প্রথম ওয়ানডেতে অস্ট্রেলিয়াকে প্রায় অসম্ভব এক জয়ের দিকে নিয়ে গিয়েছিলেন মার্কাস স্টয়নিস। জয় যখন তার দলের হাত ছোঁয়া দূরত্বে, তখনই ১১ নম্বর ব্যাটসম্যান জশ হেইজেলউডকে রান আউট করে নাটকীয় জয় তুলে নিয়েছে নিউ জিল্যান্ড।

দুর্দান্ত শেষ ওভারে ভারতের জয়ের নায়ক বুমরাহ

দুর্দান্ত শেষ ওভারে ভারতের জয়ের নায়ক বুমরাহ

আগের তিন ওভারে আঁটসাঁট বোলিং করা আশিষ নেহরার খরুচে শেষ ওভারে ম্যাচ চলে যায় ইংল্যান্ডের হাতের মুঠোয়। সিংহের থাবা থেকে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ছিনিয়ে নিতে অসাধারণ এক শেষ ওভার করেন জাসপ্রিত বুমরাহ। মাত্র দুই রান দিয়ে ২ উইকেট তুলে নিয়ে ভারতের জয়ের নায়ক এই পেসারই।

মর্গ্যান-রুটের ব্যাটে ভারতকে হারাল ইংল্যান্ড

মর্গ্যান-রুটের ব্যাটে ভারতকে হারাল ইংল্যান্ড

প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ভারতের ব্যাটসম্যানদের বেঁধে রেখে লক্ষ্যটা নাগালে রেখেছিলেন বোলাররা। বাকিটুকু সারতে কোনো সমস্যা হয়নি ওয়েন মর্গ্যান ও জো রুটের। তাদের দৃঢ়তাভরা ব্যাটিংয়ে সহজ জয় পেয়েছে ইংল্যান্ড।

আরও একবার আশা ভঙ্গের গল্প

আরও একবার আশা ভঙ্গের গল্প

অনেক আশা নিয়ে শুরু। আশার পালে শুরুর দিকে জোর হাওয়া। মাঝ দরিয়া পার হতে না হতেই হঠাৎ তরী টালমাটাল। শেষ পর্যন্ত তীরের অনেক দূরেই ডুবে যাওয়া। সফরের শুরু থেকে চলছে একই চক্র। আসলে বছরের পর বছর ধরেই। বাংলাদেশ সেই আশাভঙ্গের পুরোনো ও চেনা গল্প!

নিকোলস আর কিউই লেজের ঝাপটা

নিকোলস আর কিউই লেজের ঝাপটা

বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়া দিন ভাসিয়ে নিল যেন বাংলাদেশের শরীরী ভাষা ও মোমেন্টামও। দ্বিতীয় দিনে দাপুটে বাংলাদেশ চতুর্থ দিন সকালে বিবর্ণ। লিড পাওয়ার আশায় শুরু হয়েছিল দিন, উল্টো গুণতে হলো বড় লিড।

বোলারদের ম্যাচে নায়ক ম্যাথিউস

বোলারদের ম্যাচে নায়ক ম্যাথিউস

কম রানের রোমাঞ্চকর ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে দারুণ জয় এনে দিয়েছেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস। শেষ ওভারে দারুণ দুই ছক্কা হাঁকিয়ে বোলারদের ম্যাচে ব্যবধান গড়ে দিয়েছেন লঙ্কান অধিনায়ক। 

ইডেন গার্ডেন্সে ইংল্যান্ডের নাটকীয় জয়

ইডেন গার্ডেন্সে ইংল্যান্ডের নাটকীয় জয়

রান উৎসবের ম্যাচে দারুণ শেষ ওভারে সব আলো কেড়ে নিলেন দলকে নাটকীয় জয় এনে দেওয়া ইংলিশ পেসার ক্রিস ওকস। তার জন্যই চার বলে ৬ রানের সমীকরণ মেলাতে পারেনি ভারত।

ওয়ার্নারের শতকে সিরিজ অস্ট্রেলিয়ার

ওয়ার্নারের শতকে সিরিজ অস্ট্রেলিয়ার

ফিল্ডিংয়ের ভুল ব্যাটিংয়ে পুষিয়ে নিতে পারেনি পাকিস্তান। শারজিল খানের ব্যাটে পাওয়া দারুণ শুরুটাও ধরে রাখতে পারেনি অতিথিরা। ডেভিড ওয়ার্নারের দারুণ শতকে বড় সংগ্রহ গড়া অস্ট্রেলিয়া জিতেছে সহজেই। এক ম্যাচ হাতে রেখেই নিশ্চিত করেছে সিরিজ।

মিলার ঝড়ে দক্ষিণ আফ্রিকার জয়

মিলার ঝড়ে দক্ষিণ আফ্রিকার জয়

আশা জাগিয়েও প্রথম টি-টোয়েন্টিতে পেরে উঠেনি শ্রীলঙ্কা। ডেভিড মিলারের বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ের পর তরুণ লুনগি নগিদির দারুণ বোলিংয়ে ১৯ রানে জিতেছে দক্ষিণ আফ্রিকা।

বিব্রতকর হারে সিরিজ শেষ রুমানাদের

বিব্রতকর হারে সিরিজ শেষ রুমানাদের

বাংলাদেশের মেয়েরা সিরিজ হেরেছিল আগেই। বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের আগে নিজেদের আত্মবিশ্বাস ফিরে পাওয়ার সুযোগ ছিল রুমানা আহমেদের দলের। সেখানে ব্যর্থ স্বাগিতকরা। ৬৮ রানে অলআউট হয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার মেয়েদের কাছে পঞ্চম ও শেষ ওয়ানডেতে হেরেছে ৮ উইকেটে।

যুবরাজ-ধোনির শতকে ভারতের সিরিজ জয়

যুবরাজ-ধোনির শতকে ভারতের সিরিজ জয়

প্রায় পাঁচ বছর পর তিন অঙ্কের দেখা পেলেন যুবরাজ সিং। সঙ্গে নেতৃত্ব ছাড়ার পর মহেন্দ্র সিং ধোনির প্রথম শতকে রানের পাহাড় গড়লো ভারত। ওয়েন মর্গ্যানের অধিনায়কোচিত ইনিংসে শেষ পর্যন্ত লড়াই চালিয়ে গেলেও সেই পাহাড় টপকাতে পারেনি ইংল্যান্ড।

স্মিথের শতকে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া

স্মিথের শতকে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া

শূন্য রান দিয়ে সিরিজ শুরু করেছিলেন স্টিভেন স্মিথ। পরের ম্যাচে অর্ধশতক পেলেন কিন্তু দল হারলো। এবার অপরাজিত শতকে দলকে জিতিয়েই মাঠ ছেড়েছেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক।

সিরিজ হারল রুমানার দল

সিরিজ হারল রুমানার দল

এক ম্যাচ পরে আবার সেই ছন্নছাড়া চেহারায় রুমানা আহমেদের দল। ব্যাটিং ব্যর্থতায় ঠিক মতো লক্ষ্য তাড়াও করতে পারেনি বাংলাদেশের মেয়েরা। চতুর্থ ওয়ানডে ৯৪ রানে জিতে সিরিজ ঘরে তুলেছে দক্ষিণ আফ্রিকা।

স্বপ্ন দেখার ম্যাচে দুঃস্বপ্নের হার

স্বপ্ন দেখার ম্যাচে দুঃস্বপ্নের হার

একদিন আগেও উড়তে থাকা শ্বেত পায়রাগুলি হয়ে গেল নির্জীব; ডানা মেলার সামর্থ্য নেই, স্রেফ একটু-আধটু হাওয়ায় দুলুনি! খেলোয়াড়দের শরীরী ভাষার এই বদলই যেন বাংলাদেশের পারফরমান্সের প্রতিচ্ছবি। প্রথম ইনিংসে স্বপ্নকে ছাড়িয়ে যাওয়া টেস্ট ম্যাচের শেষটা হলো দুঃস্বপ্নের বিভীষিকায়।

চোট, বীরত্ব আর বাজে শটের গল্প

চোট, বীরত্ব আর বাজে শটের গল্প

বল লাগল ব্যাটের হাতলে, আঘাতটা যেন মুশফিকুর রহিমের হাতে। যন্ত্রণায় অস্ফুট শব্দ বের হলো মুখ দিয়ে। ব্যথা সয়েই লড়াই চালিয়ে যাচ্ছিলেন দাঁতে দাঁত চেপে। কিন্তু মাঠ ছাড়তে হলো হেলমেটের পেছন দিকে বলের আঘাত লেগে। খানিক পর ইমরুল কায়েসকে দেখা গেল প্যাড পায়ে অপেক্ষায়। দল সপ্তম উইকেট হারানোর পর ব্যাট হাতে নেমেও গেলেন খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে!

সেই মেলবোর্নেই পরাজয়ের বৃত্ত ভাঙল পাকিস্তান

সেই মেলবোর্নেই পরাজয়ের বৃত্ত ভাঙল পাকিস্তান

প্রায় ১২ বছর পর অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে স্বাগতিকদের কোনো সংস্করণে হারাল পাকিস্তান। ২০০৫ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি যে মাঠে হার দিয়ে ব্যর্থতার চক্রে ঘুরছিল, সেই এমসিজিতেই পরাজয়ের বৃত্ত ভাঙল তারা।

হঠাৎই শঙ্কার মেঘ

হঠাৎই শঙ্কার মেঘ

মিচেল স্যান্টনারের গুলির বেগে নিখুঁত থ্রোতে রান আউট মেহেদী হাসান মিরাজ। মাঠের বড় পর্দায় যখন ভেসে উঠেছে তৃতীয় আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত, মাঠের দুই আম্পায়ার তুলে নিলেন বেলসও। উৎকণ্ঠার মাঝেও বাংলাদেশের ড্রেসিং রুমে একটু স্বস্তি। দিনটা তো অন্তত শেষ হলো!

বাংলাদেশের কাছাকাছিই থামল নিউ জিল্যান্ড

বাংলাদেশের কাছাকাছিই থামল নিউ জিল্যান্ড

সকাল দশটায় আম্পায়াররা মাঠ পরিদর্শন করে জানালেন, খেলা শুরু হবে ঠিক সময়েই। মানে সাড়ে দশটায়। অথচ দুই দল তখনও মাঠেই আসেনি! আগের রাত থেকেই ছিল থেমে থেমে বৃষ্টি। সেটি চলছিল রোববার সকাল থেকেও। কিন্তু হুট করেই রোদের ঝিলিক। তড়িঘড়ি মাঠে এসে কোনো রকমে গা গরম করেই মাঠে নামল বাংলাদেশ।

প্রোটিয়া পেসারদের তোপে হোয়াইটওয়াশড শ্রীলঙ্কা

প্রোটিয়া পেসারদের তোপে হোয়াইটওয়াশড শ্রীলঙ্কা

কাগিসো রাবাদা-ভার্নন ফিল্যান্ডারের আগুন ঝরানো বোলিংয়ে শ্রীলঙ্কার পতনের শুরুটা হয়েছিল আগের দিন। উইকেট শিকারের সে উৎসবে শনিবার যোগ দিলেন ওয়েন পার্নেল ও নতুন মুখ ডুয়ানে অলিভিয়ের। তাতে ন্যূনতম প্রতিরোধও গড়তে পারল না অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউসের দল। তিন দিনেই ইনিংস ও ১১৮ রানে জিতে অতিথিদের হোয়াইটওয়াশ করল দক্ষিণ আফ্রিকা।

৩ উইকেট আর পাঁচটি সুযোগ

৩ উইকেট আর পাঁচটি সুযোগ

মার্টিন ক্রোর সেঞ্চুরির রেকর্ড ছোঁয়ার হাতছানি। মুহূর্তটার সাক্ষী হতে গ্যালারিতে রস টেইলরের বাবা-মা আর পরিবারের বেশ কজন। টেইলর থমকে গেলেন দারুণ শুরুর পরও। থিতু হওয়া কেন উইলিয়ামসনকে সরানোর দুঃসাধ্য কাজটিও হয়ে গেল তাসকিন আহমেদের গোলায়। কিন্তু টম ল্যাথামের দেয়ালে মুখ থুবড়ে পড়ল সব প্রচেষ্টা। ঠিক প্রথম ওয়ানডের মতো!

ইনিংস ঘোষণার আগে সাব্বির ঝলক

ইনিংস ঘোষণার আগে সাব্বির ঝলক

লোয়ার অর্ডারদের আড়াল করে আস্তে আস্তে দলকে টেনে নিচ্ছিলেন সাব্বির রহমান। হুট করেই এল ইনিংস ঘোষণা। ঘণ্টাখানেক ব্যাট করে ইনিংস ছেড়ে দিয়েছে বাংলাদেশ।